INDvsENG: সিরিজ জয়ের পরও ক্ষুব্ধ বিরাট, ম্যান অফ দ্য ম্যাচ আর ম্যান অফ দ্য সিরিজ খেতাব নিয়ে তুললেন প্রশ্ন

ভারত আর ইংল্যান্ডের মধ্যে ৩ ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজের তৃতীয় ম্যাচ পুণের মহারাষ্ট্র ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশনের স্টেডিয়ামে খেলা হয়েছে। এর আগে দুই দলের মধ্যে খেলা হওয়া সিরিজের প্রথম দুটি ম্যাচের পর সিরিজ ১-১ ছিল। এই ম্যাচে ইংলিশ অধিনায়ক জোশ বাটলার টস জিতে প্রথমে বল করার সিদ্ধান্ত নেন।
ভারত প্রথমে ব্যাট করে ৪৮.২ ওভারে হার্দিক পাণ্ডিয়া আর ঋষভ পন্থের দুর্দাত হাফসেঞ্চুরির সৌজন্যে ১০ উইকেট হারিয়ে ৩২৯ রা করে। এর পর শেষ ওভার পর্যন্ত চলা ম্যাচে শার্দূল ঠাকুর আর ভুবনেশ্বর কুমারের দুর্দান্ত বোলিংয়ের সৌজন্যে ভারত এই ম্যাচ ৭ রানের ব্যবধানে জিতে নেয়।সিরিজের তৃতীয় ম্যাচ জেতার পর ২-১ ফলাফলে সিরিজ জেতা নিয়ে ভারতীয় দলের অধিনায়ক বিরাট কোহলি পোষ্ট ম্যাচ প্রেজেন্টেশনে খোলাখুলি কথা বলেছেন।

ইংলিশ দলের জন্য স্যাম ক্যুরেনের চেষ্টা প্রশংসাযোগ্য- বিরাট কোহলি

INDvsENG: সিরিজ জয়ের পরও ক্ষুব্ধ বিরাট, ম্যান অফ দ্য ম্যাচ আর ম্যান অফ দ্য সিরিজ খেতাব নিয়ে তুললেন প্রশ্ন 1

সিরিজের তৃতীয় আর শেষ ম্যাচে পাওয়া ৭ রানে জয়ের সঙ্গেই ভারত এই সিরিজ ২-১ ফলাফলে জিতে নেয়। এই জয়ের পর পোষ্ট ম্যাচ প্রেজেন্টেশনে অধিনায়ক বিরাট কোহলি বলেন, “যখন দুই সিনিয়র ওপেনিং ব্যাটসম্যানের নিজেদের মধ্যে একে অপরের সঙ্গে কম্পিটিশন দেখে আমরা খুশি যে আগামীদিনে যথেষ্ট ভালো ম্যাচ দেখতে পাওয়া যাবে। ইংলিশ দলকে খেলায় বজায় রাখার জন্য স্যাম ক্যুরেন ভীষণ ভালো ইনিংস খেলেছে। স্যামের কারণেই আমরা ম্যাচ দ্রুত ফিনিশ করতে দেরী করে ফেলি আর এছাড়াও হার্দিক আর নটরাজনের হাতছাড়া হওয়া ক্যাচের ফলেও দেরী হয়ে যায়। একজন খেলোয়াড় যার ক্যাচ হাতছাড়া হয়েছে তার জন্য সেই পরিস্থিতি যথেষ্ট নিরাশাজনক হয়। বেশ কয়েকবার ক্যাচ হাতছাড়া করার দাম আপনাকে চোকাতে হয়। আমাদের দলের তীব্রতার কোনো অভাব ছিল না, দলের বডি ল্যাঙ্গুয়েজ যথেষ্ট ভালো ছিল। যারপর শেষে আমরা ম্যাচ জিততে সফল হই”।

শার্দূল ঠাকুর কেনো ম্যান অফ দ্য ম্যাচ নয়- বিরাট কোহলি

INDvsENG: সিরিজ জয়ের পরও ক্ষুব্ধ বিরাট, ম্যান অফ দ্য ম্যাচ আর ম্যান অফ দ্য সিরিজ খেতাব নিয়ে তুললেন প্রশ্ন 2

ম্যান অফ দ্য ম্যাচ আর ম্যান অফ দ্য সিরিজের নির্বাচন নিয়ে বিরাট কোহলি নিজের মতামত দিতে গিয়ে বলেন, “আমি আশ্চর্য হয়েছি যে শার্দূল ঠাকুর কেনো ম্যান অফ দ্য ম্যাচ পেল না আর অন্যদিকে ভুবনেশ্বর কুমারকেও ম্যান অফ দ্য সিরিজ দেওয়া হয়নি। ওই দুজনকে একদম বিপরীত পরিস্থিতিতে দুর্দান্ত বোলিং করার সম্পূর্ণ শ্রেয় দেওয়া উচিত। প্রসিদ্ধ আর ক্রুণাল ভালো বোলিং করেছে।

এছাড়া ডেথ ওভারগুলিতে আমাদের ব্যাটিংও ভীষণই ভালো ছিল। শুরু উইকেট দ্রুত পড়া সত্ত্বেও যদি উপরের তিনজন ব্যাটসম্যান সেঞ্চুরি করতে পারতেন তো নিশ্চিতভাবেই আমাদের স্কোর ৩৭০ বা ৩৮০ হত। এই জয় যথেষ্ট সুখের কারণ এটা বিশ্বের এক নম্বর দলের বিরুদ্ধে এসেছে, এরপর আমাদের পরবর্তী ফোকাস আইপিএলের উপর রয়েছে”।

আগামী সিরিজে শিডিউলকে খেয়াল রাখতে হবে – কোহলি

INDvsENG: সিরিজ জয়ের পরও ক্ষুব্ধ বিরাট, ম্যান অফ দ্য ম্যাচ আর ম্যান অফ দ্য সিরিজ খেতাব নিয়ে তুললেন প্রশ্ন 3

শেষে অধিনায়ক কোহলি বায়োবাবলে সিরিজের কার্যক্রমের ব্যাপারে কথা বলতে গিয়ে বলেন যে, “ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে এই সিরিজ একটা দুর্দান্ত মরশুম ছিল। এই সিরিজ শেষ করার ভীষণই ভালো ধরণ ছিল এটা। পরবর্তী ম্যাচগুলোতে আমাদের ম্যাচে কার্যক্রমকে মাথায় রাখতে হবে, কারন বায়োবাবলে থেকে খেলা যথেষ্ট মুশকিল। যার একটা কারন এটাও যে সকলের মানসিক ক্ষমতা এক রকম হয় না”।

suvendu debnath

কবি, সাংবাদিক এবং গদ্যকার। শচীন তেন্ডুলকর, ব্রায়ান লারার অন্ধ ভক্ত। ক্রিকেটের...

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *