চিন্নাস্বামীতে ইতিহাস, অরুণাচল’কে নাস্তানাবুদ করে তামিলনাড়ু তৈরী করলো সর্বোচ্চ ব্যবধানে ম্যাচ জয়ের নজির !! 1

চলছে বিজয় হাজারে ট্রফি। ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড(BCCI) আয়োজিত এই একদিনের টুর্নামেন্টে একে অন্যের মুখোমুখি হচ্ছে রাজ্য ক্রিকেট দলগুলি। আগামী বছর ভারতের মাটিতে হতে চলেছে ক্রিকেট বিশ্বকাপ। শেষ মুহুর্তে দুর্দান্ত পারফর্ম করে ভারতীয় দলের দরজায় কড়া নাড়তে চেষ্টা করছেন অনেক ক্রিকেটার। তাঁদের কাছে এই বিজয় হাজারে ট্রফি(Vijay Hazare Trophy) একটি দুর্দান্ত মঞ্চ নিজেদের দক্ষতা জাহির করার। আজ বেঙ্গালুরুর চিন্নাস্বামী স্টেডিয়ামে মুখোমুখি হয়েছিলো দক্ষিণের রাজ্য তামিলনাড়ু আর উত্তরপূর্বের অরূণাচল প্রদেশ। হাড্ডহাড্ডি নয়্‌, বরং প্রচন্ড একপেশে ক্রিকেট দেখা গেলো আজ। সহজেই অরুণাচল’কে হারালো তারকাখচিত তামিলনাড়ু(Tamil Nadu)। তবে জয় নয়, চর্চায় উঠে এসেছে জয়ের ব্যবধান। ঘরোয়া ক্রিকেটে একদিনের ম্যাচে এর থেকে বড় ব্যবধানে জয়ের নজির বিশ্বে কোথাও নেই আর। তামিলনাড়ুর কাছে অরুণাচল হারলো ৪৩৫ রানে।

দুরন্ত জগদীশনে বিধ্বস্ত প্রতিপক্ষ-

N Jagadeesan | image: Gettyimages
N Jagadeesan scored a blistering 277 agaoinst Arunachal.

প্রথমে ব্যাট করে শুরু থেকেই মারমুখী ছিলেন তামিলনাড়ু’র দুই ওপেনার। সাই সুদর্শণ ক্রেন ১০২ বলে ১৫৪ রান। মারেন ১৯ টি চার এবং ২ টি চার। তাঁর এই অসাধারণ ইনিংসটি নিয়ে হয়ত ক্রিকেটমহলে জোর চর্চা হত, যদি না তাঁর ওপেনিং পার্টনার একটা অবিস্মরণীয় ইনিংস না খেলে দিতেন। তামিলনাড়ুর আরেক ওপেনার নারায়ণ জগদীশন(N Jagadeesan) চলতি বিজয় হাজারে ট্রফিতে এখনও অব্দি ৫ টি ম্যাচ খেলেছেন। এবং করেছেন ৫ খানি শতরান। আগের চার ম্যাচে শতরানে থেমেছিলেন। আজ করে বসলেন দ্বিশতরান। ১৪১ বলে ২৫ টি চার এবং ১৫ ছক্কা হাঁকিয়ে জগদীশনের সংগ্রহ ২৭৭ রান। দুই ওপেনারের বড় রানের পর বাবা অপরাজিত এবং বাবা ইন্দ্রজিৎ যথাক্রমে ৩১ রান করে করেন। তাঁদের ব্যাটিং বিক্রমে মাত্র দুই উইকেট হারিয়ে স্কোরবোর্ডে ৫০৬ রান তুলে ফেলে ৫০ ওভারে।

অসহায় আত্মসমর্পণ, রেকর্ড ব্যবধানে হারলো অরুণাচল –

TN vs Arunachal | image: Twitter
Tamil Nadu scripted history by beating Arunachal by 435 runs.

৫০৭ রানের সুবিধাল লক্ষ্যমাত্রা নিয়ে খেলতে নেমে দুর্বল অরুণাচল এমনিতে ব্যাকফুটে ছিলো। তামিলনাড়ুর শক্তিশালী বোলিং-এর সামনে এরপর ধীরে ধীরে গুটিয়ে গেলো তারা। কেউই বড় রান বা উল্লেখযোগ্য রান করতে পারেন নি। সর্বোচ্চ রান টেকিদোরিয়া’র। তিনি ১৭ বলে ১৪ রান করেন। তামিলনাড়ু বোলারদের মধ্যে মণিমরন সিদ্ধার্থ(Manimaran Siddharth) একাই নিয়েছেন ৫ উইকেট। এছাড়াও সাই কিশোর ১ টি, আর সিলাম্বারাসান ও এম মহম্মদ ২ টি করে উইকেট নিয়েছেন। মাত্র ৭১ রানে শেষ হয়ে যায় অরুণাচলের ব্যাটিং। ৪৩৫ রানের ব্যবধানে ম্যাচ জিতে পুরুষদের প্রথম শ্রেণির একদিনের ম্যাচের ইতিহাসে সর্বোচ্চ ব্যবধানে জয়ের রেকর্ড নিজেদের নামে করলো তামিলনাড়ু। এর আগে এই রেকর্ড ছিলো ইংল্যান্ডের সমারসেট দলের নামে। ডেভন’কে তারা ১৯৯০ সালে হারিয়েছিলো ৩৪৬ রানে। প্রায় ২২ বছর পর তামিলনাড়ু সেই রেকর্ড ভেঙে নতুন নজির স্থাপন করলো। ইতিহাসে সর্বচ্চ ব্যবধানে জয়ের তালিকাটি দেখে নিন এখানে-

Leave a comment

Your email address will not be published.