রবি শাস্ত্রী বলেছিলেন সৌরভ গাঙ্গুলী অধিনায়ক থাকার সময় প্র্যাকটিস করা ছেড়ে দিতেন, এবার গাঙ্গুলী দিলেন পাল্টা

ভারতীয় দলের কোচ রবি শাস্ত্রী সম্প্রতি একটি শো চলাকালীন সময়ানুবর্তীতা নিয়ে ২০০৭এ বাংলাদেশে সফরের একটি ঘটনা বলেছিলেন। এখন সৌরভ গাঙ্গুলীও সেই একই শোয়ে সেই ঘটনাকে অস্বীকার করে বলেন, এমন কিছুই হয় নি। সেই সঙ্গে এটাও বলেছেন যে আপনি শাস্ত্রীর সাক্ষাতকার সকালে করবেন না কারণ তিনি ভুলে যান।

যা বলেছিলেন রবি শাস্ত্রী
রবি শাস্ত্রী বলেছিলেন সৌরভ গাঙ্গুলী অধিনায়ক থাকার সময় প্র্যাকটিস করা ছেড়ে দিতেন, এবার গাঙ্গুলী দিলেন পাল্টা 1
রবি শাস্ত্রী একটি শো চলাকালীন ২০০৭ এ ভারতের বাংলাদেশ সফরের একটি ঘটনা বলেছিলেন। সেই সময় তিনি ভারতের অন্তরীম কোচ ছিলেন। শাস্ত্রী সময়ানুবর্তিতার কথা বলতে গিয়ে বলে ২০০৭ এ দলকে চিটাগাঙে প্র্যাকটিসের জন্য যাওয়ার ছিল। যাওয়ার যে সময় ছিল তার পেরিয়ে গিয়েছিল আর দলের সমস্ত খেলোয়াড় এবং দলের সদস্য বাসে উপস্থিত ছিলেন। কিন্তু তখনই বলা যে অধিনায়ক সৌরভ গাঙ্গুলী বাসে উপস্থিত নেই। কিন্তু শাস্ত্রী ড্রাইভারকে বলে বলেন চলো ও গাড়ি করে এসে পড়বে আর তিনি সৌরভকে ছেড়েই চলে যান।

সৌরভ গাঙ্গুলী করলেন তা অস্বীকার
রবি শাস্ত্রী বলেছিলেন সৌরভ গাঙ্গুলী অধিনায়ক থাকার সময় প্র্যাকটিস করা ছেড়ে দিতেন, এবার গাঙ্গুলী দিলেন পাল্টা 2
ওই শোয়ে যখন সৌরভ গাঙ্গুলী সাক্ষাৎকার দেওয়ার জন্য পৌঁছন এবং যখন তাকে ২০০৭ এর সেই ঘটনা নিয়ে প্রশ্ন করা করা তখন তিনি তা অস্বীকার করে বলেন, “ আপনি ওর (শাস্ত্রীর) ইন্টারভিউ সকালে করবেন না। ওর মনে থাকে না। যখন ও আমার সঙ্গে দেখা করবে তখন আমি ওকে বলব যে আপনি কি বলে দেন সাক্ষাৎকারে। এমন কিছুই হয় নি”। গাঙ্গুলী এবং শাস্ত্রীর মধ্যে ২০১৬ থেকে কোনও কিছুই ঠিক নেই। গাঙ্গুলীর সভাপতিত্বে পরামর্শদাতা সমিতি অনিল কুম্বলেকে টিম ইন্ডিয়ার প্রধান কোচ হওয়ার প্রস্তাব দিয়েছিলেন, যার পরই কুম্বলে কোচ হয়েছিলেন। কিছু কিছু সময় পরে অনিল কুম্বলে নিজের পদ থেকে ইস্তফা দিয়ে দেন, যার পর রবি শাস্ত্রী টিম ইন্ডিয়ার প্রধান কোচ হন। ওই পরামর্শদাতা সমিতিতে সৌরভ গাঙ্গুলী, ভিভিএস লক্ষ্মণ, শচীন তেন্ডুলকর আর সঞ্জয় জগদলে শামিল ছিলেন, যারা কোচের পদের জন্য ইন্টারভিউ নিয়েছিলেন আর গাঙ্গুলী অনিল কুম্বলের কোচ হওয়ার পক্ষে ছিলেন।

suvendu debnath

কবি, সাংবাদিক এবং গদ্যকার। শচীন তেন্ডুলকর, ব্রায়ান লারার অন্ধ ভক্ত। ক্রিকেটের...

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *