জয়পুর পুলিশের পর, এবার পাকিস্তান এই নামকার শহরের ট্র্যাফিক পুলিশের পথ নিরাপত্তায় বুমরাহ-র নো-বল! 1

ক্রিকেটে নো বল তো আকছারই হয়, ভবিষ্যতেও হবে। কিন্তু চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির ফাইনালে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে ভারতের পেস বোলার জসপ্রীত বুমরাহর নো বল নিয়ে হৈচৈ চলছেই। ইনিংসের শুরুতে তাঁর নো বলের জন্য ‘কট বিহাইন্ড’ হয়েও বেঁচে যান ফকর জামান। পরে তিনি শতরান হাঁকান আর পাকিস্তানও ম্যাচ জিতে প্রথমবারের জন্য চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি ঘরে তোলে। বুমরাহর সেই নো বলই এখন পথ নিরাপত্তার জন্য পুলিশের হাতিয়ার। তবে, একইসঙ্গে এই বিজ্ঞাপন বিতর্কেরও জন্ম দিয়েছে।

জয়পুর পুলিশের পর, এবার পাকিস্তান এই নামকার শহরের ট্র্যাফিক পুলিশের পথ নিরাপত্তায় বুমরাহ-র নো-বল! 2
জয়পুর ট্রাফিক পুলিশের সেই বিতর্কিত বিজ্ঞাপন

এখানে দেখুনঃ ভারতীয় দলের এই নির্ভরযোগ্য ক্রিকেটারের ফর্ম নিয়ে দারুণ চিন্তায় কোহলি !

আইডিয়াটা প্রথম আসে জয়পুর পুলিশের মাথায়। তারপরে এবার পাকিস্তানের ফয়সালাবাদের ট্র্যাফিক পুলিশ। সেই নো-বলের ছবি ব্যবহার করে টুইটারে প্রচার শুরু হয়েছে, রাস্তায় চলতে গেলে, দেখেশুনে চল। ওভারস্টেপিং হলেই তোমার জন্য বিপদ অপেক্ষা করছে। প্রসঙ্গত, চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির ওই ফাইনালে প্রথমে ব্যাট করে পাকিস্তান চার উইকেটে হারিয়ে তোলে ৩৩৮ রান। শতরানকরা ফকর জামান যখন তিন রানে ব্যাট করছেন, তখন বুমরাহর নো বলে আউট হয়েও বেঁচে যান। পাকিস্তানের জবাবে ভারত মাত্র ১৫৮ রান করে। সরফরাজরা ১৮০ রানে ম্যাচ জিতে চ্যাম্পিয়ন হয়ে যায়।

জয়পুর পুলিশের পর, এবার পাকিস্তান এই নামকার শহরের ট্র্যাফিক পুলিশের পথ নিরাপত্তায় বুমরাহ-র নো-বল! 3
বুমরাহ-র সেই নো-বলের ঘটনা

জয়পুর পুলিশের পথ নিরাপত্তা নিয়ে, তাঁর নো বলকে নিয়ে বিজ্ঞাপনে অবশ্য বেশ ব্যাথিত বুমরাহ। নিজের টুইটারে নিজের ব্যথা উগরে দিয়ে বুমরাহ লিখেছেন, “অভিনন্দন জয়পুর পুলিশ। দেশের হয়ে নিজের সেরাটা দেওয়ার পরেও, তুমি কি সম্মান পাবে, এটাই তার প্রমাণ।”

তারপরেই জয়পুর পুলিশকে একহাত নিয়ে বুমরাহ টুইট করেছেন, “ট্র্যাফিক পুলিশ….চিন্তা করও না। কাজের সময় আপনাদের ভুল নিয়ে আমি কোনও মজা করব না। কারণ, আমি জানি মানুষ মাত্রই ভুল করে।”

খুলে ফেলা হয়েছে। এবং নিজেদের টুইটের জন্য ক্ষমা চেয়ে তারা পালটা টুইট করেছে জয়পুর পুলিশ, “ডিয়ার জসপ্রীত, তোমার বা ক্রিকেটপ্রেমীদের অনুভূতিকে কোনওরকম আঘাত করা আমাদের উদ্দেশ্য ছিল না। ট্র্যাফিকের নিয়মকানুন নিয়ে জনসাধারণকে আরও সচেতন করাটাই আমাদের উদ্দেশ্য ছিল। তুমি দেশের অনেক তরুণ ক্রিকেট শিক্ষার্থীর আইকন।”

ফয়সালাবাদের পুলিশের এই উদ্যোগের আবার প্রশংসা করেছেন সে দেশের অনেক ক্রিকেটভক্ত। সোশ্যাল নেটওয়ার্কিং সাইট যেমন একজন লিখেছেন, “ট্র্যাফিকের নিয়ম নিয়ে জনসাধারনকে সচেতন করার জন্য এখনও পর্যন্ত ফয়সালাবাদের পুলিশের তরফ থেকে এটাই সেরা পদক্ষেপ।”

জয়পুর পুলিশের পর, এবার পাকিস্তান এই নামকার শহরের ট্র্যাফিক পুলিশের পথ নিরাপত্তায় বুমরাহ-র নো-বল! 4
এটাই হল পাকিস্তানের ফয়সালাবাদ ট্রাফিক পুলিশের নতুন বিজ্ঞাপন

উল্লেখ্য, জয়পুর, পাকিস্তানের ফয়সালাবাদের ট্র্যাফিক পুলিশ বুমরাহ–র নো-বলের ছবি ব্যবহার করে পথ চলতি মানুষের নিরাপত্তা সুনিশ্চিত করতে যে অভিনব উদ্যোগ গ্রহণ করেছে, এবার সে পথে হাঁটতে চলেছে কলকাতা ট্রফিক পুলিশও।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *