‘আমি বুড়ো হচ্ছি আর ক্লান্ত’ ২ মাস আগে বিয়ে করা ৬৬ বছরের Arun Lal কেন বললেন এ কথা?

Arunl Lal: প্রাক্তন ভারতীয় ক্রিকেটার অরুণ লাল বাংলার রঞ্জি দলের (Bengal Cricket Team) পদ থেকে ইস্তফা দিয়ে দিয়েছেন। অরুণ লাল (Arun Lal) এর পেছনে হিসেবে নিজের স্বাস্থ্য এবং ব্যক্তিগত কারণ দেখিয়েছেন। প্রসঙ্গত, কিছুদিন আগেই অরুণলাল নিজের বিয়ের কারণে সংবাদপত্রের শিরোনামে উঠে এসেছিলেন। ৬৬ বছর বয়সী অরুণ লাল প্রায় ২ মাস আগে নিজের থেকে ২৮ বছরের ছোট বুলবুল সাহার সঙ্গে দ্বিতীয়বার বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হয়েছিলেন।

আবারও শিরোনামে উঠে এসেছেন বাংলার কোচ। তবে তার কারণ অন্য। মিডিয়া রিপোর্টসের কথা ধরা হলে অরুণলাল মঙ্গলবার সিএবি (CAB) সচিব স্নেহাশিস গাঙ্গুলীকে নিজের ইস্তফাপত্র দিয়েছেন। তবে, এখনও পর্যন্ত সিএসবির তরফে এই বিষয়ে কোনো অফিসিয়াল বয়ান জারি করা হয়নি। কিন্তু এই ব্যাপারে এখন এক প্রকার নিশ্চিত হয়ে গিয়েছে যে অরুণলাল আর বাংলার কোচ থাকবেন না।

Arun Lal ইস্তফা দেওয়ার পর বললেন এই কথা

Arun Lal

অরুণলাল মঙ্গলবার এই পুরো বিষয়ে মিডিয়ার সঙ্গে কথা বলতে গিয়ে নিজের বয়ান দিয়েছেন। তিনি বলেন, “আমি বুড়ো হচ্ছি, বছরে ৯ মাস ক্রিকেট খেলা হয় আর আমি ক্লান্ত। কোনো রাজ্য দলকে কোচিং করানো সহজ নয়। আমি শুধু ওদের বলেছি যে আমি এখন আর কন্টিনিউ করতে পারব না। বাংলা দলের ভবিষ্যত উজ্জ্বল। আমার এই ব্যাপারে সম্পূর্ণ ভরসা আছে ওরা রঞ্জি খেতাব জিতবে”।

বিয়ের পর ট্রোলিংয়ের শিকার হন অরুণ লাল

Arun lal

প্রসঙ্গত, প্রাক্তন ভারতীয় ক্রিকেটার অরুণলাল ৩৮ বছর বয়সী বুলবুল সাহার সঙ্গে দীর্ঘদিন ধরেই সম্পর্ক রেখে চলেছিলেন। অরুণলালের প্রথম বয়ে হয় রীনা লালের সঙ্গে, কিন্তু মাস দুয়েক আগে রীনার কাছ থেকে অনুমতি নিয়েই অরুণ লাল দ্বিতীয়বার বুলবুলের সঙ্গে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হন। এই বিয়ের পর বাংলার কোচকে সোশ্যাল মিডিয়ায় জমিয়ে ট্রোলিংয়ের শিকারও হতে হয়েছিল।

Leave a comment

Your email address will not be published.