অবশেষে নজরকাড়া ক্রিকেট খেলে বৃহস্পতিবার কিংস্টোন ওভালে হেভিওয়েট ভারতের বিরুদ্ধে নিজেদের ওয়ানডে রেকর্ডে সবচেয়ে বেশি রান চেজ করে ম্যাচ জিতলো টিম শ্রীলঙ্কা। লঙ্কানদের এই জয়ের ফলে গ্রুপ ‘বি’ তে এখনও পর্যন্ত সব দলের কাছে প্রতিযোগিতার সেমিফাইনালে যাওয়ার রাস্তা খোলা থেকে গেল। ভারতের প্রথম ইনিংসে করা ৩২১ রানের লক্ষ্যমাত্রা অতিক্রম করতে ব্যাট হাতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করলেন দানুষ্কা গুনাথিলাকা, কুশাল পেরেরা সহ দলের বাকিরাও। যার ফলে ভারতের বিরুদ্ধে ৭ উইকেটের একটা দারুণ জয় তুলে নিতে সক্ষম হলেন অ্যাঞ্জেলো ম্যাথিউজের দলটি।

ম্যাচের শুরুতে শ্রীলঙ্কা টস জিতলেও, ভারত প্রথম ব্যাট করে নিজেদের স্কোর বোর্ডে পাহাড়প্রমাণ ৩২১ রান তুলে নেয়। শিখর ধাওয়ান ১২৮ বলে ১২৫ রান করেন। রোহিত শর্মা ৭৮। ওপেনিং জুটিতে ভারতের স্কোর বোর্ডে এই দুই ব্যাটসম্যান ১৩৮ রান জমা করেন। এ ম্যাচে ব্যাট হাতে বুড়ো হাড়ে ভেলকি দেখান মহেন্দ্র সিং ধোনি। তাঁর শেষ দিকে ঝোড়ো ৬৩ রানের সুবাদে ভারত তিনশো’র গন্ডি পার করতে সফল হয়। নজরকাড়া ব্যাটিং করেন কেদার যাদবও। তবে দলকে ব্যাট হাতে ভরসা দিতে ব্যর্থ হন অধিনায়ক বিরাট কোহলি। শূন্য রানে প্যাভিলিয়নে ফেরেন তিনি।

ম্যাচ হারের পর স্বাভাবিকভাবে হতাশা ঝরে পড়লো ভারত অধিনায়ক কোহলির গলা থেকে। তিনি বলেন,

‘একটা সময় আমরা ভেবে ছিলাম, নিজেদের স্কোর বোর্ডে যথেষ্ট রান জমা করে ফেলেছি। আমার নিজের দলের বোলারদের ওপর ভরসা ছিল। ওরা ভালো বোলিংও করেছে। আমাদের বোলাররা সঠিক জায়গায় বলও রেখেছিল। কিন্তু শ্রীলঙ্কার ব্যাটসম্যানরা ক্রিজে নিজেদের খেলার ধারা বজায় রেখে ভালো ব্যাটিং করে গেল। ওরা সত্যি অসাধারণ ক্রিকেট খেললো।’

একটু থেমে কোহলি আরও বলেন,

 

‘সর্বদা হারানোর পরই বোধদয় হয়। আমি যেমন আগেও বলেছি, আমরা এ ম্যাচে ভালো বোলিং করেছি। তবে আমরা তার থেকে পুরোপুরি ফায়দা লুটতে পারিনি। যে ম্যাচে আপনি জয় পাবেন না, হারের কারণ বের করতে আপনাকে সবদিকে নজর ঘোরাতে হয়। সত্যি বলতে, এই টুর্নামেন্টে কাউকে কমজোর মনে করা উচিত নয়, আর আমরা সেটা মাথায় নিয়েই মাঠে নামি।’

এ ম্যাচে অবশ্য লঙ্কা দলের ওপেনার নিরোশান ডিকওয়েলা পঞ্চম ওভারে সাজঘরে ফিরে গিয়েছিলেন কম রানের বিনিময়ে। প্রথম আঘাতের পর লঙ্কান ব্যাটসম্যানরা অবশ্য ধীরে চলো নীতি অবলম্বন করেন। দানুষ্কা এবং মেন্ডিস জুটি ক্রমে নিজেদের স্কোর বোর্ডে ১৫৯ রান জমা করে ফেলেন। পরে অধিনায়ক ম্যাথিউজ (৫২) এবং কুশাল পেরেরা (৪৭) কঠিন সময়ে ঠান্ডা মাথায় ব্যাট করে শেষমেশ টিম ইন্ডিয়াকে পরাজয়ের স্বাদ চাঁখিয়ে দেন।

  • SHARE

    আরও পড়ুন

    ধোনির দিন শেষ? কি বললেন সৌরভ

    ধোনির দিন শেষ? কি বললেন সৌরভ
    সেই কবেই নেভিল কার্ডাস বলে গেছেন ওয়ান ডে ক্রিকেটে পাজামা ক্রিকেট বলে। ওয়ান ডে ক্রিকেটের জামানায় টেস্ট...

    জয়ের সমস্ত কৃতিত্বই ওর : রোহিত শর্মা

    দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে টি২০ সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচে হারার পর ভারতীয় দল আরও দারুণভাবে ফিরে এসে সেঞ্চুরিয়ানের সুপার...

    বিরাটের কাছেই স্পিন খেলা শিখেছি: স্টিভ স্মিথ

    বিরাটের কাছেই স্পিন খেলা শিখেছি: স্টিভ স্মিথ
    বিশ্ব ক্রিকেটে এই মুহুর্তে তাদের মধ্যে চলছে শ্রেষ্ঠত্বের লড়াই। তা সত্ত্বেও এই দুজনের মধ্যে একে অপরকে সম্মান...

    তৃতীয় টি২০তে এই তারকার খেলা নিয়ে সন্দেহ

    পিটিআইয়ের একটি রিপোর্টের মোতাবিক তৃতীয় এবং ফাইনাল ওয়ান ডেতে জসপ্রীত বুমরাহের অংশ নেওয়া এখনও সন্দেহজন অবস্থায় রয়েছে।...

    বিশ্বকাপে ভারতীয় স্পিন বিভাগে কারা খেলবেন মুখ খুলনে নির্বাচক প্রধান

    বিশ্বকাপে ভারতীয় স্পিন বিভাগে কারা খেলবেন মুখ খুলনে নির্বাচক প্রধান
    ২০১৯ বিশ্বকাপের বাকি আর মাত্র দেড় বছর। তার আগে গত ২ বছর ধরেই দুরন্ত ফর্মে রয়েছে ভারতীয়...