ভারতীয় দল অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে শেষ টি-২০তে দুর্দান্ত জয় হাসিল করে সিরিজে সমতা ফেরায়। ভারত যখন অস্ট্রেলিয়ার দ্বারা দেওয়া ১৬৪ রানের লক্ষ্য তাড়া করছিল তো হঠাৎ করেই এমন মতে হতে থাকে যে দল হেরে যাবে। এর কারণ দলের মিডিল অর্ডার ব্যাটসম্যানদের না চলা। ভারতের ওপেনিং জুটি দুর্দান্ত প্রদর্শন করে দারুণ শুরুয়াত দেয় দলকে।কিন্তু তাদের আউট হওয়ার পর কেএল রাহুল এবং ঋষভ পন্থও নিজেদের উইকেট ছুঁড়ে দিয়ে আসেন।

কেএল রাহুল শেষমেশ কেনো দলে?

একবার আগে এই খেলোয়াড় গত শেষ ৬টি টি-২০তে প্রদর্শন দেখেনিন। ১৩,১৭,২৬,১৬,১৯,১৪। তা সত্বেও এই খেলোয়াড় লাগাতার দলে সুযোগ পেয়ে চলেছেন।এমনই গড়পড়তা প্রদর্শন রয়েছে ওয়ানডে ক্রিকেটেও।তিনি শেষ ৫টি ওয়ানডে ম্যাচে ৬০,০,৯,৭,১৭ স্কোর করেছেন।তা সত্বেও এই খেলোয়াড় কেনো লাগাতার সুযোগ পেয়ে চলেছেন তা সকলের বোঝার বাইরে।

দলে জায়গা নেই তো জবরদস্তি জায়গা বানানোর মানে কি?

কেএল রাহুল ওপেনিং ব্যাটসম্যান। তাকে আপনি তিন নম্বরেও খেলাতে পারেন। কিন্তু এই জায়গায় আগে থেকেই শিখর, রোহিত আর বিরাট দুর্দান্ত প্রদর্শন করে চলেছেন। এরপরও আপনি একজন ওপেনিং ব্যাটসম্যানকে জবরদস্তি চার নম্বর খেলোয়াড় হিসেবে খেলাচ্ছেন।চার নম্বরে দলের কাছে আগে থেকেই বিকল্প হিসেবে আম্বাতি রায়ুডু আর শ্রেয়স আইয়ার মজুত রয়েছেন তো এই খেলোয়াড়কে কেনো এত সুযোগ দেওয়া হচ্ছে।

কেএল রাহুলের গড় এবং প্রদর্শন লাগাতার নীচের দিকে যাচ্ছে

কেএল রাহুল যখন ইংল্যান্ড সফরে গিয়েছিলেন তখন তার টি-২০ গড় ৫০ এর আশেপাশে ছিল। কিন্তু এই খেলোয়াড়ের লাগাতার পড়তি প্রদর্শনের কারণে এখন তার গড় ৪৫ এরও নীচে এসে গিয়েছে। তার গড় ৪৩.৪৪ এর হয়ে গিয়েছে। এই পরিসংখ্যান খারাপ নয় কিন্তু তার বর্তমান প্রদর্শনকে দেখে এই খেলোয়াড়ের দলে থাকাই প্রশ্নের মুখে পড়ে গিয়েছে।

টেস্ট, ওয়ানডে, আর টি-২০তে রাহুলের রেকর্ড

এই খেলোয়াড় ভারতের হয়ে ৩১টি টেস্টের ৫১টি ইনিংসে ১৮৪৮ রান করেছেন। যেখানে তার গড় ৩৭.৭১। অন্যদিকে যদি টি-২০ কথা ধরা হয় তো এখনো পর্যন্ত ২৫টি টি-২০তে রাহুল ৭৮২ রান করেছেন,যেখানে তার গড় ৪৩.৪৪। এছাড়াও ওয়ানডেতে এই খেলোয়াড় ভারতের হয়ে ১৩টি ওয়ানডে ম্যাচ খেলেছেন যেখানে তিনি ৩৫.২২ গড়ে ৩১৭ রান করেছেন।

টি-২০তে এই খেলোয়াড়ের জায়গায় শ্রেয়স আইয়ার আর আম্বাতি রায়ডুর পাওয়া উচিত সুযোগ

ভারতীয় দলের চার নম্বর জায়গার জন্য আম্বাত রায়ডু আর শ্রেয়স আইয়ারের চেয়ে ভালো বিকল্প আর কেউ দলের জন্য হতে পারেন না। এই দুজনে ঘরোয়া ক্রিকেট আর আইপিএলেও দুর্দান্ত প্রদর্শন করেছেন। রায়ডু ওয়ানডেতে পাওয়া সুযোগের সদ্বব্যবহার করেছেন।এই দুজন ছাড়াও দলের কাছে কেদার জাদবও একজন বিকল্প হিসেবে রয়েছেন। যদি দলে জায়গাই না থাকে তো জবরদস্তি কোনও খেলোয়াড়ের জন্য আপনি জায়গায় বানাতে পারেন না।

SHARE
সাংবাদিক, আদ্যন্ত ক্রীড়াপ্রেমী। ব্রায়ান লারা সচিনের ভক্ত। ক্রিকেটের বাইরে ব্রাজিলের সমর্থক এবং নেইমার ও মেসির অন্ধ ভক্ত।

আরও পড়ুন

বিশ্বকাপের আগে ইংল্যান্ডের বড়ো ধাক্কা, আহত হলেন এই গুরুত্বপূর্ণ প্লেয়ার

বিশ্বকাপের আগে ইংল্যান্ডের বড়ো ধাক্কা, আহত হলেন এই গুরুত্বপূর্ণ প্লেয়ার
ইংল্যান্ড আর ওয়েলসে ৩০ মে থেকে আইসিসি একদিনের বিশ্বকাপ শুরু হতে চলেছে।৩০ মে বিশ্বকাপের সবার প্রথম ম্যাচ...

২০১৯ এর বিশ্বকাপের “সেরা নবাগত একাদশ ” , তালিকায় আছে একাধিক ভারতীয় ক্রিকেটার

আগামী ৩০ শে মে থেকে ইংল্যান্ড এবং ওয়েলস জুড়ে শুরু হতে চলেছে বিশ্বকাপ ক্রিকেট।দশ দেশের সেরার সেরা...

সাংসদ হওয়া পর গম্ভীর পাকিস্তানের বিরুদ্ধে বিশ্বকাপে খেলা নিয়ে করলেন এই মন্তব্য

সাংসদ হওয়া পর গম্ভীর পাকিস্তানের বিরুদ্ধে বিশ্বকাপে খেলা নিয়ে করলেন এই মন্তব্য
ভারতীয় দলের বিশ্বকাপে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে খেলার উপর লাগাতার সওয়াল জবাব চলছে। বেশ কিছু খেলোয়াড় আর বিশেষজ্ঞ বিশ্বকাপে...

দ্বিতীয় প্র্যাকটিস ম্যাচে ছন্দে ফিরতে দলে বড়োসড়ো পরিবর্তন কোহলির

দ্বিতীয় প্র্যাকটিস ম্যাচে ছন্দে ফিরতে দলে বড়োসড়ো পরিবর্তন কোহলির
বিশ্বকাপের ঢাকে কাঠি পড়ে গেছে। ইতিমধ্যেই বিশ্বকাপে অংশ নেওয়া ১০টি দলই ইংল্যাণ্ডে পৌঁছে গিয়েছে এবং প্রস্তুতিতে নেমে...

দীনেশ কার্তিকের হল ভুল, রোহিত শর্মা সোশ্যাল মিডিয়ায় সকলের সামনে করলেন ট্রোল

দীনেশ কার্তিকের হল ভুল, রোহিত শর্মা সোশ্যাল মিডিয়ায় সকলের সামনে করলেন ট্রোল
ভারতীয় ক্রিকেট দল বিশ্বকাপে অংশ নেওয়ার জন্য ইংল্যাণ্ডে পৌঁছে গিয়েছে। ২২মে সকালে দল ইংল্যান্ডে রওনা হয়ে গিয়েছে।...