সৌরভ গাঙ্গুলি

রবি শাস্ত্রী ভারতীয় ক্রিকেট দলের নতুন হেড কোচ হচ্ছেন, এই ঘোষণার পরই মিডিয়াতে খবর ছড়িয়ে পড়ে কোচ নিয়োগ করা নিয়ে শর্ত চাপিয়ে ছিলেন সৌরভ গাঙ্গুলি। আর টিম ইন্ডিয়ার উজ্জ্বল ভবিষ্য়তের কথা ভেবে দাদাকে তুষ্ট করতে তাঁর শর্ত মেনে নেন ক্রিকেট অ্য়াডভাইজরি কমিটির অন্য় দুই সদস্য় শচীন ও লক্ষ্মণ। তাই সহকারী হিসেবে শাস্ত্রী তাঁর পুরনো টিমের সদস্য় ভরত অরুণকে চাইলেও সৌরভের আপসের শর্ত মেনেই জাহির খানকে বোলিং কোচ হিসেবে নিয়োগ করে বিসিসিআই। রবি শাস্ত্রী কোচ হন, তা প্রথম থেকেই চাননি সৌরভ। শচীন ও লক্ষ্মণ তাঁকে বোঝানোর পরই তিনি রাজি হন শাস্ত্রীকে নিয়োগ করতে। শর্ত রাখেন, জাহির খানকে যেন বোলিং কোচ করা হয়। জাহিরকে বোলিং কোচ করার ব্য়াপারে সুনিশ্চিত হওয়ার পরই শাস্ত্রীকে হেড কোচ করার ব্য়াপারে সবুজ সঙ্কেত আসে সৌরভের কাছ থেকে।

রবি শাস্ত্রী
জাহির খান
ভরত অরণ

এখানে দেখুনঃ এবারেও কোচ বিতর্ক, জাহিরকে নিয়োগের শর্তেই শাস্ত্রীতে সবুজ সঙ্কেত দাদার

বোর্ডের অন্দর থেকে বাইরে যতই খবর ছড়াক যে এবারেও কোচ নিয়োগ নিয়ে বিতর্ক তৈরি করেছিলেন সৌরভ, দাদা কিন্তু অন্য় কথা বলছেন। ওসব কোনও ঘটনাই নাকি ঘটেনি। ১০ জুলাই সৌরভ বলেছিলেন, বিরাট এই মুহূর্তে আমেরিকাতে। ও ফিরলেই ওর সঙ্গে কথা বলে হেড কোচ বেছে নেওয়া হবে। আমরা তিনজনেই এনিয়ে চিন্তিত। কারণ ২০১৯ পর্যন্ত কোচ নিয়োগ করা হবে। তাই দলের সবাই কি চাইছে, সেটা শোনা জরুরি।

সৌরভ গাঙ্গুলি

শোনা যায়, এরপরই ক্রিকেট অ্য়াডমিনিস্ট্রিটিভ কমিটি সৌরভদের নির্দেশ দেন, কোচ নিয়োগ নিয়ে যেন আর বেশি টানা-হেঁচড়ানো না করা হয়। এনিয়ে অযথা সময় নষ্টের কোনও প্রয়োজন নেই। ফলে ১১ জুলাই আর সময় অপচয় না করে বিরাটের সঙ্গে কথা বলেই তড়িঘড়ি জানিয়ে দেওয়া হয় শাস্ত্রীর নাম। বোর্ড সূত্রে সৌরভের শাস্ত্রী-আপত্তি খবর ফাঁস হয়ে যেতেই বেকায়দায় পড়ে দাদা তা সম্পূর্ণ অস্বীকার করে উল্টো বক্তব্য় রাখেন। সংবাদমাধ্য়মকে জানান, না না। এরকম কোনও ব্য়াপার ছিল না। এটা সর্বসম্মতিক্রমে নেওয়া সীদ্ধান্ত। আমরা যোগ্য় ব্য়ক্তিকেই বেছে নিয়েছি। বিরাটের সঙ্গে আলোচনা করেই সেরা ব্য়ক্তিকে কোচ হিসেবে নিয়োগ করেছি।

সৌরভ গাঙ্গুলি

দেখে নিনঃ জ্য়োতিষ শাস্ত্র মতে কে জিতবে ২০১৯ বিশ্বকাপ?

জাহির খানের নিয়োগ নিয়ে তাঁর চাপানো শর্ত প্রসঙ্গে সৌরভ বলেন, শাস্ত্রীর সঙ্গে আলোচনা করেই জাহিরকে সহকারী হিসেবে নিয়োগ করা হয়েছে। শচীন ওঁর সঙ্গে পরামর্শ করেছে। সেই জন্য়ই আমরা সময় চেয়েছিলাম।

ভারতীয় ক্রিকেট দলের কোচ নির্বাচনের দায়িত্বে ছিলেন সোরভ গাঙ্গুলি-সচিন তেন্ডুলকর-ভি ভি এস লক্ষণ

উল্লেখ্য়, ২০১৪ -২০১৬ ভারতীয় দলের টিম ডিরেক্টর ছিলেন রবি শাস্ত্রী। সেই সময় ভারতীয় দলের পারফরম্য়ান্স ভোলার মতো নয়। ২০১৫-তে একদিনের ক্রিকেটের বিশ্বকাপ এবং ২০১৬-তে টি-২০ বিশ্বকাপের সেমিফাইনাল ওঠে ভারত। ড্রেসিং রুমে শাস্ত্রী খুব পপুলার ক্রিকেটারদের মধ্য়ে। তাই শোনা যাচ্ছে অনিল কুম্বলের সময় ড্রেসিং রুমে যে গুমোট পরিবেশ সৃষ্টি হয়েছিল, শাস্ত্রী ফিরে আসায়, তা দূর হবে।

ভারতীয় ক্রিকেট দল

আরও পড়ুন

আইপিএল ২০১৯: যে তিন ফ্র্যাঞ্চাইজি দলে ভেড়াতে পারে গৌতম গম্ভীরকে

দুই বিশ্বকাপ আসরের ফাইনালে দলের পক্ষে সেরা ইনিংস খেলে দলকে জয়ী করার ক্ষেত্রে অবদান রাখা গৌতম গম্ভীরকে...

TOP5: যে ৫ বাংলাদেশী ক্রিকেটারের দিকে নজর দিতে পারে আইপিএল ফ্র্যাঞ্চাইজি

আগামী বিশ্বকাপের আগে বসতে যাচ্ছে ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগ আইপিএলের বারোতম আসর। বিশ্বের অন্যতম সেরা এই টুর্নামেন্টে বসে...

আইপিএল ২০১৯: মুস্তাফিজকে দলে ভেড়াতে চাইবে যে তিন ফ্র্যাঞ্চাইজি

আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে রাজকীয় অভিষেক হবার পর থেকে একের পর এক রেকর্ড গড়ে যাচ্ছেন বাংলাদেশী পেসার মুস্তাফিজুর রহমান।...

TOP5: ওয়ানডেতে সর্বকালের সেরা ৫ উইকেটরক্ষক

গ্লাভস হাতে তিন কাঠির পেছনে তীক্ষ্ণ দৃষ্টিতে বলের দিকে তাকিয়ে থাকেন উইকেটরক্ষক। বল গ্লাভস বন্দী করে ব্যাটসম্যানকে...

TOP5: আইপিএলে সর্বাধিক ছক্কা হাঁকানো পাঁচ ব্যাটসম্যান

ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগ বা আইপিএল যেন প্রতিভাবান ক্রিকেটার খোঁজার এক আতশ কাচ। ক্রিকেটের সংক্ষিপ্ত ফরম্যাটে হওয়া এই...