এই বছর এশিয়াকাপ করা হতে পারে স্থগিত, জেনে নিন কারণ

পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডের সভাপতি এহসান মানির কথা অনুযায়ী যি ভারতীয় দল আইসিসি বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালে কোয়ালিফাই করে, তো এশিয়াকাপ ২০২৩ পর্যন্ত স্থগিত করা হতে পারে। প্রসঙ্গত টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনাল ১৮ থেকে ২২ জুন পর্যন্ত লর্ডসে খেলা হবে। নিউজিল্যাণ্ড ফাইনালে যাওয়া প্রথম দল হয়ে গিয়েছে। দ্বিতীয় দল ভারত বা অস্ট্রেলিয়ার মধ্যে কেউ একটা হতে পারে।

২০২৩ পর্যন্ত সরানো হতে পারে এশিয়া কাপ

এই বছর এশিয়াকাপ করা হতে পারে স্থগিত, জেনে নিন কারণ 1

পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডের চেয়ারম্যান বলেছেন যে গত বছর এশিয়াকাপ স্থগিত হয়ে গিয়েছিল, আর এই বছরও ভারতীয় দল বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালে গেলে এই টুর্নামেন্ট স্থগিত হতে পারে।
মানি বলেছেন, “এশিয়া কাপ গত বছর হওয়ার কথা ছিল, কিন্তু এটা এই বছরের জন্য স্থগিত করা হয়েছিল। বর্তমানে এমন মনে হচ্ছে যে এশিয়া কাপ এই বছর এগোবে না কারণ বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ ফাইনালে জুনে খেলা হবে। শ্রীলঙ্কা বলেছিল যে ওরা জুনে টুর্নামেন্টের আয়োজন করার চেষ্টা করবে। তারিখ নিয়ে ক্ল্যাশ হছে। আমাদের মনে হচ্ছে যে টুর্নামেন্ট এগোবে না। আমরা এটা ২০২৩ পর্যন্ত সরাতে পারি”।

পিসিবি ভিসা নিয়ে আইসিসির সঙ্গে বলেছে কথা

এই বছর এশিয়াকাপ করা হতে পারে স্থগিত, জেনে নিন কারণ 2

এহসান মানি আইসিসির সঙ্গেও কথা বলেছে আর গভর্নিং কাউন্সিলও আশ্বাসন দিয়েছে যে পিসিবি আগামী মাসের মধ্যে বিসিসিআইয়ের কাছে ভিজার জন্য লিখিত আশ্বাসন পেয়ে যাবে। ভিসা আশ্বাসন শুধু মাত্র তাদের সমস্ত খেলোয়ড়দের জন্য হবে না বরং এই বছর ভারতে হতে চলা টি-২০ বিশ্বকাপের জন্য আধিকারিকদের, সমর্থকদের আর সাংবাদিকদের জন্যও হবে। এর আগেও পিসিবি নিয়মিত আইসিসিকে বলেছিল যে আমাদের টি-২০বিশ্বকাপের ভিসার জন্য লিখিত আশ্বাসন চাই, অন্যথায় টুর্নামেন্ট অন্য কোথাও স্থানান্তরিত করা হোক। পিসিবি খেলোয়াড় ছাড়াও সমর্থক আর মিডিয়া কর্মীদের জন্যও ভিসা চেয়েছিল।

suvendu debnath

কবি, সাংবাদিক এবং গদ্যকার। শচীন তেন্ডুলকর, ব্রায়ান লারার অন্ধ ভক্ত। ক্রিকেটের...

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *