একদিনের আন্তর্জাতিক বিরাট কোহলির গড় ৭২৬! এর পিছনে কারণ কি ? 1

একদিনের আন্তর্জাতিক বিরাট কোহলির গড় ৭২৬! এর পিছনে কারণ কি ? 2

ব্যাট হাতে ভারতীয় অধিনায়ক একক আধিপত্যে শাসন করে যাচ্ছেন। গত ২০১৬ সাল হতে ভারতপতি ব্যাট হাতে যা করে চলেছেন তা এক কথা অবিশ্বাস্য, অবাস্তব! রান তাড়া করার ক্ষেত্র বর্তমান ক্রিকেটে তিনি অদ্বিতীয়, তার সমকক্ষ কেউ নেই। তার অনবদ্য ব্যাটিং শৈলীর আরেকটি প্রদর্শনী হল শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে ওয়ানডে সিরিজের প্রথম ম্যাচে। রান তাড়া করতে নেমে খেলেন ৮২ রানের অপরাজিত এক ইনিংস খেলে সর্ব কালের সেরাদের এক তালিকায়। কোহলী হচ্ছেন বিশ্বের তৃতীয় ব্যাটসম্যান যিনি রান তাড়া করতে নেমে চার হাজার রান করেছেন কেবল ওয়ানডে ক্রিকেটে ই। তার অগ্রজ হিসেবে এ তালিকায় আছেন সাবেক অজি অধিনায়ক রিকি পন্টিং এবং তার ই স্বদেশী ব্যাটিং জিনিয়াস শচিন টেন্ডুলকার। কিন্তু ভারতীয় অধিনায়ক কোহলী কোথায় থামবেন তা তিনিই জানেন।

এক মৌসুমে ওয়ানডে ক্রিকেটে আরেকটি মাইলফলকের দ্বার প্রান্তে এখন বিরাট কোহলি। চলতি বছর ওয়ানডে ক্রিকেটে সবচেয়ে বেশি রান করার তালিকায় তৃতীয়স্থানে উঠে এসেছেন সময়ের এই ভয়ঙ্করতম ব্যাটসম্যান। আর মাত্র ১৭ রান করলে জো রুট এবং ৪৬ রান করলে ডু প্লেসিসকে ছাড়িয়ে যাবেন তিনি। সিরিজের বাকী চার ম্যাচে ভারত অধিনায়কের জন্য এটা নিশ্চয়ই কঠিন হবে না। ১৬ ম্যাচে ৮১৪ রান নিয়ে তালিকার শীর্ষে রয়েছেন দক্ষিণ আফ্রিকার ডান-হাতি ব্যাটসম্যান ফাফ ডু-প্লেসিস। ২ ম্যাচ কম খেলে ৭৮৫ রান নিয়ে তালিকার দ্বিতীয়স্থানে ইংল্যান্ডের টেস্ট অধিনায়ক জো রুট। ডু-প্লেসিসের গড় ৫৮.১৪। আর রুটের গড় ৭১.৩৬। ডাম্বুলায় শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে সিরিজের প্রথম ম্যাচে অপরাজিত ৮২ রান করায় চলতি বছর ১৪ ম্যাচে ৯৬.১২ গড়ে কোহলির রান ৭২৬। সাত ইনিংসের ছয়টিতেই অপরাজিত ছিলেন বলে গড়টাকে এত অবিশ্বাস্য দেখাচ্ছে।

শুধু এ বছরের হিসাব না ধরে যদি পুরো ক্যারিয়ারটাও দেখা হয়, সেখানেও প্রমাণ মিলবে ভারতের রান তাড়া করে জয়ে কোহলির অবদান। ১৯০ ওয়ানডের ক্যারিয়ারে কোহলি ৫৫.২২ গড়ে ৮৩৩৯ রান করেছেন। ভারত রান তাড়া করে জিতেছে, এমন ম্যাচে কোহলি ১০০.০২ গড়ে করেছেন ৪০০১ রান। ক্যারিয়ারের অর্ধেক রানই এনে দিয়েছেন ভারতের রান তাড়া করে জেতা ম্যাচে। যখন তাঁর গড়ও হয়ে গেছে দ্বিগুণ! রান তাড়া করে জেতা ম্যাচে রানের পরিসংখ্যানে কোহলির ওপরে শুধু আছেন শচীন টেন্ডুলকার (১২৭ ম্যাচে ৫৪৯০ রান) ও রিকি পন্টিং (১১১ ম্যাচে ৪১৮৬)। ক্যারিয়ারের ২৮টি সেঞ্চুরির ১৬টিই কোহলি করেছেন রান তাড়া করে জেতা ম্যাচে। এই পরিসংখ্যানে অবশ্য টেন্ডুলকারকে (১৪) টপকে গেছেন ভারতীয় অধিনায়ক। রানের রেকর্ডটিও যে কোহলি ভবিষ্যতে নিজের করে নেবেন, তাতে আর সন্দেহ কী! ক্যারিয়ারের প্রায় অর্ধেক তাঁর পড়েই আছে।

গত ১২ মাসে ভারত রান তাড়া করে জিতেছে, এমন ম্যাচে কোহলির সাতটি ইনিংস দেখুন:

৮৫* (বনাম নিউজিল্যান্ড)

১৫৪* (বনাম নিউজিল্যান্ড)

১২২ (বনাম ইংল্যান্ড),

৭৬* (বনাম দক্ষিণ আফ্রিকা),

৯৬* (বনাম বাংলাদেশ),

১১১* (বনাম ওয়েস্ট ইন্ডিজ) এবং

৮২* (বনাম শ্রীলঙ্কা)।

 

Nazmus Sajid

Sports Fanatic!

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *