গৌতম গম্ভীর

ধীর গতির টার্নিং পিচে বরাবরই ভাল খেলে এসেছে কলকাতা নাইট রাইডার্স। এতদিন ভারতের বিভিন্ন মাঠের পিচগুলির এই ধরনেরই বৈশিষ্ট ছিল। যেখান থেকে স্পিনাররা দারুণভাবে সাহায্য পেতেন। কিন্তু স্পিনার ও সিমারদের মেলবন্ধনে এক সুন্দর খেলা উপস্থাপন করার জন্যেই বিসিসিআই সমগ্র দেশজুড়ে যে সমস্ত মাঠে আইপিএলের ম্যাচ অনুষ্ঠিত হবে, সেই সমস্ত পিচের চরিত্র বদলে ফেলেছে। এখন পিচে টার্ন এবং বাউন্স দুটোই থাকছে। পিচে ছোট ছোট ঘাস থাকায় বল স্কিট করবে। তার ওপর বাউন্স থাকাটা সিমারদের জন্য সুখের খবর।
গৌতম গম্ভীরের কেকেআর এতদিন আইপিএলে প্রতিটা মরশুমেই ভাল খেলে এসেছে। দুবার চ্যাম্পিয়নও হয়েছে। তার অন্যতম কারণ ধীর গতির টার্নিং পিচ। কেকেআরে গৌতম গম্ভীর, রবীন উথাপ্পা মনীষ পাণ্ডে সহ বেশকিছু ব্যাটসম্যান রয়েছে যারা স্পিনের বিরুদ্ধে ভাল খেলে। পাশাপাশি সুনীল নারিন, পিয়ূষ চাওলার মত স্পিনাররা বেশ সাহায্য পেত পিচ থেকে। এরফলে কেকেআর একটা মজবুত দল ছিল। কিন্তু এবার কী হবে! যদিও কেকেআর অধিনায়ক বলেছেন, “এতদিন ধরে ভারতের পিচগুলি স্পিনারদের সাহায্য করত। কিন্তু এখন সেই পিচের চরিত্রটাই পালটে গিয়েছে। এখন পিচে গতি ও বাউন্স দুটোই পাওয়া যাবে। এরকম অবস্থায় আমাদের খুবই উচ্চমানের ব্যাটিং করতে হবে। বিপক্ষের ফাস্ট বোলাররা যতই আক্রমণ করুক না কেন, আমরাও তার জবাব দিতে প্রস্তুত আছি।”

আইপিএল ২০১৭ঃ কলকাতা নাইট রাইডার্সের সর্বকালের সেরা একাদশ

এই ধরনের পিচের ফলে কেকেআর তাদের সেরা অলরাউন্ডার আন্দ্রে রাসেলের অভাব ব্যাপকভাবে অনুভব করছে। তবে রাসেলের না থাকাটা চ্যালেঞ্জের থেকেও বেশি সুযোগ হিসেবেই দেখছেন গৌতম গম্ভীর। তিনি বলেন, “রাসেলের না থাকাটা দু’ভাবে দেখা যায়। এটাকে চ্যালেঞ্জ হিসেবে না দেখে একটা বড় সুযোগ হিসেবেই দেখা হোক। কারণ রাসেল থাকলে অন্য কোনও ক্রিকেটারের জায়গা হোত না দলে। ফলে কারোর সুযোগ পাওয়ারও জায়গা থাকত না। মনীষ পাণ্ডের ব্যাটিং ও অঙ্কিত রাজপুতের বোলিং রাসেলের অভাব মিটিয়ে দেবে। শুধু ক্রিস ওকস (রাসেলের পরিবর্তে) নয়, কেকেআরের প্রতিটা খেলোয়ারই রাসেলের অভাব মিটিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করবে।” প্রসঙ্গত, রাসেলকে পাওয়া যাবে না বলে ইংল্যান্ডের ক্রিস ওকসকে নিয়েছে কেকেআর।

নতুন এই পিচের জন্য পেস বোলারের গুরুত্বটা কতটা হতে চলেছে তা বুঝতে পেরেছে কেকেআর। তাই একগুচ্ছ সিমার নেওয়া হয়েছে এই দলে। অধিনায়ক বলেন, “বাঁহাতি সিমার জয়দেব উনাদকাট ও প্রদীপ সাঙ্গওয়ান এর গুরুত্ব বুঝেই ট্রেন্ট বোল্টকে নেওয়া হয়েছে। বোল্ট, ন্যাথন কৌলটার-নাইল, উমেশ যাদব, অঙ্কিত রাজপুত ও ওকসের মত সিমার রয়েছে কেকেআর-এ। এই বোলিং তারকারাই সব কিছু সামলে নেবে।”

অন্যদিকে, মিস্ট্রি স্পিনার সুনীল নারিনের বিষয়েও আশাবাদী অধিনায়ক গম্ভীর। বোলিং অ্যাকশন বদল করার পর থেকেই নারিন নিজের চেনা ছন্দে নেই। গত মরশুমেও ভাল খেলতে পারেননি তিনি। গম্ভীর আশাবাদী একটু সময় পেলেই নারিন নিজের ফর্মে ফিরে আসবে। তিনি বলেন, “সুনীল নারিন একটু সময় পেলেই নিজের ফর্মে ফিরে আসবে।”

কেন বদল হল কেকেআরের জার্সির রঙ, সিইও জানালেন তারই আসল কারণ

  • SHARE

    আরও পড়ুন

    ধোনির ভক্তদের জন্য সম্ভবত খারাপ খবর, ধোনির অবসর আশংকা নিয়ে উত্তপ্ত টুইটার

    গতকাল স্বাগতিক ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ২-১ ব্যবধানে সিরিজ হারার পর ড্রেসিং রুমে ফেরার সময় প্রাক্তন ভারতীয় অধিনায়ক মহেন্দ্র...

    স্মৃতি মন্ধনার জন্মদিনে শুভকামনা জানালেন শচীন তেন্ডুলকর ও আনজুম চোপড়া

    ভারতীয় মহিলা ক্রিকেট দলের ওপেনার স্মৃতি মন্ধনার জন্মদিনে তাঁকে শুভকামনা জানিয়ে টুইট বার্তা পাঠিয়েছেন ভারতের কিংবদন্তী ক্রিকেট...

    BREAKING NEWS: ইংল্যান্ডের বিপক্ষে প্রথম তিনটি টেস্ট ম্যাচের জন্য ভারতীয় টিম ঘোষণা ,এই ক্রিকেটার পেলেন না জায়গা

    ভারত আর ইংল্যান্ডের মধ্যে ওয়ানডে সিরিজের শেষ এবং সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচ গতকাল হেডিংলের লীডস ক্রিকেট স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত...

    হার্দিক পাণ্ডিয়ার চুল অনন্য, চর্চার জন্য উইকিপিডিয়ায় নতুন ভাবে ভূষিত হলেন তিনি!

    এ ব্যাপারে কোনো সন্দেহ নেই যে, হার্দিক পাণ্ডিয়া বর্তমান ক্রিকেট বিশ্বে ভারতের জন্য অন্যতম সেরা অলরাউন্ডারদের মধ্যে...

    ক্রিকেটারদের কিছু মজার নাম যা দেখে আপনি অট্টহাসিতে ফেটে পড়বেন

    একটি ক্রিকেট দলের খেলোয়াড়দের মধ্যে অনন্য এক ধরনের সম্পর্ক থাকে কারণ তারা একে অপরের সাথে বেশিরভাগ সময়...