বিশ্রামে বিরাট কোহলি, তার জায়গায় নেতৃত্ব দেবেন এই খেলোয়াড় 1

বিশ্রামে বিরাট কোহলি, তার জায়গায় নেতৃত্ব দেবেন এই খেলোয়াড় 2

শ্রীলংকার সাথে পাঁচ ম্যাচের ওয়ান ডে এবং দুই ম্যাচের টি-টুয়েন্টি সিরিজের জন্য দল ঘোষনার জন্য ভারতীয় নির্বাচকমণ্ডলী আরো দুই দিন সময় পাবেন। তাদের সীমিত ওভারে এই ম্যাচ গুলোতে ভিরাট কোহলীকে বিশ্রাম দেওয়া উচিত। যদি তারা এখনো এমন কিছু না ভেবে থাকেন তবে এটি চিন্তা করা দরকার। কারন গত বছরের জুলাইতে ভারতের চার ম্যাচের টেস্ট সিরিজ সফর হতে শুরু করে শ্রীলঙ্কার সাথে দ্বিতীয় টেস্ট ম্যাচ পর্যন্ত ভারতে খেলা ৪৩ টি আন্তর্জাতিক ম্যাচের ৪২ টিতে ই ভারত তাদের অধিনায়ক ভিরাট কোহলীকে খেলিয়েছে, কেবল অস্ট্রিলিয়ার সাথে ধর্মশালায় কাধের আঘাতের কারনে একটি টেস্ট খেলতে পারেন নি।

গত বারো মাসে তিন ফরমেটে কোহলী ৪২ ম্যাচ খেলেছেন, এ সময়ে কোহলির চেয়ে বেশি ম্যাচ খেলেছেন কেবল শ্রীলংকান কুসল ম্যান্ডিস ৪৬ ম্যাচ। কিন্তু কুসল ম্যান্ডিস এর মধ্যে খেলেছেন ১৩ টি টেস্ট আর ভিরাট কোহলী খেলেছেন ১৮ টি টেস্ট। এর বাহিরে তিনি আবার আইপিলের দশম আসরে রয়েল চ্যালেঞ্জার ব্যাঙ্গালুরের হয়ে খেলেছেন ১০ ম্যাচ।

বিশ্রামে বিরাট কোহলি, তার জায়গায় নেতৃত্ব দেবেন এই খেলোয়াড় 3 বিশ্রামে বিরাট কোহলি, তার জায়গায় নেতৃত্ব দেবেন এই খেলোয়াড় 4

এখন ই কোহলী কে বিশ্রাম দেওয়ার সঠিক সময় কারন এরপরও ভারত ব্যস্ত সময় পার করবে, জানুয়ারিতে দক্ষিণ আফ্রিকার সাথে খেলার আগে ই তারা সেপ্টেম্বর থেকে ডিসেম্বরের ভিতর তিন টি টেস্ট, তেরটি ওয়ানডে এবং এগারোটি টি-টুয়েন্টি ম্যাচ খেলবে। অস্ট্রেলিয়ার মত দলগুলো যখন ভারত সফর করবে তখন যে কোন ফরম্যাটের ক্রিকেটে ই কোহলীকে বিশ্রাম দেওয়ার কথা ভাবা যায় না। তাই শ্রীলংকান এই দলটি যারা সরাসরি বিশ্বকাপে খেলার জন্য সংগ্রাম করছে তাদের সাথে ই কোহলীকে বিশ্রাম দেওয়া সঠিক এবং সেরা সিদ্ধান্ত হবে ভারতীয় নির্বাচকমণ্ডলীর জন্য। যদি তারা কোহলীকে বিশ্রাম দেওয়ার কথা ভাবে তাহলে ভারত একজন নতুন অধিনায়ক খুজত হবে। এজন্য অজিঙ্কা রায়হানে,যে এর আগেও তিনটি ওয়ানডে ম্যাচ ভারতের সহঅধিনায়ক হওয়ার জন্য অসাধারন।

এর আগে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে টেস্টে সিরিজের শেষ টেস্টে খেলেননি তিনি। রাঁচির তৃতীয় টেস্টে সীমানায় ফিল্ডিং করতে গিয়ে কাঁধে চোট পান কোহলি। ধর্মশালা টেস্টের আগে তার সুস্থ্য হয়ে ওঠার সম্ভাবনা ছিল। কিন্তু ম্যাচের আগ মুহূর্ত পর্যন্ত অপেক্ষা করেও কোহলি শতভাগ ফিট হননি। এতে তাকে ছাড়াই সিরিজ নির্ধারনী ম্যাচে মাঠে নামে ভারত। টানা ৫৪ ম্যাচ পর টেস্ট  ম্যাচ মিস করেন কোহলি। ওই টেস্ট এর আগে সর্বশেষ তিনি টেস্ট মিস করেন ২০১১ সালের  নভেম্বরে। ওই ঘটনার আগে তিনি ভারতের হয়ে খেলেন মাত্র তিন টেস্ট। সে বছর জুনে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে অভিষেক হয় তার। মহেন্দ্র সিং ধোনির পর ২০১৪ সালে ভারতের টেস্ট দলের নেতৃত্ব পান কোহলি। ধর্মশালা টেস্টে আগে তিনি টানা  ২৬ ম্যাচ ভারতের হয়ে টস করতে নামেন তিনি। কোহলির অনুপস্থিতিতে ভারতের নেতৃত্ব দিয়েছিলেন আজিঙ্কা  রাহানে। তিনি কোহলির সহকারী হন। আর রাঁচি টেস্টে কোহলির ইনজুরির কারণে ম্যাচের বাকি অংশ নেতৃত্ব দেন তিনি।

Nazmus Sajid

Sports Fanatic!

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *