জয়ের পর শ্রেয়স আইয়ার নিজেকে নয় বরং এই খেলোয়াড়দের দিলেন জয়ের শ্রেয়

দিল্লি ক্যাপিটালসের জন্য এই আইপিএল মরশুম এখনো পর্যন্ত দুর্দান্ত গিয়েছে। দিল্লির দল এখনো পর্যন্ত এই মরশুমে ১০টি ম্যাচ খেলেছে, যার মধ্যে তারা ৬টি ম্যাচ জয় হাসিল করেছে। দিল্লি ক্যাপিটালসের দলাজ নিজেদের ঘরের মাঠে কিংস ইলেভেন পাঞ্জাবকে আইপিএলের ৩৭তম লীগ ম্যাচে ৫ উইকেটে হারিয়ে দিয়েছে। এই ম্যাচে দিল্লির অধিনায়ক শ্রেয়শ আইয়ার দুর্দান্ত ব্যাটিং করেছেন।

আইয়ার ধবন এনে দিলেন দিল্লিকে জয়

জয়ের পর শ্রেয়স আইয়ার নিজেকে নয় বরং এই খেলোয়াড়দের দিলেন জয়ের শ্রেয় 1

আইপিএলের ৩৭তম লীগ ম্যাচে দিল্লির দল টসে জিতে প্রথমে বল করার সিদ্ধান্ত নেয়। প্রথমে ব্যাট করা পাঞ্জাব দলের শুরুটা ভীষণই খারাপ হয় আর তাদের ওপেনার কেএল রাহুল দ্রুত আউট হয়ে যান। এরপর ক্রিস গেইলের ঝড় দেখতে পাওয়া যায়। গেইল ৩৭ বল খেলে ৬৯ রান করেন যার সাহায্যে পাঞ্জাব দল ২০ ওভারে ৭ উইকেট হারিয়ে ১৬১ রান করে। লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে দিল্লির ওপেনিং ব্যাটসম্যান শিখর ধবন ৫৬ রান করেন। দিল্লি অধিনায়ক শ্রেয়স আইয়ার অধিনায়কোচিত ইনিংস খেলে ৫৮ রান করে নিজের দলকে ৫ উইকেটে জয় এনে দেন।

আইয়ার হন ম্যান অফ দ্য ম্যাচ

জয়ের পর শ্রেয়স আইয়ার নিজেকে নয় বরং এই খেলোয়াড়দের দিলেন জয়ের শ্রেয় 2

অধিনায়ক শ্রেয়স আইয়ারকে এই ম্যাচে দুর্দান্ত ব্যাটিংয়ের জন্য ম্যান অফ দ্যা ম্যাচ নির্বাচিত করা। নিজের পোষ্ট ম্যাচ প্রেজেন্টেশনে তিনি বলেন,

“ঘরের মাঠে লাগাতার তিন ম্যাচ হারার পর এমন জয় পাওয়া বেশ ভাল। আমরা যেভাবে খেলেছি তা দেখে আমার ভাল লেগেছে। ধবন এই ম্যাচে দুর্দান্ত শুরু করেছে যার ফলে পরের দিকের ব্যাটসম্যানদের জন্য সহজ হয়ে গিয়েছে। এই পিচ আমাদের ব্যাটসম্যানদের সাহায্য করে না। এখানে আপনাকে সোজা ব্যাটেই শট খেলতে হয়। এই পিচ ভীষণই স্লো”।

তিনি আগে বলেন যে,

“আমাদের আজকের মতই ম্যাচকে শেষ করতে হবে। সন্দীপ একজন দুর্দান্ত তরুণ বোলার। যদি ও ম্যাচে রানও দিয়ে ফেলে তারপরও ও দুর্দান্ত প্রত্যাবর্তন করে। ও কোনো ব্যাটসম্যানকেই ভয় পায় না। অমিত মিশ্রা ওকে ভীষণই সাহায্য করে”।

আগেও এমন খেলতে চান আইয়ার

জয়ের পর শ্রেয়স আইয়ার নিজেকে নয় বরং এই খেলোয়াড়দের দিলেন জয়ের শ্রেয় 3

শ্রেয়স আইয়ার আরো বলেন,

“আমরা চাই আমাদের শুরুটা আক্রামণাত্মক হোক যেমন আজ হয়েছে। ধবন এই মুহুর্তে দুর্দান্ত আর আক্রামণাত্মক ব্যাটিং করছে যার আমরা অনেক সাহায্য পাচ্ছি। অদি আমাদের শুরুর চারজন ব্যাটসম্যানদের মধ্যে যে কোনো ব্যাটসম্যান শেষ পর্যন্ত টিকে থাকে তো ম্যাচ আমাদের দিকে ঘুরিয়ে দিতে পারে। এই ম্যাচে আমি দায়িত্ব নিয়েছি। আমি চাই আগেও এমনটা হতে থাকুক”।

দিল্লি ক্যাপিটালসকে তাদের পরের ম্যাচ ২২ এপ্রিল রাজস্থান রয়্যালসের বিরুদ্ধে খেলতে হবে।

suvendu debnath

কবি, সাংবাদিক এবং গদ্যকার। শচীন তেন্ডুলকর, ব্রায়ান লারার অন্ধ ভক্ত। ক্রিকেটের...

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *