ওয়েস্টইন্ডিজের হয়ে ২৬ বছর পর কেমার রোচ করে ফেললেন এই দুর্দান্ত কৃতিত্ব 1

ইংল্যান্ড আর ওয়েস্টইন্ডিজের মধ্যে তিন ম্যাচের টেস্ট সিরিজের তৃতীয় আর শেষ টেস্ট ম্যাচ ম্যাঞ্চেস্টারের ওল্ড ট্র্যাফোর্ড ক্রিকেট স্টেডিয়ামে খেলা হচ্ছে। প্রথমে ব্যাট করে ইংল্যান্ডের দল এই ম্যাচে নিজেদের প্রথম ইনিংসে ৩৬৯ রানের একটি ভালো স্কোর করেছে। সিরিজের এই শেষ টেস্ট ম্যাচে ওয়েস্টইন্ডিজের জোরে বোলার কেমার রোচ একটি বিশেষ উপলব্ধি নিজের নামে করেছেন।

কেমার রোচ ২০০ উইকেট নেওয়ার কৃতিত্ব করলেন হাসিল

ওয়েস্টইন্ডিজের হয়ে ২৬ বছর পর কেমার রোচ করে ফেললেন এই দুর্দান্ত কৃতিত্ব 2

ওয়েস্টইন্ডিজের জোরে বোলার কেমার রোচ এই টেস্ট ম্যাচে ২০০ উইকেট নেওয়ার একটি বিশেষ উপলব্ধি নিজের নামে করেছেন। তিনি এই টেস্ট ম্যাচে দুর্দান্ত বল করে ২৫.৪ ওভারের বোলিংয়ে মাত্র ৭২ রান খরচা করে মোট ৪টি উইকেট নিয়েছেন। ম্যাচের দ্বিতীয়দিন ক্রিস ওকসের উইকেট নিতেই তিনি এই দুর্দান্ত কৃতিত্ব অর্জন করেছেন।

২৬ বছর পর কোনো ওয়েস্টইন্ডিজ খেলোয়াড় হাসিল করলেন ২০০ উইকেট

ওয়েস্টইন্ডিজের হয়ে ২৬ বছর পর কেমার রোচ করে ফেললেন এই দুর্দান্ত কৃতিত্ব 3

প্রায় ২৬ বছর পর ওয়েস্টইন্ডিজের কোনো খেলোয়াড় ২০০ টেস্ট উইকেট হাসিল করার এই বিশেষ উপলব্ধি নিজের নামে করেছেন। এর আগে ১৯৯৪তে কার্টলে অ্যামব্রোজ ২০০ উইকেট নিয়েছিলেন। জানিয়ে দিই যে ওয়েস্টইন্ডিজের প্রাক্তন জোরে বোলার কোর্টনি ওয়ালস ওয়েস্টইন্ডিজের হয়ে টেস্টে সর্বাধিক উইকেট নিয়েছেন। তিনি ১৩২টি ম্যাচ খেলেছেন আর ২৪.৪৪ গড়ে ৫১৯টি উইকেট নিয়েছেন।

এমন থেকেছে কেমার রোচের এখনো পর্যন্ত ক্রিকেট কেরিয়ার

ওয়েস্টইন্ডিজের হয়ে ২৬ বছর পর কেমার রোচ করে ফেললেন এই দুর্দান্ত কৃতিত্ব 4

জানিয়ে দিই যে কেমার রোচ ওয়েস্টইন্ডিজের হয়ে ৫৯টি টেস্ট ম্যাচ, ৯২টি ওয়ানডে ম্যাচ আর ১১টি টি-২০ আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলেছেন। নিজের খেলা ৫৯টি টেস্ট ম্যাচে কেমার রোচ ২০১টি উইকেট হাসিল করেছেন। অন্যদিকে ৯২টি ওয়ানডে ম্যাচে তিনি ১২৪টি উইকেট নিয়ে ফেলেছেন। ১১টি টি-২০ আন্তর্জাতিক ম্যাচে তিনি ৭.২৮ ইকোনমি রেটে ১০টি উইকেট নিয়েছেন। কেমার রোচ দ্রুত গতির বোলিং করার জন্য পরিচিত। সেই সঙ্গে তিনি বললে দু’দিকেই সুইং করার সক্ষমতাও রাখেন।

suvendu debnath

কবি, সাংবাদিক এবং গদ্যকার। শচীন তেন্ডুলকর, ব্রায়ান লারার অন্ধ ভক্ত। ক্রিকেটের...

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *