জয়ের পর ব্যাটিং-বোলিং নিয়ে কি বললেন বিরাট, কাকে দিলেন বেশি কৃতিত্ব! জানুন 1

 

টি- ২০ সিরিজের প্রথম ম্যাচ হেরে ভারত এদিন দ্রুত ক্যামব্যাক করে। ঈশান কিশানের দুর্দান্ত অর্ধশতরান এবং বিরাট কোহলির দুর্দান্ত ইনিংসের জোরে সিরিজে সমতা ফেরালো টিম ইন্ডিয়া। এই ম্যাচের পর টিম ইন্ডিয়ার অধিনায়ক বিরাট কোহলি বলেন, “আমাদের জন্য বেশ ভাল গেম। আমি মনে করি আমরা যেগুলি চেয়েছিলাম সেগুলি ঠিক হয়েছে। বিশেষত প্রথম ইনিংসে বোলিং। শেষ পাঁচ ওভারে কেবল ৩৪ রান দিয়েছে বোলাররা, খুব স্মার্ট বোলিং। বিশেষশত ওয়াশি।”

জয়ের পর ব্যাটিং-বোলিং নিয়ে কি বললেন বিরাট, কাকে দিলেন বেশি কৃতিত্ব! জানুন 2

সেই সঙ্গে দলের ব্যাটিং নিয়ে কোহলি বলেছেন, “দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাট করা কিছুটা সহজ হয়েছিল।তারা খুব শর্ট বোলিং করছিল।” ম্যাচের সেরা ব্যাটসম্যান তরুণ ইশান কিষানের প্রসংশা করতে ভোলেননি কোহলি, “ইশানের কথা বিশেষ ভাবে উল্লেখ করব। আমি যা করতে পারি তা করার চেষ্টা করেছি তবে তিনি খেলা বিরোধীদের হাত থেকে দূরে সরিয়ে নিয়েছেন। অভিষেক ম্যাচে উচ্চ মানের ইনিংস। সে যখন আইপিএলে খেলে তখন তাঁর আধিপত্য রয়েছে উচ্চ মান সম্পন্ন বোলারদের বিরুদ্ধে। আমরা তাকে বড় ছক্কা আজ আন্তর্জাতিক পেস বোলারদের মারতে দেখলাম। ও জানতেন যে তাই বলটি ভালভাবে মারছেন তবে তিনি ক্যালকুলেশন করছিলেন, বেপরোয়া নয়।”

জয়ের পর ব্যাটিং-বোলিং নিয়ে কি বললেন বিরাট, কাকে দিলেন বেশি কৃতিত্ব! জানুন 3

নিজের সঙ্গে ইশানের পার্টনারশিপ নিয়ে বিরাট বলেছেন, “আজ তার ও আমার পার্টনারশিপ পাল্টা আক্রমণাত্মক ইনিংসটি দলের প্রয়োজন ছিল। আমাকে ফোকাস ও বেসিকগুলিতে ফিরে যেতে হয়েছিল। আমি দলের হয়ে কাজ করার ক্ষেত্রে সর্বদা গর্ব বোধ করেছি, ৭০ টি সেঞ্চুরি অর্জনের চেয়ে সে সম্পর্কে আরও বেশি খুশি। আমার চোখ থাকে বলের দিকে।”

জয়ের পর ব্যাটিং-বোলিং নিয়ে কি বললেন বিরাট, কাকে দিলেন বেশি কৃতিত্ব! জানুন 4

“হার্দিকের কৃতিত্ব যে তিনি এখন আমাদের হয়ে কমপক্ষে তিন ওভার বোলিং করছেন। এবং পরের ছয় থেকে আট মাসের সময়কালে তিনি প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন যে তিনি তিনটি ফর্ম্যাটে দলের প্রয়োজনে অলরাউন্ডার হওয়ার জন্য সমস্ত কিছু প্রতিশ্রুতিবদ্ধ করবেন। তিনি সর্বদা দলের হয়ে খেলেন এবং এই ধরণের খেলোয়াড় অমূল্য হন। ইংল্যান্ড প্রথম ম্যাচে তারা কতটা ভাল খেলে দেখিয়েছে তাই আমাদেরকে পেশাদার হতে হবে এবং কাজটি সঠিকভাবে শেষ করতে হবে। আজ রাতে আমরা এটাই করেছি।”

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *