"অনেক হয়েছে KL রাহুল, এবার একে সুযোগ দাও", এই ঝড়ো ব্যাটসম্যানকে দলে সামিল করার দাবি তুললেন বীরেন্দ্র সেহওয়াগ !! 1

চলতি বিশ্বকাপের আগে থেকেই চর্চায় ছিলেন লোকেশ রাহুল (KL Rahul), আইপিএল ২০২২ এ তিনি দ্বিতীয় সর্বোচ্চ রানের স্কোরার ছিলেন , কিন্তু আইপিএল শেষ হতে না হতেই চোট পেয়ে যান রাহুল এবং তার এই চোটের কারণেই দল থেকে ছিটকে যান তিনি, বেশ কয়েক মাস দলের বাইরে ছিলেন তিনি, দলে সুযোগ পেয়ে ছন্দ হারিয়ে ফেলেছিলেন রাহুল, জিম্বাবুয়ের বিরুদ্ধে তাকে অধিনায়ক হিসাবে পাঠানো হয় ছন্দ ফিরে পাওয়ার জন্য , কিন্তু তিনি সেখানেও ব্যর্থ হন, আশানুরূপ পারফরম্যান্স করতে পারেননি এশিয়া কাপে। তবুও তাকে সুযোগ দেওয়া হয় বিশ্বকাপে এবং তখন থেকেই তার সিলেকশন নিয়ে প্রশ্ন উঠেছিল ভারতীয় দর্শকদের মনে।

লোকেশ রাহুলের হতাশ পারফর্মেন্স

"অনেক হয়েছে KL রাহুল, এবার একে সুযোগ দাও", এই ঝড়ো ব্যাটসম্যানকে দলে সামিল করার দাবি তুললেন বীরেন্দ্র সেহওয়াগ !! 2

লোকেশ রাহুল এই বিশ্বকাপেও ভালো পারফরম্যান্স করতে পারেননি, ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে ভারতীয় দলের ১০ উইকেটে পরাজয় মানতে পারছেন না কোন ভারতবাসী। সেমিফাইনালে লোকেশ রাহুলের থেকে অনেক রানের আশা করা গিয়েছিল,  কিন্তু এই গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে তিনি মাত্র পাঁচ রান করেই প্যাভিলিয়নে ফিরে যান। বিশ্বকাপের প্রথম তিন ম্যাচেই একেবারেই রান করতে ব্যর্থ ছিলেন রাহুল, বাংলাদেশ এবং জিম্বাবুয়ের বিরুদ্ধে ফর্ম ফিরে পান তিনি , কিন্তু গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে তার পারফরম্যান্সে আবার হতাশ হয়েছে ভারতীয় দর্শকেরা, তার সাথে হতাশ হয়েছেন প্রাক্তন ভারতীয় ওপেনার বীরেন্দ্র সেহওয়াগ। লোকেশ রাহুল এই বিশ্বকাপে খুবই খারাপ পারফরমেন্স দেখিয়েছেন কেবলমাত্র ১৩৩ রান করেছিলেন ছয় ইনিংসে।

নতুন ওপেনার খুঁজে নিলেন সেহওয়াগ

"অনেক হয়েছে KL রাহুল, এবার একে সুযোগ দাও", এই ঝড়ো ব্যাটসম্যানকে দলে সামিল করার দাবি তুললেন বীরেন্দ্র সেহওয়াগ !! 3

রাহুলের এই পারফরম্যান্সে একেবারেই অখুশি সেহওয়াগ (Virendra Sehwag)। তিনি চান দলে ঈশান কিষানকে সুযোগ দেওয়া হোক কারণ তিনি এখন ভালো ছন্দে আছেন, তিনি মাঠের এক কোন থেকে অন্য কোণে মারার ক্ষমতা রাখেন যেকোনো বোলারকে, রোহিত শর্মা যখন দলে থাকেন না তখন এই জায়গায় মূলত ঈশানকে খেলতে দেখা যায়। ঈশান কিষান আগামী নিউজিল্যান্ডের সঙ্গে খেলার জন্য দলে সুযোগ পেয়েছেন, ইতিমধ্যে তিনি ভারতের হয়ে ৮টি একদিনের খেলায় ৩৩ গড়ে করেছেন ২৬৭ রান এবং টি টোয়েন্টি খেলায় ৩০ গড়ে ১৯ ইনিংসে করেছেন ৫৪৩ রান। দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে তিনি ৪১ গড়ে করেছেন ১২৩ রান এবং সৈয়দ মুস্তাক আলী ট্রফিতে ৩ ইনিংসে ১ টি শতরান সহ ৬৯ গড়ে করেছেন ১৩৮ রান।

Leave a comment

Your email address will not be published.