ঘুর পথে কার্যত রবীন্দ্র জাদেজার কাছে ক্ষমা চেয়ে নিলেন সন্জয় মান্জেরেকর ! 1

মন্তব্যের পর থেকেই তীব্র সমালোচনার মধ্যে ছিলেন, যদিও নিজের মন্তব্যে অনড় ছিলেন সন্জয় মান্জেরেকর।জাদেজাকে তিনি ” বিটস এ্যন্ড পিসেস ” অভিধায় অভিহিত করেছিলেন।শুধুমাত্র তাই নয় সেমিফাইনালে তিনি জাদেজার বদলে দলে কেদার যাদবকে দেখতে চাইবেন সেই সময় এমনটাই জানিয়েছিলেন তিনি।এরপর গতকাল ম‍্যাচের পর কার্যত ঘুরপথে রবীন্দ্র জাদেজার কাছে ক্ষমা চেয়ে নিলেন এই ভারতীয় ধারাভাষ্যকার।

সেমিফাইনালে যখন নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে ম‍্যাচে ২৪০ রান চেজ করতে গিয়ে ৩১ তম ওভারে হার্দিক পান্ডিয়া যখন ৩২ রানে আউট হয়ে ফিরছেন তখন ভারতের স্কোর খুব শোচনীয়।ক্রিজে ধোনির সাথে যখন জাদেজা যোগদান করলেন তখন ভারতের স্কোর ৯২ – ৬ ।এর পরবর্তী সময়ে জাদেজার একের পর এক দুরন্ত সব শট ম‍্যাচে আশা জাগিয়ে তুলছিলো ভারতের।২০১১ এর পর ফের আরেকবার ফাইনাল যাওয়ার আশায় বুক বাধছিলো গোটা দেশ।

রবীন্দ্র জাদেজার কাছে সঞ্জয় মঞ্জরেকর চাইলেন ক্ষমা, দুর্দান্ত ইনিংসের পর বললেন এই কথা

একদিকে যখন ক্রিজে এঁটে ছিলেন ধোনি, তেমনই অন‍্যদিকে একের পর এক বাউন্ডারি- ওভার বাউন্ডারি মেরে কিউয়ি বোলারদের উপর চাপ তৈরি করা শুরু করেছিলেন জাদেজা।এদিন কিউয়ি স্পিনার মিচেল স‍্যান্টনার কে স্টেপ আউটে উড়িয়ে দিয়েছিলেন ” স‍্যার জাদেজা ” ।

এদিন হেরে গেলেও জাদেজা’ র ৭৭ রানের ইনিংস মনে গেঁথে আছে সকলের।শুধু মাত্র নয়,দুরন্ত রান – আউট এবং ক‍্যাচ নিয়ে ম‍্যাচে ফিরিয়ে ছিলেন তিনি দলকে।এদিন ৫০ এর কমেন্ট্রি বক্সে মান্জেরেকরের উদ্দেশ্যে ” ট্রেডমার্ক ” সেলিব্রেশন করেন জাড্ডু।ফিরিয়ে দিলেন তার সমালোচনার জবাব।

ঘুর পথে কার্যত রবীন্দ্র জাদেজার কাছে ক্ষমা চেয়ে নিলেন সন্জয় মান্জেরেকর ! 2

জাদেজাকে কখনওই চলতি বিশ্বকাপে ভারতীয় ক্রিকেট দলে প্রথম একাদশে দেখতে চাইবেন না ।জাদেজা কে ” বিটস এ্যন্ড পিসেস ” ক্রিকেটার মনে করেন সন্জয় মান্জেরেকর। একদিকে যখন জাদেজার অলরাউন্ড খেলার দক্ষতার বিষয়টিকে সামনে রেখে তাকে প্রথম একাদশে সুযোগ দেওয়ার দাবি উঠেছিল, ঠিক সেই সময় সন্জয়ের মন্তব্য ছিলো অন‍্যরকম, তার মতে শুধু মাত্র স্পিন বোলিং করার জন্য জাদেজার মতো একজন ক্রিকেটার কে পন্চাশ ওভারের ক্রিকেট দলে কখনও রাখবেন না তিনি।

মান্জেরেকরের এমন মন্তব্যের পর চুপ থাকেননি জাদেজা। পরবর্তী সময়ে টুইটে ক্ষোভ উগড়ে দেয় তিনিও।লেখেন প্রাক্তন ওই ভারতীয় ক্রিকেটারের তুলনায় বেশি ম‍্যাচ খেলেছেন তিনি।এবং এখনও খেলেছেন তিনি।তাই কেউ যা এ্যচিভ করেছে তাকে সন্মান দেওয়ার পরামর্শ দিয়েছিলেন জাদেজা সঞ্জয়কে ।

এদিন সেমি ফাইনালের প‍র ভাষ‍্যকারের কাজ করা কালীন মজা করে সন্জয় বলেন, জাদেজা তাকে একেবারে ছিন্ন – বিচ্ছিন্ন করে রেখে দিলো ! অর্থাৎ কার্যত এমন ভাবে এক প্রকার এই ঝামেলার ইতি টানার চেষ্টা করলেন তিনি।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *