Turkey Cricket

ভারতীয় ক্রিকেটারদের চাহিদা যে বিশ্ব জুড়ে, সেটা আলাদা করে বলে দেওয়ার দরকার পড়ে না। ইউরোপের বিভিন্ন দেশ, লাতিন আমেরিকা কিংবা উত্তর আমেরিকার দেশগুলিতে ভারতীয় ক্রিকেরারদের আধিক্য দেখা যায়। এবার সেই সুনাম বজায় রেখে তুরস্কের ক্রিকেট (Turkey Cricket) দলে দেখা যাবে এমনই এক ক্রিকেটারকে। তবে তিনি শুধু ভারতীয় নন, খোদ বাংলার ছেলে এবার তুরস্কের জার্সি গায়ে মাঠে নামতে চলেছেন। হ্যাঁ, উত্তর ২৪ পরগণার গোবরডাঙার রোমিও নাথ এবার সুযোগ পেলেন তুরস্কের জাতীয় দলে। শোনা যাচ্ছে, তিনি গত এক দশক ধরে সেই দেশের নাগরিক। এবার তুরস্কের হয়ে গোবরডাঙার রোমিও ২০২৪ টি-২০ বিশ্বকাপের ইউরোপ বিভাগের যোগ্যতা অর্জন পর্বের ম্যাচগুলিতে মাঠে নামবেন।

ফুটবলের দেশে উড়ছে ক্রিকেটের পতাকা

Turkey Cricket

তুরস্কের খেলার কথা বললে আমাদের মাথায় প্রথমেই আসে ফুটবলের কথা। চোখের সামনে ভেসে ওঠে হাসান সাস, হাকান সুকুরদের মতো ফুটবলারদের ছবি। ক্রিকেটের তেমন কোন চলই নেই আন্তঃমহাদেশীয় দেশটিতে। ফুটবল আধিক্যের কারণে ক্রিকেট সেই মহলে কল্কে পেত না ক্রিকেট খেলা। তবে, এবার তুরস্কের কিছু সংখ্যক মানুষ ক্রিকেট নিয়ে বেশ আগ্রহী হয়ে উঠেছেন। আর সেই কারণেই ২০ ওভারের বিশ্বকাপের জন্য এবার দল তৈরি করেছে তুর্কি খেলোয়াড়রা। এবার তাদের দলে থাকছেন রোমিও জাতীয় দলের উইকেটরক্ষক-ব্যাটসম্যান। দলের সবথেকে ভালো ব্যাটসম্যানও তিনি।

তুরস্কের ক্রিকেট নিয়ে কী বলছেন রোমিও ?

Turkey Cricket: ফুটবলের দেশ তুরস্ককে এবার ক্রিকেট মানচিত্রে তুলে আনতে মরিয়া গোবরডাঙার রোমিও নাথ ! 1

বিশ্বকাপ ফুটবলে তুরস্ককে দেখা গেলেও, ক্রিকেটের বিশ্ব মানচিত্রে এই দেশ এতদিন অদৃশ্য হয়েই থেকেছে। তবে সময়ের সঙ্গে সঙ্গে কিছু বদল হয়েছে পরিস্থিতিতে। বছর দেশেক আগেও ক্রিকেট সম্মন্ধে তেমন কিছুই জানতেন না তুরস্কের মানুষ। তবে এখনও যে খুব একটা বেশি মানুষ জানেন, সেটাও নয়। এবার সেই দেশের ক্রিকেটকে মূল ধারায় আনতে মরিয়া রোমিও। ২০১১ থেকে পাকাপাকি ভাবে তুরস্কে চলে যান এই বঙ্গসন্তান। এখন সেখানে কী করে খেলেন ক্রিকেট? তুরস্কের রাজধানী ইস্তানবুল থেকে একটি সংবাদমাধ্যমকে তিনি বলেন, “এখানে ব্যাট, বল, প্যাড, হেলমেট কিছুই পাওয়া যায় না। ভারত, পাকিস্তান, লন্ডন থেকে নিজেদের পরিচিতদের মাধ্যমে ক্রিকেট সরঞ্জাম আনাতে হয় আমাদের। জাতীয় দলে একমাত্র ভারতীয় আমি। বাকিরা পাকিস্তান বা আফগানিস্তানের। দুই-তিন জন তুরস্কের বাসিন্দা রয়েছেন। ওরাও তেমন খেলতে পারে না। তুরস্কের জাতীয় দলের বোলার হিসেবে কয়েকজন রয়েছেন।”

মাঠে নেমে সেরাটা দিতে তৈরি রোমিও’র দল

Turkey Cricket: ফুটবলের দেশ তুরস্ককে এবার ক্রিকেট মানচিত্রে তুলে আনতে মরিয়া গোবরডাঙার রোমিও নাথ ! 2

তুরস্কের প্রথম জাতীয় ক্রিকেট দলে সুযোগ পেয়ে খুশি রোমিও। ২০২৪ টি-২০ বিশ্বকাপের ইউরোপ বিভাগের যোগ্যতা অর্জন পর্বের ম্যাচগুলি শুরু হবে ১২ জুলাই। চলবে ৩১ জুলাই পর্যন্ত। এই খেলাগুলি হবে ফিনল্যান্ডে। তুরস্কের প্রতিপক্ষ সাইপ্রাস, রোমানিয়া, সার্বিয়া এবং আইল অব ম্যান। ৪১ বছরের রোমিও আবশ্য এখনই বিশ্বকাপ খেলার কথা ভাবছেন না। তিনি বলেন, “সত্যি বলতে বিশ্বকাপ খেলার কোনও সম্ভাবনা নেই। আমাদের ক্ষমতা নেই অতটা দূর যাওয়ার। আন্তর্জাতিক পর্যায়ে খেলার সুযোগ পাচ্ছি, এটাই আমাদের জন্য বিরাট ব্যাপার। আমাদের কয়েক জনের হাতেই তুরস্কে ক্রিকেট শুরু। তাই আমরা চেষ্টা করবো নিজেদের সেরাটা দিয়ে ভালো কিছু করে দেখানোর।”

Read More: ঋষভ পন্থের টিম ইন্ডিয়াকে জেতাতে দ্বিতীয় টি২০তে দলে আসবেন এই জাদুকরী বোলার! একার হাতে জেতাবেন ম্যাচ

Leave a comment

Your email address will not be published.