পাকিস্তানী কোচ মিকি আর্থারের বড়ো খোলসা, ভারতের বিরুদ্ধে হারের পর সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন আত্মহত্যার 1

ভারত বনাম পাকিস্তানের ম্যাচে মেন ইন ব্লু লাগাতার সপ্তমবার নিজেদের চির প্রতিদ্বন্ধী পাকিস্তানকে হারিয়ে নিজেদের রেকর্ড ৬-০ থেকে ৭-০ করে ফেলেছে। এই হারের পর পাকিস্তানের চারদিকেই সমালোচনা হচ্ছে। পাকিস্তানী খেলোয়াড়, ম্যানেজমেন্ট, কোচ প্রত্যেকের জন্যই সোশ্যাল মিডিয়ায় নোংরা পোস্ট ভাইরাল হচ্ছে।
এখন যখন পাকিস্তান দক্ষিণ আফ্রিকাকে হারিয়ে টুর্নামেন্টে প্রত্যাবর্তিন করেছে তো কোচ মিকি আর্থার একটা বড় খোলসা করেছেন যে ভারতের কাছে হারার প্র তিনি আত্মহত্যার কথা ভেবেছিলেন।

কোচ মিকি আর্থার করে ফেলেছিলেন আত্মহত্যার সিদ্ধান্ত

পাকিস্তানী কোচ মিকি আর্থারের বড়ো খোলসা, ভারতের বিরুদ্ধে হারের পর সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন আত্মহত্যার 2

পাকিস্তান ক্রিকেট দল দক্ষিণ আফ্রিকাকে হারিয়ে টুর্নামেন্টে ভাল প্রত্যাবর্তন করেছে। এর মধ্যে কোচ মিকি আর্থার জানিয়েছেন যে ১৬ জুন বিশ্বকাপ ২০১৯এ ভারতের কাছে হারের পর তিনি কিভাবে যন্ত্রণার মধ্যে দিয়ে গিয়েছেন। যেখানে সোশ্যাল মিডিয়ায় পাকিস্তানের সমালোচনা হচ্ছিল।

কোচ আর্থার স্বীকার করলেন যে দলের এত সমালোচনার মধ্যে তার আত্মহত্যার ইচ্ছে হয়েছিল। সরফরাজ আহমেদের নেতৃত্বাধীন পাকিস্তান ভারতের হাতে ম্যাঞ্চেস্টারের ওল্ড ট্র্যাফোর্ডে ডাকওয়ার্থ লুইস পদ্ধতির অনুসারে ৮৯ রানে হেরে গিয়েছিল

পাকিস্তানের কোচের এই খোলসার পর পাকিস্তানের মিডিয়া তার আত্মহত্যা করার কথা ভাবার জন্য সমালোচনা করছে। কারণ তার এই কথায় খেলোয়াড়দের উপর চাপ তৈরি হবে।

এভাবে ভারত হারিয়েছিল পাকিস্তানকে

বিরাট কোহলির নেতৃত্বাধীন ভারত প্রথমে ব্যাট করে আর নির্ধারিত ৫০ ওভারে ৫ উইকেট হারিয়ে ৩৩৬ রান করে। জবাবে বৃষ্টির কারণে ৪০ ওভারে ৩০৪ রানের লক্ষ্য পায় পাকিস্তান। পাকিস্তানের দল ৪০ ওভারে মাত্র ২১২ রানই করতে পারে।

পাকিস্তানী কোচ মিকি আর্থারের বড়ো খোলসা, ভারতের বিরুদ্ধে হারের পর সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন আত্মহত্যার 3

আর্থার নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে পাকিস্তানের ম্যাচের আগে বলেন, “গত রবিবার আমি আত্মহত্যা করতে চেয়েছিলাম। কিন্তু আপনারা জানেন যে এটা স্রেফ একটা প্রদর্শন ছিল। এটা ভীষণই দ্রুত হয়ে গিয়েছে। আপনি একটা ম্যাচ হেরেছেন তারপর আরো একটা হেরেছেন। এটা বিশ্বকাপ। মিডিয়ার চাপ, জনতার আশা আর এই অবস্থায় আপনার এমন প্রদর্শন। আমরা সকলেই ওই জায়গায় দাঁড়িয়েছিলাম”।

পাকিস্তান দক্ষিণ আফ্রিকাকে হারিয়ে টুর্নামেন্টে করল প্রত্যাবর্তন
পাকিস্তানী কোচ মিকি আর্থারের বড়ো খোলসা, ভারতের বিরুদ্ধে হারের পর সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন আত্মহত্যার 4

ভারতের বিরুদ্ধে লজ্জাজনক হারের পর পাকিস্তান দল দুর্দান্ত প্র্যত্যাবর্তন করে লর্ডসে দক্ষিণ আফ্রিকাকে ৪৯ রানে হারায় সেই সঙ্গে সেমিফাইনালে পৌঁছোনোর নিজেদের আশা বজায় রাখে। ১৯৯২ বিশ্বকাপের চ্যাম্পিয়নদের অন্য দলের ম্যাচের উপরও নির্ভর করার প্রয়োজন রয়েছে কিন্তু সেই সঙ্গে তাদের নিজেদের বাকি বাঁচা সমস্ত ম্যাচ জেতাও প্রয়োজন। পাকিস্তানকে এখন নিউজিল্যাণ্ড, আফগানিস্তান আর বাংলাদেশের বিরুদ্ধে ম্যাচ খেলতে হবে।

আর্থার নিউজিল্যাণ্ডকে হারানো করলেন ভরসা

পাকিস্তানী কোচ মিকি আর্থারের বড়ো খোলসা, ভারতের বিরুদ্ধে হারের পর সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন আত্মহত্যার 5

নিউজিল্যাণ্ডের বিরুদ্ধে ম্যাচের আগে আর্থার বলেছেন যে পাকিস্তানকে যদি নিউজিল্যাণ্ড দলকে হারায় তো তাদের সর্বশ্রেষ্ঠ প্রদর্শন করতে হবে। আর্থার বলেন,

“আমি জানি যে আমরা নিউজিল্যাণ্ডকে মাত দিতে পারি। আমরা টুর্নামেন্টে এখন বেঁচে আছি আর সেমিফাইনালের দৌড়ে রয়েছি। এতে কোনো সন্দেহ নেই যে যদি আমরা নিজেদের সর্বশ্রেষ্ঠ প্রদর্শন করি তো যে কাউকে মাত দিতে পারি। তা সে নিউজিল্যান্ড হোক আফগানিস্তান হোক বা বাংলাদেশ। আমাদের তিন বিভাগেই দমদার প্রদর্শন করতে হবে যাতে টুর্নামেন্টে অন্য দলের সমান ভাল দল বলা যায়”।

Leave a comment

Your email address will not be published.