IND vs BAN: বাংলাদেশ ম্যাচে ভারতের জয় নিয়ে আবার বেফাঁস মন্তব্য শাহীদ আফ্রিদি’র, কড়া জবাবে মুখ বন্ধ করালেন রজার বিনি !! 1

গত ২রা নভেম্বর অ্যাডিলেডে মুখোমুখি হয়েছিলো ভারত এবং বাংলাদেশ। ম্যাচে ভারত জয়লাভ করে। ব্যাট–বলের লড়াই শেষ হলেও ম্যাচ নিয়ে কথার লড়াই থামার কোনো সম্ভাবনা দেখা যাচ্ছে না এখনও। ম্যাচে টস জিতে ভারত’কে ব্যাট করতে পাঠান বাংলাদেশ অধিনায়ক সাকিব আল হাসান। শুরুতে রোহিত শর্মা’কে হারালেও কে এল রাহুল এবং বিরাট কোহলি’র জোড়া অর্ধশতক এবং সূর্যকুমার যাদবের ঝোড়ো ১৬ বলে ৩০ রানের সুবাদে ভারত ২০ ওভারে তোলে ১৮৪ রান। জবাবে ব্যাট করতে নেমে লিটন দাসের সৌজন্যে দারুন শুরু করেছিলো’টাইগার্স’ দল। ৭ ওভারে যখন ৬৬ রানে কোনো উইকেট না হারিয়ে জয়ের দিকে এগোচ্ছে বাংলাদেশ তখন বৃষ্টি এসে সব হিসেব উলটে দেয়। বিরতির পর বাংলাদেশ ব্যাটার’রা আর ছন্দ খুঁজে পান নি। ১৬ ওভারে ১৫১’র নতুন লক্ষ্যমাত্রা পেরোতে পারে নি তারা, থেমে যান ৫ রান আগেই। তবে বিতর্ক সৃষ্টি হয় ম্যাচের পর বাংলাদেশের নুরুল হাসান ভারতের বিরাট কোহলি’র বিরুদ্ধে ‘ভুয়ো ফিল্ডিং’-এর অভিযোগ তোলায়। এর জন্য ৫ রান প্রাপ্য ছিলো তাঁদের বলে জানান নুরুল। পক্ষে-বিপক্ষে আলোচনা জমে ওঠে ক্রিকেটদুনিয়ায়। ভারতের বিরুদ্ধে অভিযোগ আর তাতে মন্তব্য করবেন না শাহীদ আফ্রিদি (Shahid Afridi), তা কখনও হয়? প্রত্যাশামতই আবার বেফাঁস মন্তব্য করে বিতর্ক বাড়িয়েছেন প্রাক্তন পাকিস্তানী অধিনায়ক।

আফ্রিদি’র তোপ ভারতের দিকে

Shahid Afridi | image: Twitter
Shahid Afridi has accused ICC of favouring India.

খেলার মাঠ হোক কি মাঠের বাইরে, সমস্যা সামাজিক, রাজনৈতিক যাই হোক না কেনো, ভারতের বিপক্ষে অভিযোগ তোলার সুযোগ পেলে ছাড়েন না পাকিস্তানের ‘বুম-বুম’ আফ্রিদি। এবারও তার ব্যতিক্রম হয় নি। ভারত আর ক্রিকেট নিয়ামক সংস্থা আইসিসি’র মধ্যে আঁতাত অব্দি খুঁজে পেয়েছেন আফ্রিদি। বৃষ্টির পরে ভিজে মাঠে ম্যাচ খেলা নিয়ে আপত্তি জানিয়েছে বাংলাদেশের কিছু সমাজমাধ্যম ব্যবহারকারী। সেখানেও ভারতের দোষ দেখছেন শাহীদ আফ্রিদি (Shahid Afridi)। তাঁর বক্তব্য, “আইসিসি যে কোনো মূল্যে ভারত’কে সেমিফাইনালে দেখতে চায়। বৃষ্টির পরে ভিজে মাঠেই ম্যাচ আয়োজন করা হলো। ভারত যখন খেলে তখন প্রচন্ড চাপে থাকে আইসিসি। অনেক সমীকরণ মাথায় রাখতে হয় তাদের। এমনিতে বাংলাদেশ খুব ভালো খেলেছে।” উল্লেখ্য যে সেদিন ম্যাচের দুই আম্পায়ার মারে ইরাসমাস ও ক্রিস ব্রাউন দুই অধিনায়কের সাথে কথা বলে খেলা চালানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন। তাই  আফ্রিদি’র এই ভারত ও আইসিসি জোটের অভিযোগ কতটা যুক্তিযুক্ত তা নিয়ে সংশয় থেকেই যায়।

যোগ্য জবাব দিয়ে চুপ করালেন বিনি

Roger Binny | image: Twitter
BCCI chief Roger Binny has given Afridi a befitting reply after the Pak superstar accused ICC of siding with Team India.

অক্টোবরে বিসিসিআই প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব নেওয়ার পর থেকেই রজার বিনি (Roger Binny) বুঝিয়ে দিয়েছেন তিনি সোজা ব্যাটে খেলতে এসেছেন। ঘরে-বাইরে কোনোরকম অদ্ভুত অভিযোগ যে তিনি বরদাস্ত করবেন না তা আবার বুঝিয়ে দিলেন আফ্রিদি’কে যোগ্য জবাব দিয়ে। ভারত’কে আইসিসি বাড়তি সুবিধা দেয়, শাহীদ আফ্রিদি সহ পাকিস্তান-বাংলাদেশের যারা এই অভিযোগ তুলছিলেন তাঁদের চুপ করিয়ে বিনি বলেন, “আইসিসি ভারত’কে বাড়তি সুবিধা দেয়, এই অভিযোগ সর্বৈব ভাবে মিথ্যা। সবাইকে এক চোখে দেখা হয়। বাকি দল’দের থেকে আমরা কোথায় আলাদা? আমরা আলাদা কারণ আমার ক্রিকেটের দুনিয়ায় এক বড় শক্তি। তা সত্ত্বেও আইসিসি’তে কোনো পক্ষপাত কারও সাথে করা হয় না।” কি জানিয়েছেন তিনি, দেখে নিন-

আগামী বছর পাকিস্তান সফর কি হচ্ছে?

Jay Shah | image: Twitter
“India will not go to Pakistan”, BCCI secretary Jay Shah

২০২৩ এশিয়া কাপ আয়োজন করতে চাইছে পাকিস্তান। রাজনৈতিক, সামাজিক নানা কারণে ভারতের পাকিস্তানে যাওয়ার সম্ভাবনা প্রায় নেই বললেই চলে। ইতিমধ্যে বিসিসিআই সচিব জয় শাহ(Jay Shah) জানিয়েছেন, “আমি ACC (Asian Cricket Council) সভাপতি হিসেবে জানাচ্ছি, পাকিস্তানে নয়, খেলা হবে কোনো নিরপেক্ষ মাঠে।ওরা(পাকিস্তান) আমাদের দেশে আসতে পারবে না। আমরাও পাকিস্তানে যেতে রাজী নই। এশিয়া কাপ এর আগেও নিরপেক্ষ মাঠে হয়েছে।” শুক্রবার এই নিয়ে প্রেসিডেন্ট রজার বিনি’কে প্রশ্ন করা হলে তিনি জানান, “এই বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেওয়ার এক্রিয়ার বিসিসিআই-এর নেই। কেন্দ্রীয় সরকার যা সিদ্ধান্ত নেবে তা মেনে চলবে দেশের ক্রিকেট বোর্ড।” কি বলেছেন বিনি, দেখুন এখানে-

বিশ্বকাপে ছন্দে রয়েছে ‘টিম ইন্ডিয়া’-

Team India | image: Gettyimages
Team India are one of the favourites to win the T-20 World Cup, 2022

মাঠের বাইরের যাবতীয় বিতর্কের আঁচ গায়ে লাগতে দিতে রাজী নন ভারতীয় খেলোয়াড়েরা। অস্ট্রেলিয়ায় কাপ জিততে মরিয়া রোহিত শর্মা অ্যান্ড কোং। সুপার টুয়েলভ পর্বে ভারত খেলছেও এখনও অব্দি বেশ ভালো। ৪ টি ম্যাচ খেলে জয় এসেছে ৩ টি তে। পরাজয় ১ টি। দক্ষিণ আফ্রিকার কাছে হারলেও, পাকিস্তান, নেদারল্যান্ডস, বাংলাদেশ’কে হারিয়ে ৬ পয়েন্ট নিয়ে ভারত এখন রয়েছে গ্রুপ-২ শীর্ষে। আগামী রবিবার জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে গ্রুপের শেষ খেলা’টি রয়েছে ভারতের। তার আগেই বলা যায় সেমিফাইনালে প্রায় চূড়ান্ত ‘মেন ইন ব্লু।’ এখন বাকি পথটুকু পেরিয়ে দেড় দশকের অপেক্ষা কাটিয়ে টি-২০ বিশ্বকাপ ভারতে ফিরে আসে কিনা সেদিকেই তাকিয়ে অগণিত ‘টিম ইন্ডিয়া’ ভক্ত।

Read More: “বিশ্বকাপে ব্যর্থ অনেকেই তবে দোষ সবাই দীনেশ কার্তিক কেই দিচ্ছে”, ডিকের সমর্থনে হাত বাড়ালেন হরভজন সিং !!

Leave a comment

Your email address will not be published.