বিরাট বা শাস্ত্রী নন, বরং ইনি নিয়েছিলেন ধোনিকে সাত নম্বরে পাঠানোর সিদ্ধান্ত

ভারতীয় দল সেমিফাইনালে হেরে বিশ্বকাপ থেকে ছিটকে গিয়েছে। ভারতীয় দল লীগ ম্যাচে দুর্দান্ত প্রদর্শন করেছে কিন্তু ফাইনালে বিরাট আর রোহিত আউট হওয়ার পর ব্যাটসম্যানরা দায়িত্ব নিতে পারেননি। মিডল অর্ডারের কোনো ব্যাটসম্যানই দায়িত্ব নিতে পারেননি। নীচের দিকে রবীন্দ্র জাদেজা আর মহেন্দ্র সিং ধোনি চেষ্টা করেন কিন্তু তা জয়ের জন্য যথেষ্ট ছিল না।

৭ নম্বরে নামেন ধোনি

বিরাট বা শাস্ত্রী নন, বরং ইনি নিয়েছিলেন ধোনিকে সাত নম্বরে পাঠানোর সিদ্ধান্ত 1

ভারতীয় দল সেমিফাইনালে নিউজিল্যান্ডের কাছে হেরে যায়। এই ম্যাচে মহেন্দ্র সিং ধোনি সাত নম্বরে ব্যাটিং করতে আসেন। দলের দুই প্রধান ব্যাটসম্যান রোহিত শর্মা আর বিরাট কোহলির আউট হওয়ার পর ঋষভ পন্থ আর হার্দিক পাণ্ডিয়ার মত খেলোয়াড়কে ধোনির আগে পাঠানো হয়। ২৪/৪ স্কোর হওয়া সত্ত্বেও হার্দিক পান্ডিয়া দলের হয়ে ব্যাটিং করতে আসেন অন্যদিকে মহেন্দ্র সিং ধোনি হার্দিক পান্ডিয়ার আউট হওয়ার পর মাঠে নামেন। তার আসার পর নীচের দিকে স্রেফ রবীন্দ্র জাদেজার ব্যাট করা বাকি ছিল।

কার ছিল সিদ্ধান্ত?

বিরাট বা শাস্ত্রী নন, বরং ইনি নিয়েছিলেন ধোনিকে সাত নম্বরে পাঠানোর সিদ্ধান্ত 2

মহেন্দ্র সিং ধোনিকে ৭ নম্বরে পাঠানোর সিদ্ধান্ত দলের ব্যাটিং কোচ সঞ্জয় বাঙ্গারের ছিল। এখনো এর পুষ্টি হয়নি কিন্তু মিডিয়া রিপোর্টসের অনুযায়ী এটি বাঙ্গারের সিদ্ধান্ত বলা হচ্ছে। ধোনি এই ম্যাচে ৫০ রানের ইনিংস খেলেন কিন্তু তার পেছনে আর কোনো ব্যাটসম্যান না থাকার কারণে তিনি বড় শট খেলতে পারেননি। ভারতীয় দলের হারের কারণ ধোনির সাত নম্বরে ব্যাট করতে নামাকেই ধরা হচ্ছে।

বাঙ্গারের হতে পারে ছুটি

বিরাট বা শাস্ত্রী নন, বরং ইনি নিয়েছিলেন ধোনিকে সাত নম্বরে পাঠানোর সিদ্ধান্ত 3

সঞ্জয় বাঙ্গার গত কিছু বছর ধরে ভারতীয় দলের ব্যাটিং কোচ থেকেছেন কিন্তু আজ পর্যন্ত তিনি চার নম্বরের সমস্যার সমাধান করতে পারেননি। সেই সঙ্গে দলের খেলোয়াড়রাও নিজেদের ব্যাটিং সুধরোনোর জন্য প্রাক্তন খেলোয়াড়ের কাছে যান। ভারতীয় দলের ইংল্যাণ্ড থেকে ফেরত আসার পর সিওএর সঙ্গে অধিনায়ক, কোচ আর নির্বাচকদের মিটিং হওয়ার কথা রয়েছে। ভারতীয় দলের কোচ আর সাপোর্ট স্টাফদেরও কার্যকালও বিশ্বকাপের সঙ্গেই শেষ হয়ে গিয়েছে কিন্তু তাদের এখনো ৪৫ দিন পর্যন্ত এক্সটেনশন দেওয়া হয়েছে।

suvendu debnath

কবি, সাংবাদিক এবং গদ্যকার। শচীন তেন্ডুলকর, ব্রায়ান লারার অন্ধ ভক্ত। ক্রিকেটের...

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *