এই অপরাধে আট বছরের জন্য নির্বাসিত হলেন আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের এই দুই তারকা 1

আন্তর্জাতিক ক্রিকেট কাউন্সিল (আইসিসি) সংযুক্ত আরব আমিরশাহির দুই ক্রিকেটার মহম্মদ নাভেদ এবং শায়মান আনোয়ার বাটকে প্রতিটি ক্রিকেট ফর্ম্যাট থেকে আট বছরের জন্য নির্বাসিত করেছে। আইসিসি দুর্নীতি দমন ট্রাইব্যুনাল দুর্নীতি দমন আইন লঙ্ঘনের জন্য দুজনকেই দোষী সাব্যস্ত করেছে, এর পর দুজনকে সাজা দেওয়া হয়েছে। এই নিষেধাজ্ঞাটি ১৬ অক্টোবর ২০১৯ থেকে বিবেচিত হবে। সংযুক্ত আরব আমিরশাহিতে আইসিসি পুরুষদের টি টোয়েন্টি বিশ্বকাপ বাছাইপর্বের ম্যাচ চলাকালীন দুজনেরই বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগ আনা হয়েছিল।

এই অপরাধে আট বছরের জন্য নির্বাসিত হলেন আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের এই দুই তারকা 2

দু’জনই আইসিসির আচরণবিধির ২.১.১ এবং ২.৪.৪ অনুচ্ছেদ লঙ্ঘনের জন্য দোষী সাব্যস্ত হয়েছেন। আইসিসি ইন্টিগ্রিটি ইউনিটের জেনারেল ম্যানেজার অ্যালেক্স মার্শাল বলেছেন, “আন্তর্জাতিক পর্যায়ে সংযুক্ত আরব আমিশাহিকে প্রতিনিধিত্ব করেছেন মহম্মদ নাভেদ ও শায়মান আনোয়ার। নাভিদ অধিনায়ক এবং শীর্ষস্থানীয় উইকেট শিকারী ছিলেন। আনোয়ার ছিলেন ওপেনিং ব্যাটসম্যান। দুজনেরই দীর্ঘ আন্তর্জাতিক কেরিয়ার রয়েছে। দু’জনকেই দীর্ঘদিন ধরে ম্যাচ ফিক্সারের দ্বারা হুমকি দেওয়া হয়েছিল। উভয়ই তাদের অবস্থানের অপব্যবহার করে এ জাতীয় দুর্নীতির সাথে জড়িত হয়েছে। এইভাবে তিনি তাঁর সহযোগী দলের খেলোয়াড় এবং সংযুক্ত আরব আমিরশাহির ক্রিকেট ভক্তদের প্রতারণা করেছেন।“

আর এর জেরে আট বছর কোনও প্রকার ক্রিকেটের সাথে যুক্ত থাকতে পারবেন না এই দুই ক্রিকেটার। ক্রিকেটে আবারও লাগল বেটিংয়ের কালো ছায়া, তা বলাই যায়। এর আগেও হেভিওয়েট ক্রিকেট দেশগুলির ক্রিকেটাররাও শাস্তির সম্মুখীন হয়েছেন।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *