২১ বছরের এই খেলোয়াড়কে টিম ইন্ডিয়ার এক্স ফ্যাক্টর মনে করেন সৌরভ গাঙ্গুলী 1

ভারতীয় দলের উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান ঋষভ পন্থ লাগাতার সমালোচকদের নিশানা হয়ে রয়েছেন। গত কিছু সময় ধরে তার ব্যাট থেকে রান বেরচ্ছে না আর তার কিপিংয়ের উপর আগে থেকেই প্রশ্ন ছিল। এই কারণে লাগাতার তার সমালোচনা হচ্ছে। ওয়েস্টইন্ডিজ সফরের ৮টি ইনিংসে তার ব্যাট থেকে মাত্র একটিই হাফসেঞ্চুরি বেরিয়েছে।

গাঙ্গুলী বললেন এক্স ফ্যাক্টর
২১ বছরের এই খেলোয়াড়কে টিম ইন্ডিয়ার এক্স ফ্যাক্টর মনে করেন সৌরভ গাঙ্গুলী 2

ভারতীয় দলের প্রাক্তন অধিনায়ক আর দিল্লি ক্যাপিটালসের পরামর্শদাতা সৌরভ গাঙ্গুলী ঋষভ পন্থকে আরো একবার এক্স ফ্যাক্টর বলেছেন। দাদা ধারণা যে পন্থকে ব্যাটিং করার জন্য স্বাধীনভাবে ছেড়ে দেওয়ার প্রয়োজন। ক্রিকবাজকে তিনি বলেন,

“এক্স ফ্যাক্টরের কথা বলা হলে সেটা ঋষভ পন্থ যার দিকে দেখা যেতে পারে। যখনই ও আউট হয় দেশ উপর নীচে যায়। যদি ওকে ম্যাচ উইনার বানাতে হয় তো ফ্রি ছাড়তে হবে”।

চলছে না ব্যাট?

২১ বছরের এই খেলোয়াড়কে টিম ইন্ডিয়ার এক্স ফ্যাক্টর মনে করেন সৌরভ গাঙ্গুলী 3

ঋষভ পন্থ টেস্ট ক্রিকেটে ব্যাটে ভাল প্রদর্শন করেছেন কিন্তু ওয়ানডে আর টি-২০ আন্তর্জাতিকে তার ব্যাট শান্তই থেকেছে। এখনো পর্যন্ত খেলা ১২টি ওয়ানডেতে তার ব্যাট থেকে ২২.৯ গড়ে ২২৯ রান বেরিয়েছে। যার মধ্যে কোনো হাফসেঞ্চুরি নেই। সেই সঙ্গে পন্থ দেশের হয়ে ১৯টি টি-২০ ম্যাচ খেলেছেন আর এতে তার নামে ২০.৪০ গড়ে আর ১২৩.৮৯ স্ট্রাইকরেটে ৩০৬ রান নথিভুক্ত হয়েছে। তিনি বারবার দায়িত্বজ্ঞানহীন শট খেলে নিজের উইকেট ছুঁড়ে দেন।

ঋষভ পন্থের জায়গা নিয়ে বিপদ

২১ বছরের এই খেলোয়াড়কে টিম ইন্ডিয়ার এক্স ফ্যাক্টর মনে করেন সৌরভ গাঙ্গুলী 4

সৌরভ গাঙ্গুলী যতই ঋষভ পন্থকে এক্স ফ্যাক্টর বলুন কিন্তু বাস্তব এটাই যে দলে তার জায়গার উপর বিপদ ঘনাচ্ছে। ১৮টি টি-২০ ইনিংসে তিনি ১০বার দু অঙ্কের রানের আগেই আউট হয়ে গিয়েছেন। ওয়েস্টইন্ডিজে হওয়া দুটি ম্যাচে তিনি খেলার সুযোগ পেয়েছিলেন কিন্তু নির্বাচক প্রধানের কথায় পরিস্কার হয়ে গিয়েছে যে দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে টেস্ট সিরিজে ঋদ্ধিমান সাহাকে উইকেটের পেছনে দেখা যেতে পারে। স্পিনের বিরুদ্ধে ঘুর্ণি পিচে পন্থের কিপিং নিয়ে যথেষ্ট প্রশ্ন রয়েছে।

suvendu debnath

কবি, সাংবাদিক এবং গদ্যকার। শচীন তেন্ডুলকর, ব্রায়ান লারার অন্ধ ভক্ত। ক্রিকেটের...

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *