নভেম্বর মানেই WWE’র বছরের শেষ বড় পে-পার-ভিউ। আরও একটা সারভাইভার সিরিজ WWE Universe-এর জন্য় অপেক্ষা করছে। এবার সারভাইভার সিরিজের একত্রিশতম সংস্করণ। WWE মানেই স্ক্রিপটেড স্টোরি লাইন আর রিয়েল ফাইট। স্পোর্টস এন্টারটেইনমেন্টারদের কাজ এটাই। ১৯৯৭ সালের সারভাইভার সিরিজের সেই মেইন ইভেন্টের কথা এখনও ফ্য়ানেরা মনে রেখেছেন। যাঁরা এরপর WWE দেখতে শিখেছেন, তাঁরাও শুনেছেন, সেই বিখ্য়াত মন্ট্রিয়াল স্ক্রিউ জব-এর গল্প। আর সেদিনই প্রো রেসলিং দুনিয়ায় নতুন একটা মাত্রা যোগ করেছিলেন আধুনিক প্রো রেসলিংয়ের জনক ভিনস ম্য়াকম্য়াহন। বলা হয়, WWE-তে সেই প্রথম হিল ক্য়ারেকটার-এর সূচনা। মানে অ্য়ান্টি হিরো।

ভিনস ম্য়াকম্য়াহনের তুখোড় ব্য়বসায়ী বুদ্ধির কাছে অন্য়ান্য় রেসলিং প্রোমোশনগুলি একের পর এক শেষ হয়ে গিয়েছে আর WWE ততই তরতর করে ওপর দিকে উঠেছে। আর এখন WWE প্রো রেসলিংয়ের সেরা মঞ্চ। অর্থ, জৌলুস আর প্রচার – সব একলহমায় এসে লুটোয় রেসলারদের পায়ে। WWC’র অস্তিত্ব আজ না থাকলেও, মন্ট্রিয়াল স্ক্রিউ জব এখনও আলোচনায় বিষয়বস্তু হয়ে ওঠে বছরের এই সময়টা।

 

কুড়ি বছর আগে WWE (তৎকালীন WWF) থেকে WWC চলে যাওয়ার আগে শেষ ম্য়াচে চ্য়াম্পিয়ন ব্রেট হার্টকে জোর করে হারিয়েছিলেন WWE কর্ণধার ভিনস ম্য়াকম্য়াহন। ব্রেট চেয়েছিলেন, চ্য়াম্পিয়ন থেকে WWC’তে যেতে। কিন্তু, ভিনস চাননি, ব্রেট চ্য়াম্পিয়ন হিসেবে অপরাজিত থেকে প্রতিপক্ষ কোম্পানি যান। আর সেই কারণেই ম্য়াচের শেষ কিভাবে হবে, ব্রেটকে তা আগে থেকে জানানো হয়নি। বিদায়ী মঞ্চে তাঁকে চ্য়াম্পিয়ন্সশিপ ম্য়াচে জোর করে হারানোর জন্য় ব্রেট বারো বছর WWE’র থেকে দূরে ছিলেন। ২০০৯ সালে ফের পা রাখেন তাঁর পুরনো কোম্পানিতে। সে বছরই হল অফ ফেম-এ জায়গা দেওয়া হয় এই লেজেন্ডকে।

কুড়ি বছর আগে ওই সারভাইভার সিরিজ শোতে তাঁর সঙ্গে ওইরকম ছলনা করার জন্য় ব্রেট ভীষণ চটে গিয়েছিলেন। দ্বন্দ্ব একেবারে পারস্পরিক বিদ্বেষে পরিণত হয়েছিল। সেদিন ইভেন্টের পর ব্য়াকস্টেজে ভিনসকে ঘুঁষি মেরেছিলেন ব্রেট। ব্রেটের দাবি, ওই ঘুঁষি নাকি প্রো রেসলিংয়ের সবচেয়ে সেরা ঘুঁষি ছিল (কাউকে মারার ক্ষেত্রে)।

আগামী ১৯ নভেম্বর এবারের সারভাইভার সিরিজ পে-পার-ভিউ। ভারতে ২০ নভেম্বর সরাসরি সম্প্রচারিত হবে। তার তিনদিন আগে ক্য়ালগেরি হেরাল্ডকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে ব্রেট বলেন, ওটা একটা ঘুঁষি ছিল। সাধারণ ঘুঁষি। কিন্তু, বেশ সুন্দর ঘুঁষি ছিল। জীবনে যা করেছি, সবচেয়ে সুন্দর কাজ ওটাই ছিল। কারওর পক্ষে ওটাই সুন্দরতম মারা ঘুঁষি ছিল। দারুন ছিল ঘুঁষিটা। এখনও মুখে হাসি চলে আসে ঘটনাটার কথা মনে পড়ে গেলে। হয়ত, তারপরে আমাকে ট্রিপল এইচ আর শন মাইকেলসের সঙ্গে ফ্লোর মপ বুলিয়ে পরিষ্কার করতে হতো। আসলে ভিনস মাচো টাইপ ছিলো। ও আমাকে দেখাতে চেয়েছিল, আমি তোমাদের বস। আর এই করে আমাকে কোণঠাসা করতে চেয়েছিল। আর সেজন্য়ই ওই ঘুঁষিটা খেয়েছিল।

 

প্রতারণা

সেদিন যে শন মাইকেলসকে WWE চ্য়াম্পিয়ন করা হবে, তা ব্রেট না জানলেও মাত্র চারজন জানতেন ভিনস ছাড়া। ভিনস ম্য়াকম্য়াহনের ছেলে শেন ম্য়াকম্য়াহন ও মাইকেলস এবং জেরি ব্রিস্কো ও রেফারি আর্ল হেবনার। যে মানুষদের সঙ্গ অতোদিন একসঙ্গে কাজ করেছেন, চলে যাওয়ার মুহূর্তে তাঁরাই তাঁর সঙ্গে ওইরকমভাবে ছলনা করায় ব্রেট নিজেকে প্রতারিত মনে করেছিলেন। প্রতারিত হওয়া, মিথ্য়ে কথা বলা হয়েছিল। যাদের সঙ্গে অতোদিন একসঙ্গে কাজ করেছিলাম তারাই আমার সঙ্গে প্রতারণা করেছিল। ওই ঘটনার পর আমি সবাইকে জানিয়েছিলাম। একটা কথাও মিথ্য়া ছিল না। যা ঘটেছিল, যেভাবে ঘটেছিল, সেটাই সামনে এনেছিলাম সে সময়।

 

রেসলিংয়ে আসার কারণ

রেসলিংয়ে আসার তিনটি কারণ ছিল। প্রচুর অর্থ উপার্জন করব, বিশ্ব ভ্রমণ করব আর সুন্দরী মহিলাদের সঙ্গে পরিচয় করব। আমি তা করেওছি। ওই তিনটিই আমার প্রাথমিক লক্ষ্য় ছিল। এখন পিছন ফিরে তাকালে আমি চমকে যাই। জীবনে কত কি করেছি। দারুণ কেরিয়ার ছিল আমার। বেশ অসাধারণ মানুষের সঙ্গে কাজ করেছিলাম। ভালো ভালো ম্য়াচে অংশ নিয়েছিলাম। আমার নিজের দেশ এবং সারা বিশ্বে আমার অনেক অনুরাগী রয়েছে।

SHARE

আরও পড়ুন

তেন্ডুলকর বললেন এই খেলোয়াড়ের উপর বেশি নির্ভরশীল হওয়া উচিৎ নয় টিম ইন্ডিয়ার

তেন্ডুলকর বললেন এই খেলোয়াড়ের উপর বেশি হওয়া উচিৎ নয় টিম ইন্ডিয়ার নির্ভরশীল
বিশ্বকাপ শুরু হতে আর মাত্র ৭দিন বাকি রয়ে গেছে। এবারের বিশ্বকাপ ইংল্যান্ড আর ওয়েলসে ৩০ মে থেকে...

স্টিফেন ফ্লেমিংকে সরিয়ে এই তারকা অস্ট্রেলিয়ানকে ফ্রেঞ্চাইজি করলে পরের মরশুমে কোচ

প্রক্তন অস্ট্রেলিয়ান আর মেলবোর্ন স্টার্সের প্রাক্তণ অধিনায়ক ডেভিড হাসি মেলবোর্ন স্টার্সের আগামি দুই বছরের জন্য প্রধান কোচ...

মাইকেল ভন বাছলেন বিশ্বকাপ ২০৯এর ড্রিম টিম, তিন ভারতীয়কে দিলেন জায়গা

মাইকেল ভন বাছলেন বিশ্বকাপ ২০৯এর ড্রিম টিম, তিন ভারতীয়কে দিলেন জায়গা
৩০ মে থেকে শুরু হতে চলা আইসিসি একদিনের বিশ্বকাপের আগে ইংল্যাণ্ড ক্রিকেট দলের প্রাক্তন অধিনায়ক মাইকেল ভন...

বিশ্বকাপ ২০১৯: বিশ্বকাপের এক ইনিংসে সবচেয়ে বেশি রান খরচা ভারতীয় বোলার

৩০ মে থেকে শুরু হতে চলা আইসিসি একদিনের বিশ্বকাপে বিরাট কোহলির নেতৃত্বে ভারতীয় ক্রিকেট দলকে জয়ের প্রবল...

৫জন ভারতীয় প্লেয়ার যাদের বিশ্বকাপের পর আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে অবসর নেওয়া নিশ্চিত

আগামি ৩০ মে থেকে শুরু হতে চলেছি আইসিসি একদিনের বিশ্বকাপ। এই বিশ্বকাপের জন্য ভারতীয় দলের ঘোষণা হয়ে...