স্টিভ বাকনার বললেন আমি নিজের সিডনি টেস্টের ভুল স্বীকার করছি, এখন ইরফান দিলেন এই জবাব

সম্প্রতিই স্টিভ বাকনার একটি বয়ান দিয়েছিলেন, যেখানে তিনি বলেছিলেন যে তিনি ২০০৮এ খেলা হওয়া সিডনি টেস্টে ২টি বড়ো ভুল করেছিলেন। যদিও সত্যিটা অন্যরকম আর তিনি ওই টেস্ট ম্যাচ চলাকালীন ৭টি ভুল করেছিলেন। তার ভুলের কারণে ভারতীয় দলকে ওই ম্যাচ ১২২ রানে হারতে হয়েছিল।

সাইমন্ডকে নটআউট আর দ্রাবিড়কে আউট দেওয়া বলেছিলেন তার ভুল

স্টিভ বাকনার বললেন আমি নিজের সিডনি টেস্টের ভুল স্বীকার করছি, এখন ইরফান দিলেন এই জবাব 1

স্টিভ বাকনার সিডনি টেস্টকে স্মরণ করে নিজের বয়ানে নিজের ভুল স্বীকার করে বলেছিলেন যে, “সিডনি টেস্টে আমার প্রথম ভিল এটাই ছিল যে যখন ভারত ভালো প্রদর্শন করছিল সেই সময় আমি একজন অস্ট্রেলিয়ান ব্যাটসম্যানকে সেঞ্চুরি করতে দিয়েছি। তথা আমার দ্বিতীয় ভুল ম্যাচের পঞ্চমদিন হয়েছিল, যখন আমি রাহুল দ্রাবিড়কে ভুল আউট দিয়েছিলাম। এই কারণে ভারতীয় দলকে হারের মুখেও পড়তে হয়েছিল। আমি কি প্রথম অ্যাম্পায়ার ছিলাম, যিনি একটি টেস্টে দুটি ভুল করেছে? আজও সেই ভুল আমাকে ভয় পাওয়ায়। আপনাদের জানার প্রয়োজন যে এমন ভুল কেনো হয়েছিল? আপনি এই ধরণের ভুল দ্বিতীয়বার করতে চাইবেন না। আমি বাহানা বানাচ্ছি না, কিন্তু কখনো এমনটা হয় যে হাওয়া পিচের দিকে থেকে যায় আর সাউন্ড হাওয়ার সঙ্গেই চলে যায়। কমেন্টেটররা স্ট্যাম্প মাইকে আওয়াজ শুনতে অন্যদিকে অ্যাম্পায়ারদে বিশ্বাস হয় না। দর্শকরা তো এই কথা জানেন না”।

ইরফান পাঠান দিয়েছেন জবাব

স্টিভ বাকনার বললেন আমি নিজের সিডনি টেস্টের ভুল স্বীকার করছি, এখন ইরফান দিলেন এই জবাব 2

ইরফান পাঠান স্টিভ বাকনারকে এক হাতে নিয়েছেন আর তাকে জমিয়ে তিরস্কার করেছেন। ইরফান পাঠান বলেছেন, “অ্যাম্পায়ারের ভুলের কারণে ম্যাচ হারায় নিশ্চিতভাবেই আমরা নিরাশ ছিলাম। যদিও এটা স্রেফ নিরাশা ছিল না। প্রথমবার আমি দেখছিলাম যে ভারতীয় ক্রিকেটাররা ক্ষুব্ধ ছিলেন। সমর্থকদের মনে কেবল একটিই কথা ছিল যে অ্যাম্পায়ারের কারণে আমরা হেরেছিলাম। স্বাভাবিক, একজন ক্রিকেটার হিসেবে আমরা এমনটা ভাবতে পারিনা”।

সাতটি ভুল? আপনি কি আমার সঙ্গে মজা করছেন?

স্টিভ বাকনার বললেন আমি নিজের সিডনি টেস্টের ভুল স্বীকার করছি, এখন ইরফান দিলেন এই জবাব 3

ইরফান পাঠান এই কথায় আরও বলতে গিয়ে বলেছেন যে, “আমরা ভাবতে চাই, ঠিক আছে এই বিষয়গুলো হতে থাকে, আর আমরা এগিয়ে যেতে চাই, কিন্তু সাতটি ভুল? আপনি কী আমার সঙ্গে মজা করছেন? এটা আমাদের অবিশ্বসনীয় আর বদহজমের ছিল। এখন কোনো প্রভাব পড়ে না যে আপনি নিজের ভুল কতটা স্বীকার করেন। আমরা ওই টেস্ট ম্যাচ হেরে গিয়েছিল। আমরা অ্যাম্পায়ারিঙের ত্রুটির কারণে স্রেফ টেস্ট ম্যাচ হেরে গিয়েছি? এখন কোনো প্রভাব পড়বে না, তা সে অ্যাম্পায়ার যাই বলুন”।

suvendu debnath

কবি, সাংবাদিক এবং গদ্যকার। শচীন তেন্ডুলকর, ব্রায়ান লারার অন্ধ ভক্ত। ক্রিকেটের...

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *