টেনিস থেকে অবসর নিয়ে ৪০ বছর বয়েসে ভারতীয় দলের হয়ে এই প্লেয়ার খেলেন আন্তর্জাতিক ক্রিকেট, প্রথম ম্যাচেই করেছিলেন হাফ সেঞ্চুরি

আজকের আমাদের এই বিশেষ প্রতিবেদনে আমরা আপনাদের জানাব সেই ক্রিকেটারের ব্যাপারে যিনি নিজের যৌবনে খেলেছিলেন টেনিস, কিন্তু নিজের ৪০ বছর বয়েসে ভারত হয়ে খেলেছিলেন আন্তর্কাতিক ক্রিকেট।

কোটর রামাস্বামী ৪০ বছর বয়েসে করেছিলেন অভিষেক
টেনিস থেকে অবসর নিয়ে ৪০ বছর বয়েসে ভারতীয় দলের হয়ে এই প্লেয়ার খেলেন আন্তর্জাতিক ক্রিকেট, প্রথম ম্যাচেই করেছিলেন হাফ সেঞ্চুরি 1
আমরা যে প্লেয়ারের কথা বলছি তার নাম কোটর রামাস্বামী। আপনাদের জানিয়ে রাখি রামাস্বামীর জন্ম হয়েছিল ১৪ জুন ১৮৯৬ চেন্নাইতে। সেই সময় চেন্নাইয়ের নাম ছিল মাদ্রাজ। টেনিস প্লেয়ার হিসেবে নিজের কেরিয়ার শুরু করেছিলেন রামাস্বামী। কিন্তু যখন তার বয়েস ৪০ বছর তখন তিনি ভারতীয় দলের হয়ে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট খেলা শুরু করেন।

শক্ত সমর্থ শরীরের জন্য নির্বাচিত হয়েছিলেন ভারতীয় দলে
টেনিস থেকে অবসর নিয়ে ৪০ বছর বয়েসে ভারতীয় দলের হয়ে এই প্লেয়ার খেলেন আন্তর্জাতিক ক্রিকেট, প্রথম ম্যাচেই করেছিলেন হাফ সেঞ্চুরি 2
একজন টেনিস প্লেয়ারের ভারতীয় ক্রিকেট দলে কিভাবে জায়গা হল সে ব্যাপার নিজের আত্মজীবনী, “র্যা ম্বিলিংস অফ গেমস অ্যাডিক্ট”এ খোলসা করেছেন স্বয়ং রামাস্বামী। আত্মজীবনীতে তিনি লিখেছেন ভারতীয় দলে তার নির্বাচন ক্রিকেটের কারণে নয় বরং তার শক্তসমর্থ শারীরিক কারণেই হয়েছিল।

ভারতের হয়ে খেলেছেন ডেভিস কাপ
টেনিস থেকে অবসর নিয়ে ৪০ বছর বয়েসে ভারতীয় দলের হয়ে এই প্লেয়ার খেলেন আন্তর্জাতিক ক্রিকেট, প্রথম ম্যাচেই করেছিলেন হাফ সেঞ্চুরি 3
প্রসঙ্গত জানিয়ে রাখা ভাল যে রামাস্বামী ১৯২২এ ভারতের হয়ে ডেভিস কাপ খেলেছিলেন। তাকে টেনিসের একজন দিকপাল খেলোয়াড় মানা হত। ইসপিএনের একটি রিপোর্ট অনুযায়ী তিনি টেনিসে ডবলসে খেলতেন।

প্রথম টেস্টেই করেছিলেন ৬০ রানের হাফ সেঞ্চুরি
টেনিস থেকে অবসর নিয়ে ৪০ বছর বয়েসে ভারতীয় দলের হয়ে এই প্লেয়ার খেলেন আন্তর্জাতিক ক্রিকেট, প্রথম ম্যাচেই করেছিলেন হাফ সেঞ্চুরি 4
ভারতের হয়ে ক্রিকেটে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে ১৯৩৬ সালে অভিষেক ঘটান কোটর রামাস্বামী। ভারতের হয়ে তিনি দুটি টেস্ট ম্যাচ খেলেন, যাতে তিনি ৫৬.৬৬র দুর্দান্ত গড়ে ১৭০ রান করেন। তিনি নিজের প্রথম টেস্টেই ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে দুর্দান্ত ৬০ রানের ইনিংস খেলেন। যদিও দুটি টেস্টের পর তাকে আর কখনও ভারতীয় দলে জায়গা দেওয়া হয় নি। তিনি তার নিজের দুটি টেস্ট ম্যাচই ইংল্যান্ডে খেলেছিলেন। তার প্রথম টেস্ট তিনি খেলেছিলেন ম্যানচেস্টারে এবং দ্বিতীয় তথা শেষ টেস্ট ম্যাচ খেলেন ওভালে।

suvendu debnath

কবি, সাংবাদিক এবং গদ্যকার। শচীন তেন্ডুলকর, ব্রায়ান লারার অন্ধ ভক্ত। ক্রিকেটের...

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *