NZvsPAK: জয়ের পর সরফরাজ আহমেদ ৯২ বিশ্বকাপের সংযোগের নিয়ে দিলেন রায়

আইসিসি বিশ্বকাপ ২০১৯এ পাকিস্তান আর নিউজিল্যাণ্ডের মধ্যে বুধবার ২৬ জুন ম্যাচ খেলা হয়েছে। কিউয়ি অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসন টস জিতে প্রথমে ব্যাটিং করার সিদ্ধান্ত নেন। দুই দলের জন্যই এই ম্যাচ গুরুত্বপূর্ণ ছিল। এই ম্যাচে নিজেদের প্রদর্শনের সৌজন্যে পাকিস্তান দল এই ম্যাচ ৬ উইকেটের ব্যবধানে জিতে নেয়। প্রথমে ব্যাট করে নিউজিল্যাণ্ড ২৩৭ রানের স্কোর তুলেছিল। এই লক্ষ্যকে পাকিস্তান ৪৯.১ ওভারে ৪ উইকেট হারিয়ে হাসিল করে নেয়।

ফিল্ডিং নিয়ে করেছি মেহনত

NZvsPAK: জয়ের পর সরফরাজ আহমেদ ৯২ বিশ্বকাপের সংযোগের নিয়ে দিলেন রায় 1

এই বিশ্বকাপে পাকিস্তানের ফিল্ডিং নিয়ে লাগাতার প্রশ্ন উঠছিল। এর জন্য খেলোয়াড়দের ফিটনেসকে দায়ী মানা হচ্ছিল কিন্তু আজ দল দুর্দান্ত ফিল্ডিং করেছে। পাকিস্তান অধিনায়ক সরফরাজ অধিনায়ক স্বয়ং ঝাঁপিয়ে পড়ে রস টেলরের ক্যাচ নেন। জয়ের পর অধিনায়ক সরফরাজ আহমেদ বলেন,

“দর্শক সবসময় পাকিস্তান দলের সমর্থন করেন। সমস্ত ধরণের সমর্থনের জন্য আপনাদের ধন্যবাদ। ফিল্ডিং গুরুত্বপূর্ণ, কিন্তু আমরা আজ পর্যন্ত ভাল প্রদর্শন করিনি আর আমরা নিজেদের প্র্যাকটিস সেশনে কড়া মেহনত করেছি। আজ ভাল পরিণাম দেখতে পাওয়া গেছে। যখনই পাকিস্তান দলকে কোণে ঠেকে দেওয়া হয় আমরা ভাল করি। এটা একটা দুর্দান্ত দলগত প্রয়াস, সবার আগে বোলিং দুর্দান্ত ছিল। আমির যে ধরণের শুরু করেছে আর ফের শাহিন আর মাঝের ওভারে শাদাব ভাল করেছে”।

বাবর আজমের জমিয়ে প্রশংসা

NZvsPAK: জয়ের পর সরফরাজ আহমেদ ৯২ বিশ্বকাপের সংযোগের নিয়ে দিলেন রায় 2

পাকিস্তানের তরুণ ব্যাটসম্যান বাবর আজম দুর্দান্ত সেঞ্চুরি করে দলকে জয় এনে দেন। তিনি ১২৭ বলে ১০১ রানের দুর্দান্ত ইনিংস খেলেন। এই ইনিংসের পর অধিনায়ক সরফরাজ আহমেদ তার জমিয়ে প্রশংসা করেন। এর সঙ্গেই তিনি এটা পরিস্কারও করেছেন যে তার দল ১৯৯২ বিশ্বকাপের ব্যাপারে ভাবছে না। তিনি বলেন,

“যেভাবে বাবর আর হ্যারিস ব্যাটিং করেছে, আমার জন্য এটা বাবরের সবচেয়ে দুর্দান্ত ইনিংসগুলির মধ্যে একটি। এটা মুশকিল পিচ ছিল আর আমরা ৫০ ওভার খেলার দিকে দেখছিলাম। হ্যারিসকেও শ্রেয় যায় কারণ ও চাপকে যথেষ্ট দুর্দান্তভাবে সামলেছে। অফ স্পিন বোলারের সামনে ব্যাটিং করা সহজ ছিল না। আমরা ১৯৯২ এর ব্যাপারে ভাবছি না বরং এখানে আমরা ম্যাচ বাই ম্যাচ ভাবছি। আশা রয়েছে যে আগেও এমনই প্রদর্শন বজায় থাকবে”।

suvendu debnath

কবি, সাংবাদিক এবং গদ্যকার। শচীন তেন্ডুলকর, ব্রায়ান লারার অন্ধ ভক্ত। ক্রিকেটের...

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *