বাংলার হয়ে খেলতে অস্বীকার করলেন ঋদ্ধিমান সাহা, কারণ জানলে আপনিও হবে অবাক 1

বাংলা ক্রিকেট দল ছাড়তে চান ভারতীয় উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান ঋদ্ধিমান সাহা (Wriddhiman Saha)। ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশন অফ বেঙ্গলের (সিএবি) কাছে এনওসি চেয়েছেন তিনি। মঙ্গলবারই, বাংলা রঞ্জি ট্রফির নকআউট ম্যাচের জন্য তাদের স্কোয়াড ঘোষণা করে এবং তাতে সাহাকে অন্তর্ভুক্ত করা হয়। তবে এবার তাকে ছেড়ে নেওয়ার দাবি জানিয়ে নিজেই চমকে দিয়েছেন তিনি। এক সংবাদমাধ্যমের সঙ্গে কথা বলার সময়, রোমি মিত্র তার সাক্ষাত্কারে বলেন যে ‘সাহার কমিটমেন্ট নিয়ে বাংলার ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশন প্রশ্ন তুলেছে। এটা সাহাকে খুব দুঃখ দিয়েছে এবং সে কারণেই তিনি আর বাংলা দলের অংশ হতে চান না।’ বাংলাকে ঝাড়খণ্ডের বিরুদ্ধে ৬ জুন প্রথম ম্যাচ খেলতে হবে, কিন্তু তার আগেই স্ত্রীর এই বক্তব্য আলোড়ন সৃষ্টি করেছে।

সিএবির যুগ্ম সচিব দেবব্রত দাসের ওপর ক্ষুব্ধ সাহা?

বাংলার হয়ে খেলতে অস্বীকার করলেন ঋদ্ধিমান সাহা, কারণ জানলে আপনিও হবে অবাক 2

রোমি স্পষ্টভাবে বলেছেন যে সিএবি’র যুগ্ম সচিব দেবব্রত দাস প্রকাশ্যে সাহার প্রতিশ্রুতি এবং খেলা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছিলেন, যা কোনও ক্ষেত্রেই গ্রহণযোগ্য নয়। রঞ্জি ট্রফির গ্রুপ পর্বে মিডিয়াতে প্রকাশ্যে তার কমিটমেন্ট নিয়ে প্রশ্ন করেছিলেন। প্রসঙ্গত, সেই সময়েই এক সিনিয়র সাংবাদিকের সঙ্গে হোয়াটসঅ্যাপ পাবলিক করে গোটা ভারতীয় ক্রিকেট বিশ্বকে নাড়া দিয়েছিলেন সাহা। তিনি আরও বলেছিলেন যে ভারতীয় প্রধান কোচ রাহুল দ্রাবিড় ব্যক্তিগতভাবে তাকে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে অবসর নিতে বলেছিলেন।

বাংলার হয়ে খেলতে অস্বীকার করলেন ঋদ্ধিমান সাহা, কারণ জানলে আপনিও হবে অবাক 3

অন্যদিকে এই বিষয়ে এক কর্মকর্তা বলেন, “ঋদ্ধি আর বাংলার হয়ে খেলতে আগ্রহী নয় এবং এনওসি দাবি করেছে। দল ছাড়তে চান তিনি। তিনি একজন সিএবি কর্মীর (যুগ্ম সচিব দেবব্রত দাস) এর প্রতি অত্যন্ত ক্ষুব্ধ যিনি প্রকাশ্যে তার কমিটমেন্ট নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন। তিনি প্রকাশ্যে ক্ষমা চান।” এর পাশাপাশি এটাও জানিয়ে যাক, যে ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশন অফ বেঙ্গল (সিএবি) ফাস্ট বোলার মহম্মদ শামিকেও বাংলা দলে জায়গা করে দিয়েছে। তবে তার অংশগ্রহণের জন্য ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিসিআই) অনুমোদন লাগবে।

Leave a comment

Your email address will not be published.