শ্রীলঙ্কাকে প্রথম টি২০তে পরাস্ত করল ভারত, এই অভিষেককারী মাতিয়ে রাখলেন 1

কলম্বোর আর প্রেমাদাসা স্টেডিয়ামে তিন ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজের প্রথম ম্যাচে শ্রীলঙ্কাকে ৩৮ রানে হারিয়েছে ভারত। এই ম্যাচে শ্রীলঙ্কা টস জিতে প্রথমে বোলিংয়ের সিদ্ধান্ত নেয়। প্রথমে ব্যাট করে টিম ইন্ডিয়া ২০ ওভারে ৫ উইকেট হারিয়ে ১৬৪ রান তোলে। জবাবে শ্রীলঙ্কার দল জয়ের জন্য ১৬৫ রানের লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে ১৮.৩ ওভারে ১২৬ রানে অলআউট হয়ে যায়।

মিনোদ ভানুকার হয়ে পড়ে শ্রীলঙ্কার প্রথম উইকেট। সূর্যকুমার যাদবের হাতে ১০ রানে ক্রুনাল পান্ড্যের হাতে ক্যাচ দিয়েছিলেন তিনি। চাহাল শ্রীলঙ্কাকে আবার একটি ধাক্কা দিলেন এবং তিনি ধনঞ্জয় ডি সিলভাকে ৯ রানে আউট করেছিলেন। ২৬ রানে অবিশকাকে উইকেটের পেছনে ফেলে দিয়েছিলেন ভুবনেশ্বর। হার্দিক পান্ডিয়ার বলে ৯ রানে ক্লিন বোল্ড হয়েছিলেন আশেন বন্দর। চারিথ আসলঙ্কাকে ৪৪ রানে আউট করলেন দীপক চাহার। চাহার তারপর ভানিন্দু হাসরঙ্গকে শূন্য রানে আউট করলেন। ভুবনেশ্বর চামিকা করুণারত্নেকে তিন রানে আউট হন। দাসুন শানাকা ১৬ রানে বরুণ চক্রবর্তীর কাছে আউট হয়েছিলেন। ইসুরু উদানাকে ১ রানে আউট করেন ভুবনেশ্বর। এরপরে ভুবনেশ্বর এক রানে দুশমন্ত চামিরাকে আউট করেন। এই ম্যাচে ভুবনেশ্বর ৪ উইকেট নিয়েছিলেন। দীপক চাহার দুটি উইকেট পেয়েছেন। হার্দিক পান্ডিয়া, ক্রুনাল পান্ডিয়া, যুজবেন্দ্র চাহাল এবং বরুণ চক্রবর্তী একটি করে উইকেট নিয়েছিলেন।

শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে এই ম্যাচের মধ্য দিয়ে পৃথ্বী শ টি-টোয়েন্টি আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অভিষেক ঘটালেও তার অভিষেকটি দুষ্মন্ত চামিরা দ্বারা নষ্ট হয়ে যায়। ম্যাচের প্রথম ইনিংসের একেবারে প্রথম বলে শকে সোনার হাঁসে আউট করেছিলেন তিনি। টিম ইন্ডিয়ার দ্বিতীয় উইকেট পড়েছিল সঞ্জু স্যামসন, যিনি ২০ বলে ২৭রান করেছিলেন। হাসরঙ্গার ডেলিভারিতে এলবিডব্লিউ হয়ে আউট হন সঞ্জু স্যামসন। অধিনায়ক শিখর ধাওয়ান ৩৬ বলে ৪৬ রানের দুর্দান্ত এক ইনিংস খেলেন এবং করুণারত্নের হাতে ক্যাচ দিয়েছিলেন। সূর্যকুমার যাদব ৩০ বলে ৫০ রানের ইনিংস খেলেন এবং হাসরঙ্গার ডেলিভারিতে ক্যাচ হন। হার্দিক পান্ডিয়া ১০ রানের ইনিংস খেলেন এবং চামিরার কাছে আউট হন। ইশান কিশান ২০ রান করেন এবং ক্রুনাল পান্ডিয়া তিন রান করে অপরাজিত থাকেন।

Leave a comment

Your email address will not be published.