যজুবেন্দ্র চহেল হলেন এমএস ধোনি, DRS নিয়ে নিলেন সঠিক সিদ্ধান্ত 1

ডিআরএস অর্থাৎ ডিসিশন রিভিউ সিস্টেম…। এই সিদ্ধান্তের যে কোনো অধিনায়ক বা দলের হয়ে মাঠে সুযোগ এতটাও সহজ হয়না। এই সিদ্ধান্ত নেওয়ার জন্য অনেক ভাবনা চিন্তা আর ক্রিকেটের বোধ থাকা ভীষণই জরুরী হয়। তাই কোনো অধিনায়ক নিজের বোলার আর উইকেটকিপারকে জিজ্ঞাসা করেই ডিআরএসের প্রয়োগ করেন।

ডিআরসের সিদ্ধান্ত কোনো অধিনায়কের জন্যই সহজ হয় না

যজুবেন্দ্র চহেল হলেন এমএস ধোনি, DRS নিয়ে নিলেন সঠিক সিদ্ধান্ত 2

যদিও ভারতীয় ক্রিকেট দলে যখনই কখনো ডিআরএসের সমস্যা সামনে আসে তখন একটাই নাম সকলের মনে আসে, তিনি হলে প্রাক্তন অধিনায়ক আর উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান মহেন্দ্র সিং ধোনি… কিন্তু মহেন্দ্র সিং ধোনি গত বেশকিছু ম্যাচে খেলছেন না। যতদিন ধোনি মাঠে ছিলেন তো ভারতীয় ক্রিকেট দলের অধিনাওক বিরাট কোহলিকে ডিআরএসের ব্যাপারে বেশি মাথা ঘামাতে হয়নি। কিন্তু ধোনির অনুপস্থিতিতে বিরাট কোহলির ডিআরএসের ব্যাপারে একটু বেশিই সমস্যা হচ্ছে।

ডিআরএস নিয়ে যজুবেন্দ্র চহেল পালন করলেন নিজের ভূমিকা

যজুবেন্দ্র চহেল হলেন এমএস ধোনি, DRS নিয়ে নিলেন সঠিক সিদ্ধান্ত 3

কিন্তু নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে খেলা চলা তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজের অকল্যান্ডে খেলা হওয়া দ্বিতীয় ম্যাচে বিরাত কোহলির হয়ে মহেন্দ্র সিং ধোনির অনুপস্থিতিতে ডিআরএসের ব্যাপারে সঠিক সিদ্ধান্ত নেওয়ার কাজ স্পিন বোলার যজুবেন্দ্র চহেল নেন আর এতে ভারত নিজের ডিআরএস বাঁচাতে সফল হয়। নিউজিল্যান্ডের ব্যাটিং চলাকালীন যখন শার্দূল ঠাকুরের বল মার্টিন গুপ্তিলের প্যাডে লাগে তো প্রবল আবেদন হয়। এই আবেদন অ্যাম্পায়ার ব্রসু অক্সনফোর্ড নাচক করে দেন আর ভারতীয় দল ডিআরএস নেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়ার জন্য জড়ো হয়।

চহেল নিলেন সঠিক সিদ্ধান্ত, সোশ্যাল মিডিয়ায় হচ্ছে প্রশংসা

যজুবেন্দ্র চহেল হলেন এমএস ধোনি, DRS নিয়ে নিলেন সঠিক সিদ্ধান্ত 4

এখানে উইকেটকিপার কেএল রাহুল নিশ্চিত ছিলেন না যে বল প্রথমে ব্যাটে লাগার পর প্যাডে লাগে কি না, তো অন্যদিকে বোলার শার্দূল ঠাকুরও নিশ্চিত ছিলেন না। এই অবস্থায় স্পিনার যজুবেন্দ্র চহেল জানান যে বল মার্টিন গুপ্তিলের ব্যাটে আগে বল লাগে তারপর প্যাডে লাগে। এরপর ভারত ডিআরএস না নেওয়ার সিদ্ধান্ত নেয় আর রিপ্লেতে দেখা যায় যে চহেলের সিদ্ধান্ত একদমই সঠিক ছিল।

suvendu debnath

কবি, সাংবাদিক এবং গদ্যকার। শচীন তেন্ডুলকর, ব্রায়ান লারার অন্ধ ভক্ত। ক্রিকেটের...

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *