ওয়ানডে সিরিজের দল ঘোষনা হতে আরম্ভ করে এ পর্যন্ত সবচেয়ে বেশি উচ্চারিত শব্দ এটি। অধিনায়ক কোহলী এ পর্যন্ত পরীক্ষা – নিরীক্ষার কথা বললেও তৃতীয় ওয়ানডে পর্যন্ত একাদশে কোন পরিবর্তন আনা হয় নি। তৃতীয় ওয়ানডেতে বিজয়ের ফলে সিরিজ হওয়ায় এখন ই একাদশে পরিবর্তন আনার সবচেয়ে ভাল সুযোগ, একাদশের বাহিরে যারা আছে তাদের পরখ করার জন্যও নিয়মিত একাদশের কাউকে বিশ্রাম দেওয়া প্রয়োজন। কলম্বোর পিচ ঐতিহাসিক ভাবে ই ধীর গতি সম্পন্ন। এই পিচে প্রথমে ব্যাট করলে ব্যাটসম্যানরা সাহায্য পেলেও পরে পিচ হতে ব্যাটসম্যানরা সাহায্য পায় না।বরং রান তাড়া করা কঠিন কাজ। যে কেউ ভারতীয় একাদশে কিছু পরিবর্তন প্রত্যাশা করতে ই পারেন, নিজে আমরা চতুর্থ ওয়ানডের জন্য একটি সম্ভাব্য একাদশ করলাম :

১) অজিঙ্কা রাহানে : দলে সুযোগ পেলে ই প্রমাণ করেন তার অপরিহার্যতা। সর্বশেষ ওয়েস্ট উইন্ডিজের বিরুদ্ধে ওয়ানডে সিরিজেও ছিলেন সিরিজের সেরা খেলোয়ার। শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে টেস্ট সিরিজেও খেলেছেন অসাধারন। কিন্তু এরপরও ওয়ানডে একাদশে নিজের জায়গা এখনো স্থায়ী না। তাই বাকি দুই ওয়ানডেতে রোহিত শর্মাকে বিশ্রাম দিয়ে অজিঙ্কা রাহানে কে সুযোগ দিতে ই পারে ‘টিম ইন্ডিয়া’।

২) শেখর ধাওয়ান : দলের এই বাম হাতি ওপেনারের ক্রিকেট জ্ঞান আর দক্ষতা কলম্বোর পিচে ভারতের জন্য বড় পাওনা। একাদশে সুযোগ পেলে নিজের স্বাভাবিক ক্রিকেট খেলে ভারতকেও করবে নির্ভার।

৩) বিরাট কোহলী (অধিনায়ক) নিজে একাই যে কোন দলকে নেড়ে দিতে পারেন এমন যে কয়জন খেলোয়ার বর্তমানে আছে বিরাট কোহলী তাদের অন্যতম। গত এক বছরে বিশ্রাম বিহীন খেলে রেকর্ড করা কোহলী এই সিরিজে শেষ দুই ম্যাচ নিজের স্বরূপের প্রকাশ করতে না পারলেও হয়ত কলম্বোতে ই ফিরে পাবেন নিজের স্বরূপ।

৪) মানিশ পান্ডে : চার নাম্বারে তিন ম্যাচ সুযোগ পেয়েও লোকেশ রাহুল সে সুযোগকে নষ্ট করেছেন। দলে সুযোগ পাওয়া কত কঠিন তা জেনেও এমন সুযোগ নষ্ট করা বড় ধরনের অন্যায়।আর অন্য দিকে পান্ডে চার নম্বরের তার যোগ্যতা বিভিন্ন সময় সীমিত সুযোগে ই প্রমাণ করেছেন, তাই শেষ দুই ম্যাচে তার সুযোগটা প্রাপ্য ই।

৫) মহেন্দ্র সি ধোনী (উইকেট রক্ষক) সাবেক এই অধিনায়ককে নিয়ে অনেক কথা উঠলেও গত দুই ম্যাচে তার অনবদ্য ব্যাটিং সব জবাব বন্ধ করে দিয়েছে। ধোনী প্রমাণ করেছে তিনি কেন এখনো দ্যা ফিনেশার হিসেবে খ্যাত।

৬) কেদার যাদব : পরপর দুই ম্যাচে দুই অঙ্কের রান করতে ব্যর্থ হয়ে কেদার যাদব নিশ্চয় ই চিন্তিত। পার্ট টাইম বোলার হিসেবে সফলতা পেলেও তার মূল কাজ যেটা অর্থ্যাৎ ফিনিশার হওয়া সেখানে যদি এ ম্যাচেও ব্যর্থ হোন তাহলে হয়ত অস্ট্রেলিয়া সিরিজেও বাদ পড়তে পারেন।

৭) হার্দিক পান্ডিয়া : অসাধারন যাচ্ছে হার্দিক পান্ডিয়ার শ্রীলঙ্কা সফর। ওয়ানডে সিরিজে ব্যাটিং করার সুযোগ না পেলেও বল নিজের দায়িত্ব সঠিক ভাবে ই পালন করছেন তিনি। মাঝের ওভার গুলোতে বোলিং করে এনে দিচ্ছেন সফলতাও।

৮) আক্সার প্যাটেল : রবীন্দ্র জাদেজার বদলে সুযোগ পাওয়া এই স্পিনার সিরিজ জুড়ে করছেন অসাধারন বোলিং। বুঝে দিচ্ছেন ভবিষ্যতে জাদেজা পরবর্তী স্পিন আক্রমনে নেতৃত্ব দিতে প্রস্তুত এই তরুণ।

৯) ভুবেনশ্বর কুমার : ভারতীয় পেস আক্রমনের নেতৃত্ব সিরিজ জুড়ে ই হয়ত থাকবে তার কাছে।

১০) বুমরা : সর্বশেষ ম্যাচ পাঁচ উইকেট নিয়ে বুমরা বুঝিয়ে দিয়েছেন তিনি একাই কোন ব্যাটিং লাইনআপ কে ধ্বংস করে দিতে যথেষ্ট।

১১) কুলদীপ যাদব : সিরিজ করা ভারত হয়ত শেষ দুই ম্যাচে চায়নাম্যান খ্যাত কুলদীপ যাদবকে সুযোগ দেওয়া হতে পারে। ওয়েস্ট উইন্ডিজ সিরিজে ই নিজে তিনি চিনেয়েছেন।

SHARE
A Cricket enthusiast who is pursuing his passion.

আরও পড়ুন

আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে সর্বাধিক সেঞ্চুরির মালিক যে পাঁচ ক্রিকেটার

ক্রিকেটে একজন ব্যাটসম্যানের মানদণ্ড বিচার করার ক্ষেত্রে কোন ব্যাটসম্যান কত সংখ্যক সেঞ্চুরি হাঁকিয়েছেন তাঁর ক্যারিয়ারে তা অতীব...

দ্বিতীয় ওয়ানডেতে যে তিনটি মাইলফলক স্পর্শ করতে পারেন ভারতীয় ব্যাটসম্যানরা

ঘরের মাটিতে জয়রথ যেন থামছেই না টিম ইন্ডিয়ার। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে সাদা পোশাকে সিরিজ জয়ের পর রঙিন...

স্ট্যাটস: ভারত বনাম ওয়েস্টইন্ডিজ: প্রথম ওয়ানডেতে হতে পারে সাতটি রেকর্ড, রোহিত আর ধবন ইতিহাস বইতে নথিভূক্ত করতে পারেন নিজের নাম

স্ট্যাটস: ভারত বনাম ওয়েস্টইন্ডিজ: প্রথম ওয়ানডেতে হতে পারে সাতটি রেকর্ড, রোহিত আর ধবন ইতিহাস বইতে নথিভূক্ত করতে পারেন নিজের নাম
ভারতীয় দল আর ওয়েস্টইন্ডিজ দলের মধ্যে পাঁচ ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজের প্রথম ম্যাচ আগামিকাল ২১ অক্টোবর গুয়াহাটির মাঠে...

হ্যাপি বার্থ ডে সেহবাগ: এই ৫টি জিনিস প্রমান করে যে এখনও পর্যন্ত হয়নি বীরেন্দ্র সেহবাগের মত ব্যাটসম্যান

হ্যাপি বার্থ ডে সেহবাগ: এই ৫টি জিনিস প্রমান করে যে এখনও পর্যন্ত হয়নি বীরেন্দ্র সেহবাগের মত ব্যাটসম্যান
বিশ্বের সবচেয়ে আক্রামণাত্মক ওপেনার্সদের একজন বীরেন্দ্র সেহবাগ ৪০তম জন্মদিন পালন করছেন। ক্রিকেট জগত আর ওপেনিংকে নতুন পরিভাষা...

প্রত্যেক উইকেট নেওয়ার পর মিলত ১০ টাকা, ভারতীয় দলে জায়গা পাওয়ার পর রাতভর কেঁদেছিলেন এই খেলোয়াড়

প্রত্যেক উইকেট নেওয়ার পর মিলত ১০ টাকা, ভারতীয় দলে জায়গা পাওয়ার পর রাতভর কেঁদেছিলেন এই খেলোয়াড়
নিজের দলের হয়ে উইকেট নিতে প্রত্যেক বোলারেরই ইচ্ছে থাকে। পাপু রায় এক এমন বোলার যার জন্য উইকেট...