IND vs ENG: ভারত-ইংল্যান্ড ম্যাচে নেই কেটলব্রো, উল্লাস ভারতীয় শিবিরে !! কারণটা জানলে চোখ কপালে উঠবে 1

IND vs ENG: টি-২০ বিশ্বকাপ ২০২২-এর যাত্রা এখনও পর্যন্ত টিম ইন্ডিয়ার জন্য বেশ ভালোই হয়েছে। সুপার ১২ রাউন্ডে ভারতীয় দল তাদের ৫ ম্যাচের মধ্যে ৪টি জয় এবং ১টিতে পরাজয় নিয়ে সেমিফাইনালে জায়গা করে নিয়েছে। ১০ নভেম্বর অ্যাডিলেডে অনুষ্ঠিত সেমিফাইনালে তারা মুখোমুখি হবে ইংল্যান্ডের। এই ম্যাচে ফিল্ড আম্পায়ার হিসেবে দায়িত্ব পালন করবেন কুমার ধর্মসেনা ও পল রেইফেল। সোমবার ম্যাচ অফিসিয়াল ঘোষণার সময় আইসিসি এই তথ্য জানিয়েছে। একই সঙ্গে তৃতীয় আম্পায়ার হিসেবে রাখা হয়েছে ক্রিস গ্যাফনিকে। টিম ইন্ডিয়ার এই গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচের জন্য আম্পায়ার রিচার্ড কেটলব্রোকে দূরে রাখা হয়েছে।

কেটলব্রো টিম ইন্ডিয়ার জন্য ভয়ের কারণ!

IND vs ENG: ভারত-ইংল্যান্ড ম্যাচে নেই কেটলব্রো, উল্লাস ভারতীয় শিবিরে !! কারণটা জানলে চোখ কপালে উঠবে 2

আম্পায়ার রিচার্ড কেটলব্রোকে টিম ইন্ডিয়ার জন্য দুর্ভাগ্যের কারণ হিসেবে বিবেচনা করা হয়। আসলে ভারতের ম্যাচে তিনি যতগুলো ম্যাচে আম্পায়ারিং করেছেন দলকে হারের মুখে পড়তে হয়েছে। তবে আপাতত স্বস্তির বিষয় যে টিম ইন্ডিয়ার বিরুদ্ধে ম্যাচ থেকে কেটলব্রোকে  সরিয়ে রাখা হয়েছে। মনে করা হচ্ছে, কেটলব্রোর কারণে টিম ইন্ডিয়া নকআউট ম্যাচ জিততে পারেনি। কিন্তু এখন সেমিফাইনালে না থাকায় ভারত ফাইনালে যেতে পারে বলে মনে করা হচ্ছে।

কেটলব্রোর সামনে খেলতে পারেনা ভারতীয় ব্রিগেড

IND vs ENG: ভারত-ইংল্যান্ড ম্যাচে নেই কেটলব্রো, উল্লাস ভারতীয় শিবিরে !! কারণটা জানলে চোখ কপালে উঠবে 3

২০১৪ থেকে ২০২১ সাল পর্যন্ত এমন অনেক ম্যাচ দেখা গেছে যেখানে রিচার্ড কেটলব্রোর আম্পায়ারিংয়ে টিম ইন্ডিয়া ম্যাচ হেরেছে। ২০১৪ টি ২০ বিশ্বকাপের কথা বলতে গেলে, ফাইনালে, ভারত টস হেরে প্রথমে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নেয়। এই সময়ে, তিনি ১৩০ রান করেন। এর জবাবে শ্রীলঙ্কা ১৩ বল আগে ম্যাচটি জিততে সক্ষম হয়। পরের বছর, ২০১৫ ওডিআই বিশ্বকাপের সেমিফাইনাল ম্যাচে, অস্ট্রেলিয়া টস জিতে ৩২৮/৭ রান তোলে। তারা প্রথমে ব্যাট করে। এর জবাবে টিম ইন্ডিয়া ২৩৩ রানে শেষ হয়ে যায় এবং তারা ম্যাচ হারে ৯৫ রানে।

শুধু তাই নয়, মুম্বাইয়ের ওয়াংখেড়েতে অনুষ্ঠিত ২০১৬ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে টিম ইন্ডিয়া ওয়েস্ট ইন্ডিজের কাছে শুধু টস হেরে যায়নি, বরং ম্যাচ হেরে টুর্নামেন্ট থেকেও ছিটকে গিয়েছিল এবং এই সময়ে সেই ম্যাচে আম্পায়ারও ছিলেন রিচার্ড কেটলব্রো।

Leave a comment

Your email address will not be published.