ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে হারের পর কোচ দ্রাবিড়ের চমকপ্রদ বয়ান, এই প্রশ্নে ক্ষিপ্ত টিম ইন্ডিয়ার কোচ !! 1

এজবাস্টনে ভারত-ইংল্যান্ডের (ENG vs IND) মধ্যে টেস্টের প্রথম তিন দিনেই আধিপত্য ছিল টিম ইন্ডিয়া (Team India)। কিন্তু শেষ দুই দিনে পুরো চিত্র পাল্টে আক্রমণাত্মক ক্রিকেট খেলে ম্যাচ নিজেদের মুঠোয় নিয়ে নেয় ইংল্যান্ড (England)। ইংল্যান্ড ম্যাচে ফেরার পর থেকে বারবার একটা কথাই উঠে আসছে, আর সেটা হল ‘ব্যাজবল’। এখন প্রশ্ন জাগে এই শব্দের অর্থ কি এবং কে দিয়েছে এবং কেন এবং ইংল্যান্ড দলের সাথে এর সম্পর্ক কি? এই নিয়ে বিস্তারিত কথা হচ্ছে এখন। আসলে এই শব্দটি তৈরি করেছেন ইংল্যান্ডের নতুন কোচ ব্রেন্ডন ম্যাককালাম (Brendon McCullum)। ব্যাজ তার ডাকনাম এবং এটি একটি ধারণা বা চিন্তা। এর মাধ্যমে ইংল্যান্ড দল অ্যাশেজ সিরিজের ব্যর্থতা ভুলে ট্র্যাকে ফিরে এসেছে। ভারতের বিরুদ্ধে ইংল্যান্ডের জয়ের পরে, প্রধান কোচ রাহুল দ্রাবিড়কেও (Rahul Dravid) একই বিষয়ে সাংবাদিক সম্মেলনে একটি মজার প্রশ্ন করা হয়েছিল। তবে, দ্রাবিড়ও এই বিষয়ে একটি উত্তর দিয়েছেন।

ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে এজবাস্টন টেস্টে (ENG vs IND) ৭ উইকেটের পরাজয়ের পর সংবাদ সম্মেলনে পৌঁছে যান রাহুল দ্রাবিড়। তার এক ভারতীয় প্রতিবেদক জিজ্ঞেস করলেন, মানুষ ‘ব্যাজবল’ নিয়ে অনেক কথা বলছে। কেউ কেউ বলছেন, এটা ক্রিকেটকে পুরোপুরি বদলে দেবে। একজন কোচ হিসেবে এটা নিয়ে আপনি কী ভাবছেন? এই প্রশ্নে কিছুক্ষণ চুপ থাকেন দ্রাবিড়। তারপর মুচকি হেসে বলেন “আমি জানি না এটা কি?” এই কথা বলার সাথে সাথে পুরো হল হাসিতে ফেটে পড়ে। যদিও পরে দ্রাবিড় তার উত্তর শেষ করেন।

“ইংল্যান্ড দল দুর্দান্ত ক্রিকেট খেলছে”

ইংল্যান্ড দলের প্রশংসা করে দ্রাবিড় (Rahul Dravid) বলেন, “আমি অবশ্যই বলবো যে গত কয়েক মাসে তারা যে ধরনের ক্রিকেট খেলছে তা সত্যিই দুর্দান্ত। লক্ষ্য তাড়া করতে গিয়ে ইংলিশ দল অসাধারণ খেলেছে। ইংল্যান্ডের মাটিতে চতুর্থ ইনিংসে লক্ষ্য তাড়া করা কখনই সহজ ছিল না। এটা অনেক খেলোয়াড়ের উপর নির্ভর করে এবং তারা বর্তমানে কি ধরনের ফর্মে আছে সেটাও গুরুত্বপূর্ণ। খেলোয়াড়রা যখন ভালো ফর্মে থাকে, তখন অবশ্যই আপনি আরও ইতিবাচক ক্রিকেট খেলেন। যেমন আমরা প্রথম ইনিংসে করেছিলাম, যেখানে জাদেজা ও পন্থ ভালো খেলছিল।”

‘ব্যাজবল’ ক্রিকেট ইংল্যান্ডের ভাগ্য বদলে দিয়েছে

Jonny Bairstow

ব্যাজবলের ভিত্তিতে ইংলিশ ক্রিকেট ট্র্যাকে ফিরে এসেছে। আসলে অস্ট্রেলিয়ার (Australia) কাছে অ্যাশেজ (Ashes) সিরিজে বিব্রতকর পরাজয়ের মুখে পড়েছিল ইংল্যান্ড (England)। এরপর ইংল্যান্ডের কোচ ও অধিনায়ক পরিবর্তনের দাবি ওঠে এবং তারপর ইংল্যান্ডের টেস্ট দলের কোচ হন ব্রেন্ডন ম্যাককালাম (Brendon McCullum)। প্রথম দিকে সবার মনে প্রশ্ন ছিল কিভাবে টি-টোয়েন্টির এই স্পেশালিস্ট ব্যাটসম্যান টেস্ট দলের কোচ হবেন। কিন্তু তিনি কোচ হওয়া এবং বেন স্টোকসের অধিনায়কত্ব গ্রহণ করার সাথে সাথে ইংল্যান্ড দলে পরিবর্তন আসে এবং তার জন্য টেস্ট ক্রিকেট হয়ে ওঠে ব্যাজবল ক্রিকেট। তার ফলাফলও সবার সামনে। ইংল্যান্ড শেষ চার টেস্ট জিতেছে ২৫০ প্লাস স্কোর তাড়া করে।

Leave a comment

Your email address will not be published.