কাউন্টি ক্রিকেটে চেতেশ্বর পুজারার কাছ এই দুর্দান্ত কৌশল শিখেছেন মোহাম্মদ রিজওয়ান, কাজে লাগাবেন বিশ্বকাপে !! 1

পাকিস্তানের উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান মোহাম্মদ রিজওয়ান (Mohammad Rizwan) দীর্ঘ ফর্ম্যাটের ক্রিকেটে নিজের খেলার উন্নতির জন্য তার কাউন্টি সতীর্থ চেতেশ্বর পূজারার (Cheteshwar Pujara) মতো মনোযোগ চান। পূজারা কাউন্টি চ্যাম্পিয়নশিপ ডিভিশন টু-তে সাসেক্সের (Sussex) হয়ে খেলার সময় দুটি শতরান এবং একাধিক ডাবল সেঞ্চুরি করে টেস্ট দলে ফিরে আসার জোরালো দাবি করেছেন। পূজারা এবং রিজওয়ান এই মাসের শুরুতে ডারহামের বিপক্ষে ১৫৪ রানের জুটি ভাগ করে নেন। একই দল থেকে খেলা দুজনকে নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় ইতিবাচক মন্তব্যও দেখা গেছে। ২০২১ সালে আইসিসির বর্ষসেরা খেলোয়াড় নির্বাচিত হওয়া রিজওয়ান পাকিস্তানের ইউনিস খান এবং ফাওয়াদ আলমকে অটুট একাগ্রতার সাথে ব্যাটিং করার ক্ষেত্রে একটি বিশেষ বিভাগে রেখেছেন, তবে এখন তিনি পূজারাকেও এই তালিকায় অন্তর্ভুক্ত করেছেন।

পূজারা এবং রিজওয়ান এই মাসের শুরুতে ডারহামের বিপক্ষে ১৫৪ রানের জুটি ভাগ করে নেন

কাউন্টি ক্রিকেটে চেতেশ্বর পুজারার কাছ এই দুর্দান্ত কৌশল শিখেছেন মোহাম্মদ রিজওয়ান, কাজে লাগাবেন বিশ্বকাপে !! 2

রিজওয়ান ক্রিকউইককে বলেছেন, “যতদূর আমি এবং পূজারা উদ্বিগ্ন, আমি (ভারত-পাকিস্তান শত্রুতার প্রেক্ষাপটে) অদ্ভুত কিছু খুঁজে পাইনি। আপনি যদি তাকে জিজ্ঞাসা করেন, আমি আশা করি তার উত্তর একই হবে। আমি তার সাথে অনেক আলোচনা করি, তাকে বিরক্ত করি এবং দলের সবাই এটা জানে।” পূজারার প্রশংসা করে রিজওয়ান বলেন, “তিনি খুব ভালো এবং সুন্দর একজন মানুষ। তার মনোনিবেশ করার ক্ষমতা আশ্চর্যজনক। আপনি যদি তার কাছ থেকে কিছু শেখার সুযোগ পান, তবে আপনার এটি শেখা উচিত। আমি এখানে কোচকে একাগ্রতার কথাও বলেছি। আমার কেরিয়ারে একাগ্রতার দিক থেকে আমি যে খেলোয়াড়দের শীর্ষস্থানীয় পেয়েছি তাদের মধ্যে রয়েছে ইউনিস ভাই, ফাওয়াদ আলম এবং তিনি (পূজারা)। পুজারা আমার তালিকায় দ্বিতীয় এবং ফাওয়াদ আলম একাগ্রতা ও মনোযোগের দিক থেকে তৃতীয়। আমি এই তিনজন খেলোয়াড়কে এই বিষয়ে প্রথমে রেটিং করি।”

এই তিনজন খেলোয়াড় এত তীব্র মনোযোগ এবং একাগ্রতার সাথে ব্যাটিং করেন

কাউন্টি ক্রিকেটে চেতেশ্বর পুজারার কাছ এই দুর্দান্ত কৌশল শিখেছেন মোহাম্মদ রিজওয়ান, কাজে লাগাবেন বিশ্বকাপে !! 3

নিয়মিত সীমিত ওভারের ক্রিকেট খেলা দীর্ঘ ফরম্যাটে ব্যাটিংকে প্রভাবিত করতে পারে এবং রিজওয়ান বলেছিলেন যে পূজারার পরামর্শ তাকে এক্ষেত্রে সহায়তা করেছে। রিজওয়ান বলেন, “একটা সময় আসে যখন আপনার একাগ্রতা কমতে থাকে। আমি খুঁজে বের করার চেষ্টা করব কীভাবে এই তিনজন খেলোয়াড় এত তীব্র মনোযোগ এবং একাগ্রতার সাথে ব্যাটিং করেন। আমি ইউনিস ভাইয়ের সাথে কথা বলতে থাকি, কিন্তু ইদানীং ফাওয়াদের সাথে আমার খুব একটা কথা হয় না। সবাই জানে, আমরা একটানা সীমিত ওভারের ক্রিকেট খেলছি যেখানে আমরা আমাদের শরীরের খুব কাছাকাছি খেলি না কারণ বল সুইং বা সিম বেশি হয় না।”

Leave a comment

Your email address will not be published.