মহম্মদ সিরাজের জন্য লাকী এই সতীর্থ খেলোয়াড়, যখন মাঠে নামেন পান উইকেট 1

অস্ট্রেলিয়া সফরে ভারতীয় দলের হয়ে নিজের আন্তর্জাতিক টেস্ট অভিষেক করা হায়দ্রাবাদের ২৬ বছর বয়সী জোরে বোলার মহম্মদ সিরাজ নিজের টেস্ট কেরিয়ারের শুরু থেকেই সমস্ত ক্রিকেট এক্সপার্টদের যথেষ্ট প্রভাবিত করেছিলেন। প্রসঙ্গত বর্ডার-গাভাস্কার ট্রফিতে সিরাজ ভারতের হয়ে সবচেয়ে বেশি ১৩টি উইকেট নিয়েছিলেন।
তবে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে টেস্ট সিরিজে সিরিজ বেশি সুযোগ পাননি। চেন্নাই টেস্টে সিরিজকে জসপ্রীত বুমরাহের জায়গায় খেলা হয়েছিল, যারপর আরও একবার তিনি প্রধান জোরে বোলার জসপ্রীত বুমরাহের না থাকায় প্রথম একাদশে সুযোগ পেয়েছেন। কিন্তু এই প্রতবেদনে আমরা কথা বলব এমন এক খেলোয়াড়ের যিনি সিরাজের জন্য যথেষ্ট লাকী।

মহম্মদ সিরাজের জন্য লাকী ময়ঙ্ক আগরওয়াল, প্রত্যেকবার পান উইকেট

মহম্মদ সিরাজের জন্য লাকী এই সতীর্থ খেলোয়াড়, যখন মাঠে নামেন পান উইকেট 2

ভারত আর ইংল্যাণ্ডের মদ্যে ৪ টেস্ট ম্যাচের সিরিজের চতুর্থ আর শেষ টেস্ট ম্যাচ আহমেদাবাদের নরেন্দ্র মোদি ক্রিকেট স্টেডিয়াএ খেলা হচ্ছে। টস জিতে প্রথমে ব্যাট করতে নামা ইংলিশ দলকে মহম্মদ সিরাজ আর অক্ষর প্যাটেল শুরুর ধাক্কা দিয়ে প্রথম দিকের ৩টি উইকেট ৩০ রানেই ফেলে দেন। এছাড়াও এই ম্যাচে মাঠে সাবস্টিটিউট ফিল্ডার হিসেবে আসা ময়ঙ্ক আগরওয়াল আরও একবার হায়দ্রাবাদের তরুণ জোরে বোলার মহম্মদ সিরাজের জন্য লাকি প্রমাণিত হন। আরও একবার তার মাঠে নামতেই সিরাজ ইংলিশ অধিনায়ক জো রুটের বড়ো উইকেট পান। প্রসঙ্গত এর আগেও যতবার ময়ঙ্ক মাঠে থেকেছেন, সিরিজা ততবার সফলতা পেয়েছেন।

অস্ট্রেলিয়া সফরেও সিরাজের সঙ্গেই ছিলেন ময়ঙ্ক

মহম্মদ সিরাজের জন্য লাকী এই সতীর্থ খেলোয়াড়, যখন মাঠে নামেন পান উইকেট 3

অস্ট্রেলিয়া সফরে যখন সিরাজ এক ইনিংসে ৫টি উইকেট নিয়েছিলেন, সেই সময়ও মাঠে ময়ঙ্ক আগরওয়াল তার সঙ্গে খুশি পালন করার জন্য উপস্থিত ছিলেন। জানিয়ে দিই যে অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে টেস্ট সিরিজে সিরাজ ভারতীয় দলের হয়ে সবচেয়ে বেশি উইকেট নিয়েছিলেন। যদি আজকের ম্যাচের কথা বলা হয় তো এই খবর লেখা পর্যন্ত ইংলিশ দল ১২১ রানে ৫ উইকেট হারিয়ে ফেলেছে। বেন স্টোকস দুর্দাত হাফসেঞ্চুরি করেছেন।

ভারতের জন্য ভীষণই গুরুত্বপূর্ণ এই ম্যাচ

মহম্মদ সিরাজের জন্য লাকী এই সতীর্থ খেলোয়াড়, যখন মাঠে নামেন পান উইকেট 4

দুই দলের মধ্যে খেলা হওয়া সিরিজের এই চতুর্থ টেস্ট ম্যাচ আইসিসি টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের দিক দিয়ে ভীষণই গুরুত্বপূর্ণ। এই ম্যাচে যে ফলাফল হবে তাতেই ঠিক হবে লর্ডসে হতে চলা ফাইনালে নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে কোন দল সুযোগ পাবে। যদি ভারতীয় দল এই ম্যাচ জেতে তো বা ড্র হয়, এই পরিস্থিতিতে ভারতীয় দল সোজা আইসিসি বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালে পৌঁছে যাবে। কিন্তু যদি এই ম্যাচে ইংলিশ দল ভারতকে হারিয়ে দেয় তো তার লাভ সরাসরি অস্ট্রেলিয়া দল পাবে আর তারা আইসিসি টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালে পৌঁছে যাবে।

suvendu debnath

কবি, সাংবাদিক এবং গদ্যকার। শচীন তেন্ডুলকর, ব্রায়ান লারার অন্ধ ভক্ত। ক্রিকেটের...

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *