সাফল্যের শিখরে উঠবে বিরাটের দল, বললেন ধোনি 1

মুম্বই, ১৩ জানুয়ারি: নতুন বছরের শুরুতেই ক্রিকেটের সীমিত ফর্ম্যাটে ভারতীয় দলের নেতৃত্ব ছেড়েছেন মহেন্দ্র সিং ধোনি। এরপর থেকেই নানা আলোচনা শুরু হয়ে যায়। প্রশ্ন উঠতে শুরু করে, এমন কী হল যে ধোনি নেতৃত্ব ছেড়ে দেওয়ার ঘোষণা করে দিলেন? শুক্রবার এই বিষয়ে মুখ খুললেন প্রাক্তন ভারত অধিনায়ক। তিনি সটান বলে দেন, “আমি বিসিসিআইকে বলে দিয়েছি যে তিন ফর্ম্যাটে একজনকেই অধিনায়ক রাখা উচিত।” এরই সঙ্গে তিনি আরও যোগ করেন, “দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে হোম সিরিজের পরই অধিনায়কত্ব ছাড়ার ভাবনা ঘোরাফেরা করছিল। তবে কোহলি টেস্টের দায়িত্ব নেওয়ার পর থেকেই এই ভাবনা আরও জোরদার হয়। বিশ্বকাপের আগে কোহলিকে সময় দিতে চেয়েছিলাম। সেই জন্যই এই সময়েই নেতৃত্ব ছাড়ার সিদ্ধান্ত নিয়ে নিলাম।”

মাহির এমন মন্তব্যের পর এটা অবশ্য বোঝাই যাচ্ছে, টেস্ট ছাড়ার পর মাত্র একটি ফর্ম্যাটে আর ভারতকে নেতৃত্ব দিতে চান না তিনি। এক কথায় দুই অধিনায়ক তত্ত্বে আপত্তি রয়েছে তাঁর। তবে এর সঙ্গে আরও ব্যাখ্যাও রয়েছে ধোনির। তিনি যোগ করেন, “আমাদের এখানে ভাগ করে অধিনায়ক হওয়াটা বেশি কাজে লাগে না। কোহলি যখন টেস্টে দলের ভার নেয় তখন থেকেই বিষয়টি আমার মাথায় ছিল। তাই আমি চেয়েছি যে কিছুটা সময় গেলে কোহলিকেই পুরো দায়িত্ব ‍বুঝিয়ে দেব। তবে একজন উইকেটরক্ষক সবসময় দলের সহ অধিনায়কের দায়িত্ব পালন করেন। আমার কাজ হল অধিনায়ক কোহলিকে সাহায্য করা। আমার যতটা সম্ভব বিরাটকে সাহায্য করব।”

কোহলিকে দায়িত্ব বুঝিয়ে দেওয়ার সঙ্গে সঙ্গে তাঁর নেতৃত্বের ওপরেও নিজের আস্থা রেখেছেন ধোনি। অধিনায়কত্ব ছাড়ার পর শুক্রবার প্রথমবারের মতো মিডিয়ার মুখোমুখি হয়ে এই বিষয়ে তিনি আরও বলেন, “যদি সংখ্যার কথা বিবেচনা করা হয় তাহলে কোহলির দল আরও বেশি ম্যাচ জিতবে। আমার মনে হয় ওর দলটাই সবচেয়ে সফল দল হবে একটা সময়। সাফল্যের শিখরে উঠবে বিরাটের টিম।”

সংক্ষিপ্ত ফর্ম্যাটে নেতৃত্ব ছাড়লেও তা নিয়ে কোন আক্ষেপ নেই ধোনির। প্রাক্তন ভারত অধিনায়ক সেটা বুঝিয়ে দিয়ে বলেন, “জীবনে আমি কখনও আক্ষেপ করি না। আমি জীবনে ভাল সময়ের সঙ্গে সঙ্গে খারাপ সময়ের মধ্য দিয়েও গিয়েছি। এটা হল একটা সফরের মতো। আমি এটা উপভোগ করেছি। আমি খেলাটাকে আগামী দিনেও উপভোগ করতে চাই।”

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *