IPL 2022

আইপিএল ২০২২-এর (IPL 2022) ৫৮ তম ম্যাচে বুধবার রাজস্থান রয়্যালসের মুখোমুখি হয় দিল্লি ক্যাপিটালস। মুম্বাইয়ের ডিওয়াই পাতিল স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত হওয়া এই ম্যাচটি দিল্লির কাছে মরণবাঁচন লড়াই ছিল। আসলে প্লে অফরে আশা জিইয়ে রাখতে হলে এই ম্যাচটা জিততেই হত ঋষভ পন্তের দলকে। আর এ দিন শক্তিশালী রাজস্থানকে ২ উইকেটে হারিয়ে দিয়ে ঠিক সেই কাজটাই করে দেখাল তারা। এ দিন এই জয়ের পিছনে দিল্লির জার্সিতে সব থেকে বড় অবদান মিচেল মার্শের। বল হাতে প্রথমে ২ উইকেট নেওয়ার পাশাপাশি ব্যাট হাতে করে গেলেন ৮৯ রান।

ম্যাচের পর কী বললেন মার্শ?

IPL 2022

সঙ্গত কারণেই এ দিন তাকে প্লেয়ার অফ দ্য ম্যাচ বাছা হয়। খেলা শেষে এহেন মার্শ বলেন, “বল ও ব্যাট করা খুবই ধকলের ব্যাপার। ব্যাট করার সময় প্রথম দিকটা বেশ কঠিন ছিল। বল তখন সুইং হচ্ছিল আর বাউন্সও ভালো ছিল। একটা সময় মনে হচ্ছিল যেন পারথের পিচে ব্যাট করছি। তবে এটা ঠিক যে ১৬০ রানটা বিরাট কোন স্কোর ছিল না। একবার ক্রিজে জমে যাওয়ার পর বড় শট খেলতে আর কোন অসুবিধা হয়নি। ব্যক্তিগতভাবে এই ইনিংসটা খেলে আমি খুবই খুশি।”

এ দিন, রাজস্থানের বিরুদ্ধে ব্যাট করতে নেমে মিচেল মার্শ নিজের ইনিংসের শুরুটা ধীর গতিতে করেন। কিন্তু, এরপর দ্রুত হাফ সেঞ্চুরির ইনিংস দিয়ে ভক্তদের মন জয় করেন তিনি। চলতি মরশুমে এটি মার্শের প্রথম হাফ সেঞ্চুরি। এর আগে ব্যাট হাতে বিশেষ কিছু করতে পারেননি তিনি। তা সত্ত্বেও, ম্যানেজমেন্ট তার প্রতি তাদের বিশ্বাস বজায় রেখেছিল এবং বুধবার অবশেষে মিশেল মার্শ সেই ভরসার মান রাখলেন।

চলতি মরশুমে মার্শ তার প্রথম ফিফটি করলেন

IPL 2022: রাজস্থানের বিরুদ্ধে 'হিরো' মিচেল মার্শ ম্যাচ সেরার পুরস্কার পেয়ে দিলেন এই হুঙ্কার 1

আসলে, প্রথমে ব্যাট করতে নেমে, রাজস্থান রয়্যালস ৬ উইকেট হারিয়ে ১৬০ রান করে এবং দিল্লি ক্যাপিটালসের জয়ের জন্য ১৬১ রানের প্রয়োজন পড়ে। এর জবাবে দিল্লির শুরুটা ছিল খুবই খারাপ। কিন্তু, ডেভিড ওয়ার্নারের সাথে মিচেল মার্শ দলের সামনের হাল ধরেন। এরপর আর পেছনে ফিরে তাকাতে হয়নি। মার্শ মাত্র ৩৮ বলে দুর্দান্ত এক হাফ সেঞ্চুরি। তার অর্ধশতরানের ইনিংসের ওপর ভর করেই ম্যাচটা জিতে নেয় পন্তের দল। ১৮তম ওভারের প্রথম বলে ৬২ বলে ৮৯ রান করে মার্শ আউট হন।

Leave a comment

Your email address will not be published.