ক্রিকেটে প্রত্যাবর্তনের পর এস শ্রীসন্থ বললেন এটা আমার প্রথম আর শেষ লক্ষ্য 1

৭ বছরের দীর্ঘ ব্যবধানের পর আরও একবার শ্রীসন্থকে ভারতীয় ক্রিকেট সমর্থকরা মাঠে ক্রিকেট খেলতে দেখবেন। আসলে মুস্তাক আলি ট্রফির মাধ্যমে শ্রীসন্থ প্রথম শ্রেণীর ক্রিকেটে প্রত্যাবর্তনের জন্য সম্পূর্ণ প্রস্তুতি নিয়ে ফেলেছেন। ১০ জানুয়ারি থেকে শুরু হতে চলা সৈয়দ মুস্তাক আলি ট্রফির জন্য শ্রীসন্থের নাম কেরলের সম্ভাব্য তালিকায় রাখা হয়েছে।

কেরলের সম্ভাব্য তালিকায় শামিল শ্রীসন্থের নাম

ক্রিকেটে প্রত্যাবর্তনের পর এস শ্রীসন্থ বললেন এটা আমার প্রথম আর শেষ লক্ষ্য 2

আওলে এই টি-২০ টুর্নামেন্তের জন্য শ্রীসন্থকে কেরলের কন্ডিংশনিং ক্যাম্পে অংশ নিতে হবে। এখানে শ্রীসন্থ সঞ্জু স্যামসনের মতো বাকি খেলোয়াড়দের সঙ্গে প্র্যাকটিস করবেন। কারণ রাজ্যের দল এই টুর্নামেন্টের জন্য ভালোভাবে প্রস্তুতি নিতে চায়। শ্রীসন্থেরও এই টুর্নামেন্টের মাধ্যমে ক্রিকেটে ফিরে আসার জন্য দীর্ঘদিন ধরে অপেক্ষা রয়েছে। এই টুর্নামেন্ট শেষ হওয়ার পর শ্রীসন্থ নিজের ভবিষ্যতের পরিকল্পনার ব্যাপারে খোলসা করেছিলেন। সৈয়দ মুস্তাক আলি ট্রফিতে খেলার পর আরও একবার তিনি ভারতীয় দলের হয়ে খেলার ইচ্ছে প্রকাশ করেছেন। আসলে ২০২৩ এ বিশ্বকাপ খেলা হবে এই অবস্থায় শ্রীসন্থের নজর এই টুর্নামেন্টের দিকে রয়েছে যা ভারতে অনুষ্ঠিত হবে।

৩৭ বছর বয়সে ক্রিকেটে প্রত্যাবর্তন করা মুশকিল

ক্রিকেটে প্রত্যাবর্তনের পর এস শ্রীসন্থ বললেন এটা আমার প্রথম আর শেষ লক্ষ্য 3

এর আগে শ্রীসন্তকে শেষবার ২০১১র আগষ্ট মাসে খেলতে দেখা গিয়েছিল। এছাড়াও ২০১৩র প্রথম শ্রেণীর ক্রিকেটেও তার নাম তালিকায় ছিল। ৩৭ বছর বয়সী শ্রীসন্থের জন্য ক্রিকেটে নিজের ছন্দ ফিরে পাওয়া সহজ হবে না। তবে তাকে মাঠে টিকে থাকার জন্য অবশ্যই ভালোভাবে প্রত্যাবর্তন করতে হবে। টাইমস অফ ইন্ডিয়ায় ছাপা শ্রীসন্থের বক্তব্য অনুযায়ী – এটা সত্যি যে এই বয়সে পৌঁছে যাওয়ার পর খেলার কোনো কৃতিত্ব হাসিল করা যায় না। তবে ৪২ বছর বয়সেও লিয়েন্ডার পেজের মতো খেলোয়াড় দুর্দান্ত গ্র্যাণ্ডস্ল্যাম জিতেছিলেন। এই তালিকায় রজার ফেডরারে নামও শামিল রয়েছে।

২০২৩ বিশ্বকাপে খেলার স্বপ্ন

ক্রিকেটে প্রত্যাবর্তনের পর এস শ্রীসন্থ বললেন এটা আমার প্রথম আর শেষ লক্ষ্য 4

নিজের ক্রিকেট কেরিয়ারের কথা বলতে গিয়ে ৩৭ বছর বয়সী শ্রীসন্থের বক্তব্য যে, “আমার শেষ স্বপ্ন হলো ২০২৩ বিশ্বকাপে ভারতীয় দলের তরফে খেলা, আর দ্বিতীয়বার ট্রফি জিততে আমার গুরুত্বপূর্ণ যোগদান দিয়ে ইতিহাস গড়ার”।

২০১১এ মহেন্দ্র সিং ধোনির নেতৃত্বে যখন টিম ইন্ডিয়া বিশ্বকাপ জিতেছিল, সেই সময় শ্রীসন্ত টিম ইন্ডিয়ার সদস্য ছিলেন। তবে ফিক্সিংয়ের মামলায় ফাঁসার পর শ্রীসন্থকে ৭ বছরের জন্য ব্যান করে দেওয়া হয়েছিল।

suvendu debnath

কবি, সাংবাদিক এবং গদ্যকার। শচীন তেন্ডুলকর, ব্রায়ান লারার অন্ধ ভক্ত। ক্রিকেটের...

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *