ভারতের এই ক্রিকেটার অল্প বয়েসেই ভাঙলেন শচীন তেন্ডুলকরের ৩০ বছরের পুরোনো রেকর্ড 1

ভারতীয় মহিকা ক্রিকেটের তরুণী ওপেনিং ব্যাটসম্যান শেফালী বর্মা রবিবার ওয়েস্টইন্ডিজের বিরুদ্ধে টি-২০ সিরিজে হাফসেঞ্চুরি করে ইতিহাস গড়ে ফেলেছেন। ১৫ বছর ২৮৫ দিন বয়েসে শেফালি টিম ইন্ডিয়ার হয়ে প্রথম হাফসেঞ্চুরি করেন। এর সঙ্গেই তরুণী এই খেলোয়াড় শচীন তেন্ডুলকর আর রোহিত শর্মার রেকর্ড ভেঙে দিয়েছেন।

শেফালি বর্মা ভাঙলেন শচীনের রেকর্ড

ভারতের এই ক্রিকেটার অল্প বয়েসেই ভাঙলেন শচীন তেন্ডুলকরের ৩০ বছরের পুরোনো রেকর্ড 2

ভারতীয় মহিলা ক্রিকেট দল উচ্চতার দিকে অগ্রসর রয়েছে। বর্তমান সময় উমেন্স টিম ইন্ডিয়া ওয়েস্টইন্ডিজ সফরে রয়েছে। যেখানে টিম ইন্ডিয়া ওয়ানডে সিরিজে কব্জা করার পর এখন টি-২০ সিরিজ খেলছে। রবিবার খেলা হওয়া প্রথম টি-২০ ম্যাচে তরুণী ওপেনিং ব্যাটসম্যান শেফালি বর্মা ৪৯ বলে ৭৩ রানের দ্রুতগতির ইনিংস খেলেছেন। শেফালি এই ইনিংসের মাধ্যমে শচীন তেন্ডুলকরকে পেছনে ফেলে দিয়েছেন। আসলে ভারতের হয়ে সবচেয়ে কম বয়েসে হাফসেঞ্চুরি করার রেকর্ড এতদিন শচীন তেন্ডুলকরের নামে ছিল। শচীন নিজের প্রথম হাফসেঞ্চুরি টেস্ট ক্রিকেটে করেছিলেন যখন তিনি ১৬ বছর ২১৪ দিন বয়েসী ছিলেন।

টি-২০তে ভারতের হয়ে সবচেয়ে কম বয়েসে করলেন হাফসেঞ্চুরি

ভারতের এই ক্রিকেটার অল্প বয়েসেই ভাঙলেন শচীন তেন্ডুলকরের ৩০ বছরের পুরোনো রেকর্ড 3

টি-২০ ফর্ম্যাটের কথা যদি বলা হয় তো এখনো পর্যন্ত সবচেয়ে কম বয়েসে হাফসেঞ্চুরি করার রেকর্ড টিম ইন্ডিয়ার ওপেনিং ব্যাটসম্যান রোহিত শর্মা নামে ছিল। এই রেকর্ড রোহিত সেপ্টেম্বর ২০০৭ এ টি-২০তে হাফসেঞ্চুরি করে করেছিলেন। তখন রোহিতের বয়েস ২০ বছর বয়েসী ছিল। কিন্তু এখন শেফালি ওয়েস্টইন্ডিজের বিরুদ্ধে খেলা হওয়া প্রথম টি-২০ ম্যাচে হাফসেঞ্চুরি করে এই রেকর্ড নিজের নামে করে ফেলেছেন। বিশ্বস্তরে হাফসেঞ্চুরি করা সবচেয়ে তরুণ খেলোয়াড় হলেন ইউএই-র ইগোডো। তিনি মাত্র ১৫ বছর ২৬৭ দিন বয়েসে এই রেকর্ড নিজের নামে করেছিলেন।

শেফালির বিস্ফোরক ইনিংস জেতালো ম্যাচ

ভারতের এই ক্রিকেটার অল্প বয়েসেই ভাঙলেন শচীন তেন্ডুলকরের ৩০ বছরের পুরোনো রেকর্ড 4

ওয়েস্টইন্ডিজের বিরুদ্ধে ওয়ানডে সিরিজ টিম ইন্ডিয়া নিজের নামে করে ফেলেছিল। এখন ৫টি টি-২০ ম্যাচের সিরিজে রবিবার খেলা হওয়া প্রথম ম্যাচে টি-২০ জয় হাসিল করে ফেলেছে। শেফালি বর্মা ৭৩, স্মৃতি মান্ধানা ৬৭ রানের ইনিংসের সাহায্য টিম ইন্ডিয়া প্রথমে ব্যাটিং করে ৪ উইকেট হারিয়ে ১৮৫ রান করে। জবাবে ওয়েস্টইন্ডিজ ভারতের আঁটোসাটো বোলিংয়ের সামনে আত্মসমর্পণ করে। লাগাতার উইকেট হারিয়ে তাদের দল ২০ ওভারের খেলায় ৯ উইকেট হারিয়ে ১০১ রানই করতে পারে। পরিণাম স্বরূপ টিম ইন্ডিয়া এই ম্যাচ ৮৪ রানে জিতে নেয়। ৭৩ রানের দ্রুতগতির ইনিংস খেলার জন্য শেফালি ম্যান অফ দ্যা ম্যাচ হন।

suvendu debnath

কবি, সাংবাদিক এবং গদ্যকার। শচীন তেন্ডুলকর, ব্রায়ান লারার অন্ধ ভক্ত। ক্রিকেটের...

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *