বিরাট কোহলি আর শিখর ধবনের মধ্যে মতভেদের খবর বাইরে আসার পর একএসকে প্রসাদ জানালেন কেনও দেওয়া হয়েছে তাকে বাদ

ভারতীয় ওপেনিং ব্যাটসম্যান মুরলী বিজয়কে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে টেস্ট সিরিজে খারাপ প্রদর্শনের কারণে দল থেকে বাদ দেওয়া হয়েছে। এর পর ওয়েস্টইন্ডিজের বিরুদ্ধে চলতি দুই টেস্ট সিরিজেও তাকে সুযোগ দেওয়া হয়নি। যা নিয়ে মুরলী বিজয়ের বক্তব্য ছিল যে নির্বাচক সমিতির তরফ থেকে তাকে বাদ দেওয়ার কোনও কারণ জানানো হয়নি। কিন্তু নির্বাচক প্রধান এমএসকে প্রসাদ বিজয়ের এই সংবাদহীনতা বয়ানে অবাক হয়েছেন।

এই কথা বললেন এমএসকে প্রসাদ
বিরাট কোহলি আর শিখর ধবনের মধ্যে মতভেদের খবর বাইরে আসার পর একএসকে প্রসাদ জানালেন কেনও দেওয়া হয়েছে তাকে বাদ 1
মুরলী বিজয়ের বয়ানে মুখ্য নির্বাচক এমএসকে প্রসাদ বলেন,

“ এই সমস্ত আধারহীন রিপোর্ট। যতদূর মুরলী বিজয়কে বাদ দেওয়ার ব্যাপার সেটা ভিত্তিহীন কথা, আমিও অবাক যে ও এমন কেনও বলল। আমার সঙ্গী নির্বাচক দেবাং গান্ধী ওকে সূচনা দিয়েছিল যে কেনও ওকে দল থেকে বাদ দেওয়া হচ্ছে”।

অন্যদিকে শিখর ধবনকে বাদ দেওয়ার ব্যাপারে তিনি বলেন,

“ শিখর সীমিত ওভারের ক্রিকেটে ভালো প্রদর্শন করছে কিন্তু দীর্ঘ ফর্ম্যাটে ও সেটা পুনরাবৃত্তি করতে পারে নি। আমরা ভারত এ আর ঘরোয়া ক্রিকেটে অনেক রান করা পৃথ্বী শ আর ময়ঙ্ক আগরওয়ালকে সুযোগ দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়ার আগে ওকে পর্যাপ্ত সুযোগ দিয়েছি”।

প্রসঙ্গত বিজয় সংবাদহীনতার কথা বলতে গিয়ে জানিয়েছিলেন,

“আমার নির্বাচক প্রধান বা অন্য ব্যক্তির সঙ্গে ইংল্যান্ডে বাদ দেওয়ার পর কোনও কথাবার্তা হয়নি। কেউ আমাকে কিছুই বলে নি”।

বিরাট কোহলি আর শিখর ধবনের মধ্যে মতভেদের খবর বাইরে আসার পর একএসকে প্রসাদ জানালেন কেনও দেওয়া হয়েছে তাকে বাদ 2

করুণ নায়ারকে বাদ দেওয়ার পর নির্বাচক সমিতি আগে থেকেই সমালোচকদের নিশানায় রয়েছে। নায়ারকে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে পাঁচ টেস্ট ম্যাচের সিরিজের জন্য দলে শামিল করা হয়েছিল। কিন্তু তাকে একটিও ম্যাচে সুযোগ দেওয়া হয়নি। এরপর তাকে ওয়েস্টইন্ডিজের বিরুদ্ধে টেস্ট সিরিজে বাদ দেওয়া হয়। যা নিয়ে নায়ারও নির্বাচক সমিতির উপরেও সংবাদহীনতার অভিযোগ তুলেছিলেন।

Leave a comment

Your email address will not be published.