চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি থেকে নাম তুলবে না ভারত! 1

 

আগের দিন শোনা গিয়েছিল, আগামীদিনে আইসিসি’তে ভারত, অস্ট্রেলিয়া এবং ইংল্যান্ড জুটির সমন্বয়ে ২০১৪ সালে এন শ্রীনিবাসনের আমলে গড়ে ওঠা ‘বিগ থ্রি’ মডেলকে ধ্বংস করা হলে সামনের চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি থেকে টিম ইন্ডিয়ার নাম নাকি তুলে নেবে বিসিসিআই।যদিও এদিন সুপ্রিম কোর্ট দ্বারা নিযুক্ত বোর্ডের মাথায় বসিয়ে দেওয়া চার সদস্যের কমিটির অন্যতম সদস্য বিনোদ রায় জানিয়ে দিলেন, সবটাই গুজব।ইংল্যান্ডে আয়োজিত হতে চলা সামনের জুন মাসে চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফিতে ভারত নিশ্চিতভাবে অংশগ্রহণ করবে।এ প্রসঙ্গে এদিন তিনি বলেন, ‘কোনও গুজবের ভিত্তিতে ওঠা প্রশ্নের জবাব আমি দিতে রাজি নই।বোর্ড কেন চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি থেকে ভারতের নাম তুলে নেবে?দেশের ক্রিকেটপ্রেমীরা কি চাই না ভারত চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফিতে অংশগ্রহণ করুক?সবাই আমাদের এখন এই প্রশ্ন করছেন, এটা কি সত্যি সম্ভব?সেদিন কি আর আছে, যে আমরা হুমকি দিয়ে কাজ তুলে নেব?’

আইপিএলে রোজগারে শীর্ষে কে কে আর, পিছিয়ে চেন্না্ই-মুম্ব্ই

এই মুহূর্তে একটা কঠিন সময়ের মধ্যে দিয়ে যাচ্ছে বিসিসিআই। একদিকে দেশের মাটিতে সুপ্রিম কোর্টের বিরুদ্ধে শুদ্ধিকরণের বিরোধীতা করে লড়াই। অন্যদিকে, দুবাইয়ে আইসিসির বৈঠকে ‘বিগ থ্রি’ মডেলের অবসানের আতঙ্ক।এই অবস্থায় চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি থেকে নাম তুলে নিতে চেয়ে ভারত আন্তর্জাতিক ক্রিকেট সূচী এবং অর্থনৈতিক পরিকাঠামোতে নিজেদের একটা ছাপ রাখতে চাইছিল।যদিও সেই বৃত্ত থেকে বেরিয়ে এদিন বিনোদ রায় জানিয়ে দেন, চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি থেকে নাম তুলে নেওয়ার বিষয়টা ভিত্তিহীন।আইসিসির নতুন অর্থ বন্টন নিয়মের ফলেবিগ থ্রি’মডেলের অবসান ঘটবেল।তাদের নতুন অর্থ বন্টন পদ্ধতিতে বিশ্বের সব ক্রিকেটখেলিয়ে দেশগুলির মধ্যে সমান অর্থ বন্টন হবে।যদিও এই ধরণের নতুন আর্থিক নিয়ম প্রণয়নের আগে আইসিসি নিশ্চিতভাবে সবার কাছে সমর্থন চেয়ে ভোট পদ্ধতি অবলম্বন করবে।এ ব্যাপারে বিনোদ রায় বলেন, ‘এই ধরণের কোনও সিদ্ধান্তকে সমর্থন জানানোর আগে বোর্ড আইসিসির কাছ থেকে সময় চেয়ে নেবে। সামনের জুনে বার্ষিক সভাতে সেটা নিয়ে নিজেদের মধ্যে আলোচনা করে সিদ্ধান্ত নেব।তবে আমরা মনে করি, সাময়িক সময়ের বাড়তি লাভের চেয়ে দীর্ঘকালিন লাভের কথা ভাবা ভালো।’

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *