টি -২০ বিশ্বকাপের আগে বড় ধাক্কা ভারতের, হাঁটুর তীব্র ব্যথায় জর্জরিত এই ক্রিকেটার 1

 

 

বরুণ চক্রবর্তী ২০২১ টি -২০ বিশ্বকাপে ভারতের জন্য গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করতে পারেন। কিন্তু তার আগেই বড় ধাক্কা। বরুণ চক্রবর্তীর হাঁটুর চোট নিয়ে চিন্তায় বিসিসিআই। টিম ইন্ডিয়ার ম্যানেজমেন্টের মাথাব্যথা বেড়েছে। বরুণ চক্রবর্তীর হাঁটুর অবস্থা খুবই খারাপ। এমন পরিস্থিতিতে বিসিসিআই -এর মেডিকেল টিম তাকে সুস্থ করার জন্য দিনরাত এক করে দিচ্ছে। যদিও ১০ অক্টোবর টি -২০ বিশ্বকাপের দল পরিবর্তনের শেষ তারিখ। বরুণের অসহনীয় ব্যথা না সাড়া পর্যন্ত দল ছাড়ার সম্ভাবনা নেই।

টি -২০ বিশ্বকাপের আগে বড় ধাক্কা ভারতের, হাঁটুর তীব্র ব্যথায় জর্জরিত এই ক্রিকেটার 2

ভারতীয় দল চায় যে সে পুরোপুরি ফিট হোক এবং আগামী ২৪ অক্টোবর পাকিস্তানের বিপক্ষে ম্যাচের আগে ফিট হয়ে যাক বরুণ। এছাড়াও টিম ম্যানেজমেন্ট চায় বরুণের কাজের চাপ যেন না নেওয়া হয়। বিষয়টি নিয়ে বিসিসিআইয়ের একটি সূত্র উদ্ধৃত করে পিটিআই লিখেছে, ‘বরুণের হাঁটুর অবস্থা ভালো নয়। তিনি ব্যথার মধ্যে আছেন এবং টি -২০ বিশ্বকাপ না হলে ভারতীয় টিম ম্যানেজমেন্ট তাকে হারানোর ঝুঁকি নিতে পারত না। পরে ১০০ শতাংশ ফিট হওয়ার জন্য তার একটি পূর্ণাঙ্গ রিহ্যাবের প্রয়োজন হবে। কিন্তু টি -২০ বিশ্বকাপের সময় তার যন্ত্রণা মোকাবিলার দিকেই মনোযোগ দেওয়া হচ্ছে।”

টি -২০ বিশ্বকাপের আগে বড় ধাক্কা ভারতের, হাঁটুর তীব্র ব্যথায় জর্জরিত এই ক্রিকেটার 3

বরুণ চক্রবর্তী বর্তমানে আইপিএল ২০২১ -এ কলকাতা নাইট রাইডার্সের হয়ে খেলছেন। টুর্নামেন্টে তার পারফরম্যান্স ভালো ছিল। তিনি ১৩ ম্যাচে ৬.৭৩ ইকোনমি নিয়ে ১৫ উইকেট নিয়েছেন। এই সময়ে, অনেক বড় দলের বিপক্ষে তার পারফরম্যান্স দুর্দান্ত ছিল। বরুণের ব্যাপারে কলকাতা নাইট রাইডার্সের মেডিকেল টিম বিসিসিআই -এর সঙ্গে ক্রমাগত যোগাযোগ রাখছে। একজন উর্ধ্বতন কর্মকর্তা বলেন, “যতদূর আমি জানি, কেকেআরের সাপোর্ট স্টাফ বরুণের শক্তি এবং কন্ডিশনিংয়ের জন্য একটি বিস্তারিত চার্ট তৈরি করেছেন।”

টি -২০ বিশ্বকাপের আগে বড় ধাক্কা ভারতের, হাঁটুর তীব্র ব্যথায় জর্জরিত এই ক্রিকেটার 4

তিনি আরও বলেন, “এটি চোট পুনরুদ্ধারের কর্মসূচির অংশ। তাকে ব্যথা উপশমকারী ইনজেকশনও দেওয়া হচ্ছে যাতে সে কোন সমস্যা ছাড়াই চার ওভার বল করতে পারে। ইনজেকশনের কারণে নির্দিষ্ট সময় কোন ব্যথা হয় না। আপনি টিভিতে এটি দেখতে পাবেন না। যখন সে বোলিং করছে না তখন সে ব্যথা পায়।” সেই সঙ্গে বরুণ চক্রবর্তীকে ফিল্ডিংয়ের সময় ডাইভ না দেওয়ার জন্য বলা হয়েছে।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *