ENG vs IND: ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে প্রথমে সেঞ্চুরি পরে আইপিএল বির্তকে এই চমকে দেওয়ার মতো বয়ান দিলেন রবীন্দ্র জাদেজা

এই মুহূর্তে ভারতীয় দল ইংল্যান্ডের (IND vs ENG) বিরুদ্ধে গত বছরের বাকি থাকা একমাত্র টেস্ট খেলছে। এই টেস্টে ভারতীয় দল (Team India) বর্তমানে চালকের আসনে। প্রথম দুদিনের খেলায় রীতিমতো কর্তৃত্ব করে ভারতীয় দল। প্রথমে ব্যাট করতে নেমে ভারতীয় দল উইকেটকিপার ঋষভ পন্থ (Rishabh Pant) আর অলরাউন্ডার রবীন্দ্র জাদেজার (Ravindra Jadeja) সেঞ্চুরির সুবাদে পাহাড়প্রমাণ রানের শিখরে চড়ে বসে। এরপর ভারতীয় বোলাররা ইংল্যান্ডকে নাচিয়ে একেবারে ব্যাকফুটে ঠেলে দেয়।

এই টেস্টে দ্বিতীয় সেঞ্চুরিকারী রবীন্দ্র জাদেজার জন্য বছরটা এতদিন ভাল যাচ্ছিল না। আইপিএল (IPL) ২০২২ এ চেন্নাইয়ের (CSK) নেতৃত্ব পাওয়া দিয়ে দারুণ শুরু করলেও অচিরেই নেতৃত্বই জাদেজার গলার ফাঁস হয়ে যায়। এমনকী নেতৃত্বের বোঝা চেপে বসে তার ব্যাটেও। আইপিএলে জাদেজার ব্যাট একদমই নীরব হয়ে যায়। তার উপর গোঁদের উপর বিষফোঁড়ার মতো লাগে চোটও। যে কারণে প্রথমে দক্ষিণ আফ্রিকা পরে আয়ারল্যান্ডের বিরুদ্ধে সিরিজেও দল থেকে ছিটকে যান তিনি। যদিও ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে চোট সারিয়ে দলে ফেরেন এই তারকা অলরাউন্ডার। সেই সঙ্গে ফেরেন ফর্মেও।

সেঞ্চুরির পর আইপিএল নিয়ে বড় প্রতিক্রিয়া দিলেন জাদেজা

ENG vs IND: ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে প্রথমে সেঞ্চুরি পরে আইপিএল বির্তকে এই চমকে দেওয়ার মতো বয়ান দিলেন রবীন্দ্র জাদেজা 1

আইপিএলের খারাপ প্রদর্শন আর চোট পেছনে ফেলে নতুন জার্সি আর নতুন ফর্ম্যাটে জাদেজা পুরনো রূপেই ফিরে আসেন। এজবাস্টনে খেলা হওয়া শেষ টেস্টের প্রথম ইনিংসে রবীন্দ্র জাদেজা ব্যাট হাতে দুরন্ত ১০৪ রানের ইনিংস খেলেন। সেই সঙ্গে স্বস্তি দেন দলকেও। সেঞ্চুরি করে স্বস্তির নিশ্বাস ফেলা জাদেজা আইপিএলে হওয়া ভুলভ্রান্তিকেও দূর করে বলেন,

“যা হওয়ার হয়েছে। আইপিএল আমার মাথায় ছিল না। যখনই আপনি ভারতীয় দলের হয়ে খেলেন, তখন আপনার সম্পূর্ণ মনোযোগ ভারতীয় দলের জয়ের দিকেই থাকা উচিৎ। আমারও তাই ছিল। ভারতের হয়ে ভাল প্রদর্শন করার মতো সন্তুষ্টি আর কিছুতেই নেই”।

ইংল্যান্ডে সেঞ্চুরি করা বিশেষভাবে ভাল লাগে

ENG vs IND: ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে প্রথমে সেঞ্চুরি পরে আইপিএল বির্তকে এই চমকে দেওয়ার মতো বয়ান দিলেন রবীন্দ্র জাদেজা 2

ভারতীয় দল ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে একমাত্র টেস্টে প্রথমে ব্যাট করতে নেমে ঋষভ পন্থের ১৪৬ রান আর জাদেজার ১০৪ রানের সেঞ্চুরির সুবাদে প্রথম ইনিংসে ৪১৬ রান করে। জাদেজা আর ঋষভ যখন ব্যাট করতে নামেন সেই সময় ভারতীয় দল কিছুটা ব্যাকফুটেই ছিল। সেই সময় মাত্র ১০০ রানে ভারতীয় দল নিজেদের ৫ উইকেট হারিয়ে ফেলেছিল। কিন্তু ঋষভ আর জাদেজা দলকে এগিয়ে নিয়ে গিয়ে ২২২ রানের রেকর্ড পার্টনারশিপ গড়েন। রবীন্দ্র জাদেজা সেঞ্চুরির পর আরও বলেন,

“ভারতের বাইরে সেঞ্চুরি করা সত্যিই আনন্দের। বিশেষ করে ইংল্যান্ডে। একজন খেলোয়াড় হিসেবে ১০০ রান করা সত্যিই অনেক বড় ব্যাপার। আমি বাস্তবে একজন খেলোয়াড় হিসেবে নিজের কাছ থেকেই কিছুটা আত্মবিশ্বাস পেতে পারি। ইংল্যান্ডে, বিশেষ করে বল সুইং হওয়ার পরিস্থিতিতে ১০০ রান করে ভাল লাগছে”।

Leave a comment

Your email address will not be published.