MIvsDD: ম্যাচ জেতার পর দিল্লির অধিনায়ক শ্রেয়স আইয়ার বললেন এই দলের হয়ে খেলা পছন্দ করব

মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স আর দিল্লি ক্যাপিটালসের মধ্যে আইপিএল ২০১৯ এর তৃতীয় ম্যাচ রবিবার ২৪ মার্চ মুম্বাইয়ের ওয়াংখেড়ে স্টেডিয়ামে খেলা হয়েছে। এই ম্যাচ দিল্লি ক্যাপিটালস তাদের দুর্দান্ত প্রদর্শনের সৌজন্যে ৩৭ রানের ব্যবধানে জিতে নিয়েছে আর এই ম্যাচ জেতার সঙ্গেই তারা পয়েন্ট টেবিলে দুটি গুরুত্বপূর্ণ পয়েন্টসও অর্জন করে ফেলেছে।

দিল্লি ক্যাপিটালস করে ২১৩ রানের বিশাল স্কোর
MIvsDD: ম্যাচ জেতার পর দিল্লির অধিনায়ক শ্রেয়স আইয়ার বললেন এই দলের হয়ে খেলা পছন্দ করব 1
জানিয়ে দিই যে এই ম্যাচের টস মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের দল জেতে আর প্রথমে বোলিং করার সিদ্ধান্ত নেয়। প্রথমে ব্যাটিং করতে নেমে দিল্লির দল নির্ধারিত ২০ ওভারে ৬ উইকেট হারিয়ে ২১৩ রানের এক বিশাল স্কোর তুলে দেয় স্কোরবোর্ডে। দিল্লির হয়ে এই ম্যাচে ঋষভ পন্থ ২৭ বলে ৭৮ রানের এক বিস্ফোরক ইনিংস খেলেন। অন্যদিকে কলিন ইনগ্রামও ৩২ বলে ৪৭ রানের গুরুত্বপূর্ণ যোগদান দেন। দলের ওপেনিং ব্যাটসম্যান শিখর ধবনও তার নতুন ফ্রেঞ্চাইজির হয়ে ৩৬ বলে ৪৩ রানের উপযোগী ইনিংস খেলেন। মুম্বাইয়ের হয়ে মিচেল ম্যাক্লেনাঘন নিজের কোটার ৪ ওভারে ৪০ রান দিয়ে ৩ উইকেট নেন।

মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স দল তুলতে পারে মাত্র ১৭৬ রান
MIvsDD: ম্যাচ জেতার পর দিল্লির অধিনায়ক শ্রেয়স আইয়ার বললেন এই দলের হয়ে খেলা পছন্দ করব 2
জবাবে লক্ষ্য তাড়া করতে নামা মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সে শুরুটা খারাপ হয় আর অধিনায়ক রোহিত শর্মা (১৪) দলের ৩৩ রানের স্কোরেই আউট হয়ে যান। এরপর দলের রান ৯৫ পর্যন্ত পৌঁছোতে পৌঁছোতে মুম্বাই তাদের ৫ উইকেট হারিয়ে ফেলে। যদিও ষষ্ঠ উইকেটের জন্য যুবরাজ সিং এবং ক্রুণাল পাণ্ডিয়া ৩৯ রানের পার্টনারশিপ গড়েন, কিন্তু এই পার্টনাশিপও মুম্বাইকে জয়ের দিকে এগিয়ে নিয়ে যেতে পারেনি আর পুরো দল মাত্র ১৭৬ রানই তুলতে পারে।
মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের হয়ে সবচেয়ে বেশি ৩৫ বলে ৫৩ রানের ইনিংস যুবরাজ সিং খেলেন। অন্যদিকে ক্রুণাল পান্ডিয়াও ১৫ বলে ৩২ রানের দুর্দান্ত ইনিংস খেলেন। দিল্লির হয়ে ঈশান্ত শর্মা দুর্দান্ত বল করে নিজের ৪ ওভারে ৩৪ রান দিয়ে ২ উইকেট হাসিল করেন।

ম্যাচ শেষে এই কথা বললেন দিল্লি অধিনায়ক শ্রেয়স আইয়ার
MIvsDD: ম্যাচ জেতার পর দিল্লির অধিনায়ক শ্রেয়স আইয়ার বললেন এই দলের হয়ে খেলা পছন্দ করব 3
ম্যাচ শেষে দিল্লির অধিনায়ক শ্রেয়স আইয়ারকে যথেষ্ট খুশি দেখিয়েছে। তিনি ম্যাচ শেষে পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে এসে বলেন,

“(কোন ফ্রেঞ্চাইজির আমকে তিনি প্রেফার করেন তা নিয়ে) দুটি দলই নিজেদের মত করে ভালো, কিন্তু দিল্লি ক্যাপিটালসের নামের সঙ্গে শুরু করতে পারাটা দারুণ, তাই এটাকে ধরে রাখতে হবে। আমি অধিনায়কত্বের জন্য সত্যিই প্রস্তুত ছিলাম কারণ ভারতীয় দলে দলের পাশাপাশি আমার ঘরোয়া দলের হয়েও নেতৃত্ব দিয়েছি। তাই বিভিন্ন খেলোয়াড়দের নেতৃত্ব দেওয়াতে আমি অভ্যস্ত হয়ে গিয়েছি। আমরা এই মরশুমের জন্য ভাল প্রস্তুতি এবং ট্রেনিং করেছি”।

MIvsDD: ম্যাচ জেতার পর দিল্লির অধিনায়ক শ্রেয়স আইয়ার বললেন এই দলের হয়ে খেলা পছন্দ করব 4

মুম্বাইয়ের বিরুদ্ধে দিল্লি প্রতিযোগীতা নিয়ে তিনি আরো বলেন,

“এর মধ্যে কোনো গোপনীয়তা নেই কিন্তু যখন আমরা এখানে আসি তখন আমরা সব বিভাগেই যথেষ্ট ট্রেনিং নিয়েছি। আমাদের প্রস্তুতি দারুণ ছিল, সেই সঙ্গে দলের পরিবেশও দুর্দান্ত ছিল। আমাদের জন্য গুরুত্বপূর্ণ হল ধারাবাহিক থাকা। (পন্থকে নিয়ে) ও সত্যিই ধ্বংসাত্মক ব্যাটসম্যান, আমি ওর ব্যাপারে একমাত্র এটাই বলতে পারি। গত কয়েক বছরে ও পরিণত হয়েছে অনেক। আজ ও শুরুর দিকে মাত্র চারটি ডট বল খেলেছে, এবং তারপর ও ম্যাচকে বিপক্ষের থেকে অনেক দূরে নিয়ে যায়। এটাই পরিণতবোধ নিয়ে আসে। দলের মধ্যে থাকা ও একজন দুর্দান্ত চরিত্র। (রাবাদার প্রসঙ্গে) আজ ও নেটের পর আমাকে প্রশ্ন করে ‘তুমি আমাকে বল করতে দেখলে?’ আমি ওকে বলি যে তুমি সম্পূর্ণ শক্তি দিয়ে বল করছো না। ও আমাকে বলে, ‘আমি ম্যাচের জন্য আমার এনার্জি জমিয়ে রাখছি”।

suvendu debnath

কবি, সাংবাদিক এবং গদ্যকার। শচীন তেন্ডুলকর, ব্রায়ান লারার অন্ধ ভক্ত। ক্রিকেটের...

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *