IND vs NZ:“আমরা বয়সে নবীন, অভিজ্ঞতায় নয়…” নিউজিল্যান্ডে আগ্রাসী হার্দিক বুঝিয়ে দিলেন ঠিক লোকের হাতেই রয়েছে নেতার দায়িত্ব !! 1

IND vs NZ: টি-২০ বিশ্বকাপে স্বপ্নভঙ্গের পর আরও একবার মাঠে নামার কথা ছিলো ভারতের। নিউজিল্যান্ডের ওয়েলিংটনে টি-২০ ম্যাচে মুখোমুখি হওয়ার কথা ছিলো বিশ্বকাপের দুই বিজিত সেমিফাইনালিস্ট ভারত এবং নিউজিল্যান্ড। ‘টিম ইন্ডিয়া’তে নেই রোহিত শর্মা, বিরাট কোহলি, কে এল রাহুলের মত সিনিয়র খেলোয়াড়’রা। তাঁদের অবর্তমানে দল সামলাবেন নতুন অধিনায়ক হার্দিক পান্ডিয়া। তারুণ্যের শক্তি’কে কাজে লাগিয়ে টি-২০ বিশ্বকাপ সেমিফাইনালে ১০ উইকেটে লজ্জার হার’কে যত দ্রুত সম্ভব পিছনে ফেলতে পারবে কিনা ভারতীয় দল, সেইদিকে লক্ষ্য ছিলো অনেকের। তাঁদের সামনে যারা, সেই নিউজিল্যান্ড’ও হেরেছিলো পাকিস্তানের কাছে। কিউইদের কাছেও লড়াই ছিলো নিজেদের ঘরের মাঠে নিজেদের ফিরে পাওয়ার। কেন উইলিয়ামসন, ডেভন কনওয়ে’রা চেয়েছিলেন ভারতের অনভিজ্ঞতা’কে কাজে লাগিয়ে সিরিজে ফায়দা তুলে নিতে। তারুণ্য বনাম অভিজ্ঞতার এই ডুয়েল কতটা জমে তা দেখতে মুখিয়ে ছিলেন বিশ্বের ক্রিকেটপ্রেমী জনতা। কিন্তু বাধ সাধলো বৃষ্টি। বরুণদেবের কোপে পড়ে এক বল’ও ক্রিকেট দেখা হলো না দুই দলের সমর্থকদের। ম্যাচ শেষমেশ বাতিল ঘোষণা করতে হলো। বাতিল ম্যাচ শেষে সাংবাদিক সম্মেলনে এসে যা বললেন ‘স্টপগ্যাপ’ অধিনায়ক হার্দিক(Hardik Pandya), তা শুনে খুশি হতে পারেন ‘মেন ইন ব্লু’ সমর্থকরা। লড়াই যে তাঁর রক্তে রয়েছে তা বুঝিয়ে দিলেন হার্দিক।

ম্যাচ না হওয়ায় হতাশ দল, জানালেন অধিনায়ক-

Hardik Pandya | image: twitter
Indian T20i captain Hardik Pandya was disappointed after the first Ind vs NZ T20i got cancelled.

বিশ্বকাপে খারাপ পারফর্ম্যান্সের পর স্থায়ী অধিনায়ক রোহিত শর্মা’কে সরিয়ে হার্দিক’কে নেতা করা হোক, এমনটাই চাইছেন অনেকে। সেইজন্য এই নিউজিল্যান্ড সিরিজ অধিনায়ক হার্দিকের(Hardik Pandya) কাছে যাকে বলা হয় ‘গ্র্যান্ড অডিশন।’ এক তরুণ দল নিয়ে হেভিওয়েট কিউইদের যদি হারাতে পারেন হার্দিক তাহলে তাঁকে স্থায়ী অধিনায়ক করার দাবী পালে আরও হাওয়া পাবে। এছাড়াও দল রয়েছে একঝাঁক নতুন মুখ। সিনিয়রদের অবর্তমানে যাঁরা নিজেদের প্রমাণ করতে মরিয়া। স্বভাবতই ম্যাচ ভেস্তে যাওয়ায় তাই মুষড়ে পড়েছে ভারতীয় দল। ম্যাচ শেষে সাংবাদিক সম্মেলনে এসে সেই কথাই বললেন হার্দিক(Hardik Pandya)। সাথে প্রশংসা করলেন নিউজিল্যান্ডের’ও। পান্ডিয়া জানান, “আমাদের ক্রিকেটার’রা আজকের ম্যাচ নিয়ে খুবই উত্তেজিত ছিলো। নিউজিল্যান্ড দারুণ একটা দেশ, এখানে ক্রিকেট খেলা সবসময় উপভোগ্য হয়। আজকের ম্যাচ’টা হলো না, সেটা খুবই দুর্ভাগ্যের। ম্যাচ শুরুর অনেক আগেই বেশ কয়েকজন দর্শক মাঠে হাজির হয়েছিলেন, আমরাও চনমনে ছিলাম বেশ, কিন্তু ক্রিকেটে এমনটা হয়। আমাদের সেটা মেনেও নিতে হয়। ” আজকের ম্যাচ না হওয়ায় দলের মধ্যে কি কোনো প্রভাব পড়বে? প্রশ্নের উত্তরে হার্দিক জানান, “ আমাদের দলের খেলোয়াড়েরা সকলে পেশাদার। অধিনায়ক বা ম্যানেজমেন্ট যা বলবে তা তারা মেনে চলবে।”

তরুণদের সাহস যুগিয়ে হুঙ্কার দিলেন নেতা হার্দিক-

Team India | image: Twitter
The young players of Indian team will be trying to prove their worth in the series against New Zealand.

২০২২ আইপিএলে প্রথমবার নেতৃত্ব করে গুজরাত টাইটান্স’কে ট্রফি জিতিয়েছিলেন হার্দিক পান্ডিয়া। তার পুরষ্কারস্বরূপ এর আগেও আয়ারল্যান্ড গামী ভারতীয় টি-২০ দলের নেতা করা হয়েছিলো তাঁকে। যত দিন যাচ্ছে নেতা হিসবে তত পরিণত হচ্ছেন পান্ডিয়া। নিজেদের দলে তরুণদের সমাবেশ ও অনভিজ্ঞতা কি এই সিরিজে ভারত’কে একটু ব্যাকফুটে রেখেছে? প্রশ্ন ধেয়ে এসেছিলো তাঁর কাছে। মাঠে যেরম সোজা ব্যাটে খেলতে পছন্দ করেন্‌, সাংবাদিক বৈঠকেও সেরম সোজা ব্যাটেই ছক্কা হাঁকালেন ভারতের অন্তর্বর্তীকালীন অধিনায়ক। জানালেন, “আমাদের খেলোয়াড়’রা বয়সের দিক থেকে তরুণ হতে পারে। অভিজ্ঞতা’র দিক থেকে নয়। তারা যথেষ্ট পরিমাণে আইপিএল এবং আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলেছে। আমার মনে হয় আজকালকার তরুণ’রা ক্রিকেট খেলতে নেমে ঘাবড়ে যায় না। যদি দরকার পড়ে আমি বিশেষ ভূমিকায় সিনিয়র খেলোয়াড়দের’ও ব্যবহার করবো।” অস্ট্রেলিয়ায় বিশ্বকাপে হতাশাজনক হার নিয়েও প্রশ্ন শুনতে হয় হার্দিক’কে। উত্তরে তিনি জানান, “এই সফর’টা তরুণদের জন্য, তাঁদের বিশ্বক্রিকেটে নিজেদের প্রতিষ্ঠা করার জন্য। বিশ্বকাপে যা হওয়ার তা হয়ে গিয়েছে। হারের হতাশা রয়েছে অবশ্যই। কিন্তু আমরা ফিরে গিয়ে সেই ম্যাচের ফলাফল তো আর বদলাতে পারি না! এখন নিউজিল্যান্ড সফরেই মনোনিবেশ করতে চাই।”

চলতি সিরিজে দুই দেশের স্কোয়াড-

Hardik Pandya, Kane Williamson | image: twitter
The two captains with the trophy before the IND vs NZ T20 series.

ভারত-

হার্দিক পান্ডিয়া (অধিনায়ক), শুবমান গিল, শ্রেয়স আইয়ার, সূর্যকুমার যাদব, দীপক হুডা, ওয়াশিংটন সুন্দর, ঈশান কিষণ, ঋষভ পন্থ (উইকেটরক্ষক), সঞ্জু স্যামসন (উইকেটরক্ষক), অর্শদীপ সিং, ভুবনেশ্বর কুমার, হর্ষল প্যাটেল, কুলদীপ যাদব, মহম্মদ সিরাজ, উমরান মালিক, যজুবেন্দ্র চাহাল।

নিউজিল্যান্ড-

কেন উইলিয়ামসন (অধিনায়ক), ফিন অ্যালেন, মাইকেল ব্রেসওয়েল, ডেভন কনওয়ে (উইকেটরক্ষক), লকি ফার্গুসন, টম ল্যাথাম (উইকেটরক্ষক), ড্যারিল মিচেল, অ্যাডাম মিলনে, জেমস নীশম, গ্লেন ফিলিপস, মিচেল স্যান্টনার, ঈশ সোধি, টিম সাউদী, ব্লেয়ার টিকনার।

Leave a comment

Your email address will not be published.