মুম্বাইয়ের বিরুদ্ধে জয় রায়ডু, দু’প্লেসিকে নয়, বীরেন্দ্র সেহবাগ এই প্লেয়ারকে দিলেন কৃতিত্ব

আইপিএল ২০২০-র ওপেনিং ম্যাচ এন্নাই সুপার কিংস এবং মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের মধ্যে খেলা হয়েছে। এই ম্যাচ চেন্নাইয়ের খেলোয়াড়রা দুর্দান্ত প্রদর্শন করে ৫ উইকেটে জিতে নিয়েছেন। এই ম্যাচে আম্বাতি রায়ডু ৭১ রানের ঝোড়ো ইনিংস খেলেন, যার জন্য তাঁকে ম্যাচ অফ দ্যা ম্যাচ পুরস্কার দেওয়া হয়।

মুম্বাইকে ৫ উইকেটে হারায় চেন্নাই

মুম্বাইয়ের বিরুদ্ধে জয় রায়ডু, দু’প্লেসিকে নয়, বীরেন্দ্র সেহবাগ এই প্লেয়ারকে দিলেন কৃতিত্ব 1

এই ম্যাচে টসে জিতে চেন্নাই সুপার কিংস টসে জিতে মুম্বাইকে প্রথমে ব্যাট করতে আমন্ত্রণ জানায়। প্রথমে ব্যাট করতে নেমে সৌরভ তেওয়ারি ঝোড়ো ৪০ রানের সুবাদে মুম্বাই নির্ধারিত ২০ ওভারে ৯ উইকেট হারিয়ে ১৬২ রান করে। সিএসকের হয়ে লুঙ্গি এনগিড তিন উইকেট নেন, অন্যদিকে দীপক চাহার এবং রবীন্দ্র জাদেজা দুটি করে উইকেট নেন।
জবাবে ব্যাট করতে নেমে চার বল বাকি থাকতেই এই লক্ষ্য হাসিল করে নেয় চেন্নাই। তিনবারের চ্যাম্পিয়ন সিএসকের শুরুটা খারাপ হয় এবং তাদের দুই ওপেনার শেন ওয়াটসন এবং মুরলী বিজয় ৬ রানের মধ্যে ফিরে যান। তবে এরপর আম্বাতি রায়ডু (৭১) এবং ফাফ দু’প্লেসি (৫৮*)- এর দুর্দান্ত হাফসেঞ্চুরির সুবাদে সিএসকে তাদের প্রথম ম্যাচ সহজেই জিতে নেয়।

দুই দলের মধ্যে পার্থক্য গড়ে দেন ক্যুরেন

মুম্বাইয়ের বিরুদ্ধে জয় রায়ডু, দু’প্লেসিকে নয়, বীরেন্দ্র সেহবাগ এই প্লেয়ারকে দিলেন কৃতিত্ব 2

ম্যাচ শেষে ভারতের প্রাক্তন ওপেনিং ব্যাটসম্যান এই ম্যাচ নিয়ে টুইটারে নিজের প্রতিক্রিয়া দিয়েছেন। তিনি আইপিএলের দুর্দান্ত শুরু নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেন। তবে চেন্নাইয়ের জয়ে রায়ডু এবং দু’প্লেসি নয়, তিনি মনে করেছেন এই ম্যাচে স্যাম ক্যুরেন দুই দলের মধ্যে পার্থক্য গড়ে দিয়েছেন। এই ম্যাচে শেষ দিকে স্যাম ক্যুরেন একটি ঝোড়ো ইনিংস খেলে এই ম্যাচ সিএসকের দিকে নিয়ে আসেন। এই ম্যাচে সিএসকের হয়ে ডেবিউ করা ক্যুরেনকে ব্যাটিং লাইনআপে প্রমোট করে ছয় নম্বরে পাঠানো হয়। তিনি মাত্র ৬ বলে দুটি ছক্কা এবং একটি বাউন্ডারির সাহায্যে ১৮ রান করেছেন।

ইডলি আবারও হারালো বড়া পাওকে

মুম্বাইয়ের বিরুদ্ধে জয় রায়ডু, দু’প্লেসিকে নয়, বীরেন্দ্র সেহবাগ এই প্লেয়ারকে দিলেন কৃতিত্ব 3

এই ম্যাচে যখন ক্যুরেন ১৯ ওভারে ব্যাট করতে নামেন সেই সময় জয়ের জন্য ১৭ বলে ২৯ রানের প্রয়োজন ছিল। সিএসকের হয়ে এই ম্যাচে প্রথমবার অভিষেক করা ক্যুরেন অধিনায়কের ভরসা রেখেছেন। এছাড়াও মুম্বাইয়ের ইনিংসের শেষ দিকে এই অলরাউন্ডার ক্যুইন্টন ডি’ককের গুরুত্বপূর্ণ উইকেটও নেন। ম্যাচ শেষে সেহবাগ তার সোশ্যাল মিডিয়া অ্যাকাউন্টে লেখেন, “আইপিএলের দুর্দান্ত শুরু। মনে হচ্ছে এই টুর্নামেন্ট বিস্ফোরক হতে চলেছে। রায়ডু এবং দু’প্লেসি দুর্দান্ত ছিলেন, কিন্তু শেষ দিকে স্যাম ক্যুরেনের ক্যামিও ইনিংস পার্থক্য গড়ে দেয়। ইডলি আবারও বড়া পাওকে হারিয়ে দিল”।

suvendu debnath

কবি, সাংবাদিক এবং গদ্যকার। শচীন তেন্ডুলকর, ব্রায়ান লারার অন্ধ ভক্ত। ক্রিকেটের...

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *