রিপোর্টস: যদি ধোনি অবসর না নেন তো দেওয়া হতে পারে দল থেকে বাদ

নিজের অবসর নিয়ে নিরবতা বজায় রেখে ভারতীয় দলের প্রাক্তন অধিনায়ক এবং উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান এমএস ধোনি সকলকেই অবাক করে দিয়েছেন। যদিও বিশ্বকাপ পরবর্তীয় পর্যায়ে একটা মজবুত সংকেত পাওয়া গিয়েছে যে তাকে হয়ত আর নীল জার্সিতে খেলতে দেখা যাবে না। বহু ক্রিকেট বিশেষজ্ঞ এবং প্রাক্তন খেলোয়াড়রাও মতামত জানিয়েছেন যে ধোনি এই মুহূর্তে ক্রিকেট বিশ্বকে বিদায় জানানো উচিত এবং তরুণদের জায়গা ছেড়ে দেওয়া উচিত।

বহু প্রাক্তন তারকাই বলেছেন অবসরের কথা

রিপোর্টস: যদি ধোনি অবসর না নেন তো দেওয়া হতে পারে দল থেকে বাদ 1

সম্প্রতি প্রাক্তন পাকিস্তানী জোরে বোলার শোয়েব আকতার জানিয়েছিলেন যে অবসরের পুরো সিদ্ধান্তই ধোনির হাতে, কিন্তু ধোনিকে তিনি পরামর্শও দিয়েছেন যে অন্যরা তাকে নিয়ে ঠাট্টা তামাশা এবং সমালোচনা করার আগেই ধোনির নিজেই সরে দাঁড়ানো উচিত। শোয়েব আকতার আরো বলেছিলেন যে ধোনির দেখা উচিত যে ৩৫ বছরের পর তার শরীর সর্বোচ্চস্তরে এগিয়ে যাওয়ার জন্য অনুমতি দিচ্ছে কিনা, কারণ ৩৫ বছরের পর স্বাভাবিকভাবেই শরীর স্লো হয়ে যায় যদি মানসিকভাবে ইচ্ছে থাকে আরো এগিয়ে যাওয়ার।

লীগ স্টেজে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে ম্যাচে হয়েছিলেন সমালোচিত

রিপোর্টস: যদি ধোনি অবসর না নেন তো দেওয়া হতে পারে দল থেকে বাদ 2

বিশ্বকাপ ২০১৯ এর লীগ ম্যাচে ইংল্যাণ্ডের বিরুদ্ধে ৩১ বলে ৪২ রানের ধোনির স্লো ইনিংসের জন্য তিনি চতুর্দিক থেকেই সমালোচিত হয়েছিলেন। ওই ম্যাচে এটা মনে হচ্ছিল শেষ ওভারের আগেই ধোনি রান তাড়া করার আশা ছেড়ে দিয়েছিলেন, যদিও শেষ দিকে তিনি বেশ কিছু বাউন্ডারি মেরেছিলেন, কিন্তু ততক্ষণে অনেকটাই দেরী হয়ে যায় এবং ম্যাচ ভারতের হাত থেকে বেরিয়ে যায়।

অবসর না নিলে দল থেকে বাদ দেওয়া হবে ধোনিকে

রিপোর্টস: যদি ধোনি অবসর না নেন তো দেওয়া হতে পারে দল থেকে বাদ 3

বিশ্বকাপ ২০১৯ এ ধোনির প্রদর্শন মোটামুটি থেকেছে। বেশ কিছু ম্যাচে নিজের স্লো ব্যাটিংয়ের জন্য সমালোচকদের নিশানাতেও থেকেছেন মহেন্দ্র সিং ধোনি। সম্প্রতি বিসিসিআইয়ের একটি ঘনিষ্ঠ সুত্র থেকে জানা গিয়েছে যে যদি ধোনি তার অবসর নিয়ে কোনো সিদ্ধান্ত না নেন তাহলে নির্বাচক প্রধান এমএসকে প্রসাদ তার সঙ্গে কিছু কথা বলতে পারেন, হয়ত প্রসাদ তাকে জানাতে পারেন যে তার খেলার দিন শেষ। টাইমস অফ ইন্ডিয়ার সঙ্গে একটি সাক্ষাতকারে ওই সূত্র জানিয়েছেন,

“আমরা সকলেই অবাক যে ও এখনো এটা নিয়ে সিদ্ধান্ত নেয়নি। ঋষভ পন্থের মত তরুণ তারকারা সুযোগ পাওয়ার অপেক্ষায় রয়েছে। আমরা বিশ্বকাপে দেখেছি যে ধোনি আর আগের মত ব্যাটিং করতে পারছেন না। ৬ ৭ নম্বরে ব্যাট করে এসে ধোনিকে জোরে বল খেলার জন্য সংঘর্ষ করতে দেখা যাচ্ছে, আর এটা দলের ক্ষতি করছে”।

ওয়েস্টইন্ডিজ সফরে সুযোগ পাবেন না

রিপোর্টস: যদি ধোনি অবসর না নেন তো দেওয়া হতে পারে দল থেকে বাদ 4

ওই সূত্র পরিস্কার জানিয়েছেন যে প্রাক্তন ভারত অধিনায়ককে আগামি ওয়েস্টইন্ডিজ সফরের জন্য নির্বাচিত নাও করা হতে পারে। ওই সূত্র জানিয়েছেন,

“আমার মনে হয় না নির্বাচকদের পরিকল্পায় ২০২০র টি-২০ বিশ্বকাপে ও রয়েছে। ওর আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে সম্মানের সঙ্গে সরে দাঁড়ানো উচিত। ওকে আর স্বতস্ফুর্তভাবে নির্বাচিত করা হবে না”।

ধোনির তরফ থেকে আসেনি কোনো জবাব

রিপোর্টস: যদি ধোনি অবসর না নেন তো দেওয়া হতে পারে দল থেকে বাদ 5

আশ্চর্যজনকভাবে বিশ্বকাপের পর অবসর নেওয়া নিয়ে ধোনির তরফে নির্বাচকদের সঙ্গে কোনো যোগাযোগ করা হয়নি। ওই সূত্র জানিয়েছেন,

“আমরা ওকে বিচলিত করতে চাইনি, আর ও নিজেও দলকে আর নিজেকে বিশ্বকাপের উপর ধ্যান কেন্দ্রিত করতে চাইছিল। কিন্তু এখন সময় এসেছে সিদ্ধান্ত নেওয়ার। ওর আর আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে কিছু অ্যাচিভ করার বা প্রমান করার নেই। আমি নিশ্চিত যে ওকে আর ভারতের জন্য নির্বাচিত করা হবে না। এটাই ওর জন্য সঠিক সময় সিদ্ধান্ত নেওয়ার। ভারতের এক প্রাক্তন ক্রিকেটার যিনি ভারতীয় ক্রিকেটে কাজ করেছেন তিনি ভালভাবেই জানেন যে ভারতীয় ক্রিকেটে কিভাবে বিষয়গুলো ঘটে। ইনফ্যাক্ট আমার মনে হয় যে এমনকী বিরাট কোহলির নেতৃত্বও রিভিউ করা উচিত। বিশ্বকাপ অভিযান কোনোদিক কোনো স্ট্যান্ডার্ডেই সফল হয়নি। জবাবদিহিটা উপর থেকেই শুরু করতে হবে”।

দুর্দান্ত থেকেছে এখনো পর্যন্ত কেরিয়ার

বিরাট বা শাস্ত্রী নন, বরং ইনি নিয়েছিলেন ধোনিকে সাত নম্বরে পাঠানোর সিদ্ধান্ত

এই মুহূর্তে মনে হচ্ছে যে ধোনির সময় শেষ হয়ে গিয়েছে। ধোনির দুর্দান্ত আন্তর্জাতিক কেরিয়ারে তিনি ১০৭৭৩ রান করেছেন ৫০.৫৭ গড়ে এবং ৩৭.৬০ গড় নিয়ে টি-২০তে করেছেন ১৬১৭ রান। যদি ওই সূত্রের কথা সঠিক হয় তাহলে এটাই ধোনির ফাইনাল কেরিয়ার স্ট্যাটেস্টিকস।

suvendu debnath

কবি, সাংবাদিক এবং গদ্যকার। শচীন তেন্ডুলকর, ব্রায়ান লারার অন্ধ ভক্ত। ক্রিকেটের...

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *