এক বছর পর দুরন্ত ক্যামব্যাক চিন্না থালার, সুরেশ রায়নার হাফ সেঞ্চুরি 1

 

 

চেন্নাই সুপার কিংস এবং দিল্লি ক্যাপিটালসের মধ্যে মুম্বইয়ের ওয়াংখেড়ে স্টেডিয়ামে চলছে আইপিএল এর লড়াই। এই ম্যাচে দিল্লির অধিনায়ক ঋষভ পন্থ টস জিতে প্রথমে বোলিংয়ের সিদ্ধান্ত নেন, চেন্নাইকে ব্যাট করতে পাঠান। চেন্নাই দল খারাপ ভাবে শুরু করে এবং তাদের উভয় ওপেনার ঋতুরাজ গায়কোওয়াড এবং ফাফ দ্যু প্লেসিসের উইকেট মাত্র ৭ রানের মাথায় হারিয়েছে। এখান থেকে দলকে পরিচালনা করেন সিনিয়র ব্যাটসম্যান সুরেশ রায়না, যিনি পুরো এক বছরের ব্যবধানে আইপিএলে প্রথম ম্যাচ খেললেন। তিনি দলকে কেবল কঠিন পরিস্থিতি থেকে বের করে এনেছেন তা নয়, এমন একটি জায়গায় নিয়ে এসেছেন যেখানে দল দিল্লিকে ভাল রান টার্গেট দিতে পারে।

এক বছর পর দুরন্ত ক্যামব্যাক চিন্না থালার, সুরেশ রায়নার হাফ সেঞ্চুরি 2

এক বছর পর রায়না ফিরে ওসে নিজের ইনিংসে ৩৬ বলে ৫৪ রান করেছেন। এই ইনিংসে তিনি তিনটি চার এবং চারটি ছক্কা হাঁকিয়েছেন। তৃতীয় উইকেটে মইন আলির সাথে ৫৩ রানের দুর্দান্ত পার্টনারশিপ এবং চতুর্থ উইকেটে অম্বাতি রায়ডুর সঙ্গে ৬৩ রানের পার্টনারশিপ যোগ করেছেন। শেষ মুহুর্তে স্যাম করণ এবং রবীন্দ্র জাদেজার সৌজন্যে চেন্নাই দিল্লির সামনে ১৮৯ রানের লক্ষ্য রেখেছে।

যদি রায়না এই ফর্মটি বজায় রাখে তবে এই মরসুমে ভালো ফল করার চেন্নাইয়ের দুর্দান্ত সুযোগও রয়েছে। এই ম্যাচে দিল্লি ক্যাপিটালসের পক্ষে পেস বোলার ক্রিস ওকোস এবং আবেশ খান ভালো বোলিং করেছেন, দুই জনেই দুটি করে উইকেট নিয়েছেন। এই ম্যাচে স্পিনার আর অশ্বিন খুব ব্যয়বহুল প্রমাণিত হয়েছেন। তিনি তার চার ওভারে ৪৭ রান দিয়েছিলেন এবং কেবল একটি উইকেট নিতে সক্ষম হন।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *