বিশ্বের একমাত্র ভারতীয় খেলোয়াড় যিনি একই দিনে করেছিলেন ২টি সেঞ্চুরি

ভারতীয় ঘরোয়া ক্রিকেটের সবচেয়ে বড় টুর্নামেন্ট রঞ্জি ট্রফিকে তো সকলেই জানেন, কিন্তু আপনারা কি জানেন যে এই রঞ্জি ট্রফির শুরু কার নামে হয়েছে। এটা সম্ভবত খুব কম লোকেই জানেন। ভারতের ঘরোয়া ক্রিকেটে খেলা হওয়া সবচেয়ে বড়ো টুর্নামেন্ট রঞ্জি ট্রফির জন্ম মহারাজা রঞ্জিত সিংহের নামে হয়েছিল।

আজকের দিনেই হয়েছিল ভারতীয় ক্রিকেটের পিতামহ মহারাজা রঞ্জিত সিংহের জন্ম

মহারাজা রঞ্জিত সিং কে ছিলেন? তিনি ছিলেন ভারতীয় ক্রিকেট ইতিহাসের সবার প্রথম আন্তর্জাতিক ক্রিকেটার যাকে ভারতীয় ক্রিকেটের পিতামহ বলা হয়। মহারাজা রঞ্জিত সিংকে আজ স্মরণ করার পেছনে কারণ হল তার জন্ম বার্ষিকি। আজকের দিনেই তার জন্ম হয়েছিল। গুজরাতের জামনগরে ১০ সেপ্টেম্বর ১৮৭২এ রঞ্জিত সিংহের জন্ম হয়েছিল, যার গতকাল ছিল ১৪৭তম জন্মদিন।

রঞ্জিত সিংয়ের লেগ গ্লান্স ছিল উদাহরণ

মহারাজা রঞ্জিত সিংহের জন্ম ভারতে হয়েছিল কিন্তু তিনি ইংরেজদের শাসনকালে ইংল্যান্ডের হয়ে আন্তির্জাতিক ক্রিকেটের শুরু করেছিলেন। ইংল্যান্ডের হয়ে খেলা রঞ্জিত সিং দারুণ ব্যাটসম্যান ছিলেন, যার স্পেশালিটি ছিল লেগ গ্লান্স। রঞ্জিত সিংকে লেগ গ্লান্সের জনক বলা হত। কারণ তিনি যখন খেলতেন সেই সময় ব্যাটসম্যান অফ সাইডেই শট মারতেন। কিন্তু রঞ্জিত এই ধারণাকে বদলে দেন আর লেগ সাইডে নিজের কব্জির জাদুতে প্রচুর রান করেন। ক্রিকেটের পিতামহ বলে পরিচিত ডব্লিউ জি গ্রেস তো রঞ্জিত সিংকে এমনও বলেছিলেন যে আগামী ১০০ বছরে তার মত ব্যাটসম্যান জন্মাবে না।

স্মরণীয় ছিল ডেবিউ

রঞ্জিত সিং নিজের ডেবিউ ১৮৯৬তে ইংল্যান্ডের হয়ে করেন। প্রথম টেস্ট ম্যাচ তিনি অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে ম্যানচেস্টারে খেলেন, যেখানে তার ডেবিউ ম্যাচ রেকর্ড ভেঙে দেওয়ার মত ছিল, যেখানে তিনি প্রথম ইনিংসে ৬২ আর দ্বিতীয় ইনিংসে ১৫৪ রানের ইনিংস খেলেন। এইভাবে তিনি প্রথম ম্যাচে নিজের ডেবিউতে হাফসেঞ্চুরির সঙ্গে সেঞ্চুরি করার রেকর্ড গড়েন। এরপর এই বছরই আগস্টে রঞ্জিত সিং হোওতে খেলা হওয়া একটি প্রথম শ্রেনীর ম্যাচের একই দিনে দুটি সেঞ্চুরি করার কৃতিত্ব দেখান। এই ম্যাচে তিনি ১০০ আর ১২৫ রানের ইনিংস একই দিনে খেলান যা সেই সময় এমনটা করা প্রথম ব্যাটসম্যান হন।

কাউন্টি ক্রিকেটের মুকুটহীন বাদশাহ ছিলেন রঞ্জিত সিং

ইংল্যান্ডে খেলা হওয়া কাউন্টি ক্রিকেটে রঞ্জিত সিংহের দারুণ কর্তৃত্ব ছিল। রঞ্জিত সিং কাউন্টি ক্রিকেটে ভীষণই খতরনাক ব্যাটসম্যান ছিলেন। তিনি ১০টি মরশুম পর্যন্ত ১০০০ এর বেশি রান করা ব্যাটসম্যান ছিলেন। শুধু তাই নয় ১৮৯৯ আর ১৯০০র দুটি মরশুমে তো তিনি ৩ হাজারের বেশি রান করেছিলেন। আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে রঞ্জিত সিং ইংল্যান্ডের হয়ে ১৫টি টেস্ট ম্যাচ খেলেন যেখানে তিনি ২টি সেঞ্চুরির সাহায্যে ৪৪.৯৫ গড়ে ৯৮৯ রান করেন। কিন্তু প্রথম শ্রেনীর ক্রিকেটে তার জাদু প্রচুর দেখতে পাওয়া যায় যেখানে তিনি মোট ৭২টি সেঞ্চুরি করেন আর আন্তর্জাতিক ক্রিকেট মিলিয়ে তিনি তার কেরিয়ারে ৭৪টি সেঞ্চুরি করেন।

১৯০৪ এ ভারতে ফেরার পর নিজের ভাইপো দলীপ সিংকে শেখান

ইংল্যান্ডের হয়ে মজারা রঞ্জিত সিং সফলতার পতাকা ওড়ান আর বেশ কিছু ঐতিহাসিক ইনিংস খেলেন, সেই সঙ্গে কাউন্টিতেও দারুণ প্রদর্শন করেন। এরপর তিনি ১৯০৪ এ নিজের স্বদেশ ভারতে ফিরে আসার সিদ্ধান্ত নেন। কাউন্টি ক্রিকেটে ৫ বছর পর্যন্ত সাসেক্সের অধিনায়ক থাকা রঞ্জিত সিং ভারতে ফেরেন আর তিনি নওয়ানগরে শাসন করার পাশপাশি নিজের ভাইপো দলীপ সিংকে ক্রিকেটের খুঁটিনাটি শেখান যিনি পরবর্তীকালে ইংল্যান্ডের হয়ে খেলে অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে লর্ডসের ঐতিহাসিক মাঠে সেঞ্চুরি করেছিলেন। আজ দলীপ সিংহের নামেই ভারতের ঘরোয়া ক্রিকেটে দলীপ ট্রফি খেলা হয়।

আরও পড়ুন

যুবরাজ সিংয়ের অবদানের কথা মাথায় ১২ নম্বর জার্সি কে ” অবসর ” দেওয়া হোক, বিসিসিআই কে এমন পরামর্শ দিলেন গৌতম গম্ভীর

সম্প্রতি একটি প্রতিবেদনে বিসিসিআই কে " ১২ " নম্বর জার্সিকে অবসরে পাঠানোর আবেদন করলেন প্রাক্তন ভারত ক্রিকেটার...

দীপাবলির আগে ভারতীয় খেলোয়াড়দের বিসিসিআই দিল বাম্পার গিফট, এখন হবে টাকার বৃষ্টি

বিশ্ব ক্রিকেটের সবচেয়ে ধোনি ক্রিকেট বোর্ড বিসিসিআই সবসময়ই তাদের ব্যানারের তলায় অর্থাৎ ভারতীয় ক্রিকেট দলের হয়ে খেলা...

হার্দিক পাণ্ডিয়া আর উর্বশী রাউতেলার মধ্যে এখনো চলছে কিছু? ছবির কমেন্ট বলছে এই কথা

হার্দিক পাণ্ডিয়া আর উর্বশী রাউতেলার মধ্যে এখনো চলছে কিছু? ছবির কমেন্ট বলছে এই কথা
ভারতীয় ক্রিকেট দলের তারকা অলরাউন্ডার হার্দিক পাণ্ডিয়া আজ দলের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ খেলোয়াড় হিসেবে নিজের পরিচিতি তৈরি করে...

বিশ্বকাপ ২০১৯ সেমিফাইনালে ভারতের হারের দায় একে মানেন COA প্রধান বিনোদ রায়

বিশ্বকাপ ২০১৯ সেমিফাইনালে ভারতের হারের দায় একে মানেন COA প্রধান বিনোদ রায়
ইংল্যান্ড আর ওয়েলস ক্রিকেট বোর্ডের আতিথেয়তায় সম্প্রতিই শেষ হওয়া আইসিসি ক্রিকেট বিশ্বকাপ ২০১৯এ বিরাট কোহলির অধিনায়কত্বে ভারতীয়...

ভারতকে ২০১১ বিশ্বকাপ জয়ী করা গৌতম গম্ভীর করলেন শচীন আর যুবরাজকে চ্যালেঞ্জ

ভারতকে ২০১১ বিশ্বকাপ জয়ী করা গৌতম গম্ভীর করলেন শচীন আর যুবরাজকে চ্যালেঞ্জ
যে কোনো খেলায় খেলোয়াড়দের জন্য সফলতার সবচেয়ে বড়ো রহস্য তাদের ফিটনেস হয়। ফিটনেস খেলার এমন একটা ভাগ...