ভারতীয় দলে নির্বাচনের পরের দিনই খেললেন বিস্ফোরক ইনিংস, নিজেকে করলেন প্রমাণ

গত শনিবার ২০ ফেব্রুয়ারি শুরু হওয়া বিজয় হাজারে ট্রফির সঙ্গে ভারতীয় ক্রিকেটের ঘরোয়া মরশুম তার পরবর্তী পর্যায়ে পৌঁছে গিয়েছে। একদিবসীয় ঘরোয়া টুর্নামেন্টের প্রথম দিনই বল আর ব্যাটে বেশকিছু দুর্দান্ত প্রদর্শন দেখতে পাওয়া গিয়েছে। তা সে ঈশান কিষাণের ১৭৩ রানের ঝোড়ো সেঞ্চুরি ইনিংসই হোক বা বরুণ অ্যারণের ৬ উইকেট। এমনই কিছু দুর্দান্ত প্রদর্শনের ধারা টুর্নামেন্টের দ্বিতীয় দিনও বজায় রয়েছে। প্রথম দিনের মতোই দ্বিতীয় দিনও একই সময় আলাদা আলাদা জায়গায় বিজয় হাজারে ট্রফির মোট ১০টি ম্যাচ খেলা হচ্ছে। এই লেখায় আমরা কথা বলব এমন খেলোয়াড়ের যিনি ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে টি-২০ সিরিজে জায়গা পাওয়ার পরের দিনই নিজের ব্যাটিংয়ে সবাইকে প্রভাবিত করেছেন।

ভারতীয় দলে নির্বাচনের পরের দিনই রাহুল তেওটিয়া করলেন বিস্ফোরক ব্যাটিং

ভারতীয় দলে নির্বাচনের পরের দিনই খেললেন বিস্ফোরক ইনিংস, নিজেকে করলেন প্রমাণ 1

বিজয় হাজারে ট্রফির প্রথম রাউন্ডে এলিট গ্রুপের একটি ম্যাচ চলছে হরিয়ানা আর চন্ডীগড়ের মধ্যে। কলকাতার ভিডিওকন অ্যাকাডেমি গ্রাউন্ড, সল্টলেকে খেলা হওয়া ম্যাচে চণ্ডীগড়ের দল টসে জিতে প্রথমে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নেয়। প্রথমে ব্যাট করতে নামা হরিয়ানার তরফে হিমাংশু রানা আর অরুণ ছাপরানার ওপেনিং জুটি দুর্দান্ত ব্যাটিং করে প্রথম উইকেটের হয়ে ১১৫ রান যোগ করেন। এছাড়াও একটি ইনিংস যা এই ম্যাচে হাইলাইট হয়েছে, সেটা হল সিহি গ্রামের ২৭ বছর বয়সী ব্যাটিং অলরাউন্ডার রাহুল তেওটিয়ার মাত্র ২৯ বলে ৭৩ রানের বিস্ফোরক ইনিংস, যার মধ্যে ৬টি ছক্কা আর ৪টি বাউন্ডারি রয়েছে। প্রসঙ্গত রাহুলের ইনিংসের গুরুত্ব এই কারণেও বেড়ে যায় কারণ আগের দিনই ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে হতে চলা টি-২০ সিরিজের জন্য তাকে ভারতীয় দলে জায়গা দেওয়া হয়েছে।

ছন্নছাড়া হয়ে গিয়েছে হরিয়াণার মিডল অর্ডার ব্যাটিং

ভারতীয় দলে নির্বাচনের পরের দিনই খেললেন বিস্ফোরক ইনিংস, নিজেকে করলেন প্রমাণ 2

তেওটিয়ার ৭৩ রান ছাড়াও ওপেনিং ব্যাটসম্যান হিমাংশু রানার ১০২ রানের সেঞ্চুরি ইনিংস আর অরুণ ছাপরানার ৫০ রানের ইনিংসও দলের জন্য গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেছে। ১১৫ রানের স্কোরে হরিয়াণার দল প্রথম ধাক্কা খাওয়ার পর তাদের উইকেটও নিয়মিত ব্যবধানে পড়তে থাকে। ওপেনিং ব্যাটসম্যান হিমাংশুরানার আউট হওয়ার পর মিডল অর্ডার ছন্নছাড়া হয়ে যাওয়ার কারণে হরিয়ানা বড়ো স্কোর করতে ব্যর্থ হয়। ৫০ ওভার পূর্ণ হওয়ার পর শেষে হরিয়ানার দল ৯ উইকেটে ২৯৯ রানের স্কোর করে। দুই দলেরই এটি টুর্নামেন্টের প্রথম ম্যাচ।

খারাপ শুরুর পর চন্ডীগড়ের বোলারদের প্রত্যাবর্তন

ভারতীয় দলে নির্বাচনের পরের দিনই খেললেন বিস্ফোরক ইনিংস, নিজেকে করলেন প্রমাণ 3

টস জিতে প্রথমে বোলিং করতে নামা চণ্ডীগড়ের দলের হয়ে জগতজীত সিং ৭ ওভারে ৩৬ রান দিয়ে ৩ উইকেট নেন, অন্যদিকে গুরিন্দর সিংও ১০ ওভারে ৫০ রান দিয়ে ২ উইকেট নিয়েছেন। এই দুই বোলার ছাড়াপ মন্দীপ, জসকরণ আর গৌরব গম্ভীরও ১টি করে উইকেট নেন। এই খবর লেখার সময় পর্যন্ত হরিয়াণার ইনিংস শেষ হয়ে গিয়েছে।

suvendu debnath

কবি, সাংবাদিক এবং গদ্যকার। শচীন তেন্ডুলকর, ব্রায়ান লারার অন্ধ ভক্ত। ক্রিকেটের...

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *